ঢাকা শনিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২০, ৭ কার্তিক ১৪২৭, ০৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

শনাক্তের চেয়ে সুস্থ বেশি

দেশে করোনাভাইরাস

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০০ এএম

দেশে করোনাভাইরাসে মৃত্যু থামছেই না। অদৃশ্য এই ভাইরাস গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ৩২ জনের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে। ফলে করোনায় মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল পাঁচ হাজার ২৫১ জনে। এই সময়ে করোনায় আক্রান্ত হিসেবে নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছেন আরো এক হাজার ৪৩৬ জন। এ নিয়ে দেশে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল তিন লাখ ৬৩ হাজার ৪৭৯ জনে। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন আরো এক হাজার ৭৮৯ জন। এ নিয়ে মোট সুস্থ রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল দুই লাখ ৭৫ হাজার ৪৮৭ জনে। গতকাল স্বাস্থ্য অধিদফতরের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত করোনাভাইরাসবিষয়ক এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে মৃত ও নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা তুলে ধরার পাশাপাশি জানানো হয়, করোনাভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘণ্টায় ১০৮টি পরীক্ষাগারে ১৩ হাজার ১৫৫টি নমুনা সংগ্রহ হয় করা হয়। তবে ১৩ হাজার ৪০৪টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এতে মোট নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৯ লাখ ৪৭ হাজার ৪৫৫টি।
বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় মৃতদের মধ্যে পুরুষ ২৪ জন এবং নারী ৮ জন। তাদের মধ্যে হাসপাতালে ৩১ জন এবং বাড়িতে একজনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে ত্রিশোর্ধ্ব দুইজন, চল্লিশোর্ধ্ব তিনজন, পঞ্চাশোর্ধ্ব তিনজন এবং ষাটোর্ধ্ব ছিলেন ২৪ জন। ঢাকা বিভাগের ছিলেন ২৪ জন, চট্টগ্রামের দুইজন, রাজশাহীর চারজন, সিলেটের একজন এবং ময়মনসিংহ বিভাগের ছিলেন একজন।

২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষার তুলনায় রোগী শনাক্তের হার ১০ দশমিক ৭১ শতাংশ এবং এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষার তুলনায় রোগী শনাক্তের হার ১৮ দশমিক ৬৬ শতাংশ। মোট রোগী শনাক্তের তুলনায় সুস্থতার হার ৭৫ দশমিক ৭৯ এবং মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৪৪ শতাংশ। এ পর্যন্ত মৃতদের মধ্যে পুরুষ ছিলেন চার হাজার ৬৩ জন (৭৭ দশমিক ৩৮ শতাংশ) এবং নারী ছিলেন এক হাজার ১৮৮ জন (২২ দশমিক ৬২ শতাংশ)।

বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের প্রথম সংক্রমণ ধরা পড়ে ৮ মার্চ। সংক্রমণ সাড়ে তিন লাখ পেরিয়ে যায় ২১ সেপ্টেম্বর। এর মধ্যে ২ জুলাই ৪ হাজার ১৯ জন কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হয়, যা এক দিনের সর্বোচ্চ শনাক্ত। প্রথম রোগী শনাক্তের ১০ দিন পর ১৮ মার্চ দেশে প্রথম মৃত্যুর তথ্য জানায় স্বাস্থ্য অধিদফতর। ২২ সেপ্টেম্বর সেই সংখ্যা পাঁচ হাজার ছাড়িয়ে যায়। এর মধ্যে ৩০ জুন এক দিনেই ৬৪ জনের মৃত্যুর খবর জানানো হয়, যা এক দিনের সর্বোচ্চ। জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকায় বিশ্বে শনাক্তের দিক থেকে পঞ্চদশ স্থানে আছে বাংলাদেশ আর মৃতের সংখ্যায় রয়েছে ২৯তম অবস্থানে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন