ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

পদ্মা সেতুতে বসল ৩২তম স্প্যান

দৃশ্যমান ৪.৮ কিলোমিটার

মুন্সীগঞ্জ ও শরীয়তপুর জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১২ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০২ এএম

তীব্র স্রোতের কারণে গত শনিবার বসানো সম্ভব না হলেও সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলীদের প্রচেষ্টায় দ্বিতীয় দিনে পদ্মা সেতুতে বসানো হয়েছে ৩২তম স্প্যান। গতকাল সকাল সাড়ে নয়টার দিকে মুন্সীগঞ্জের মাওয়া প্রান্তে ৪ ও ৫ নম্বর পিলারের ওপর স্প্যানটি বসানোর কাজ শেষ হয়। এর মধ্যে দিয়ে দেশের দীর্ঘতম এই সেতুর ৪৮০০ মিটার দৃশ্যমান হলো।
পদ্মা সেতুর নির্বাহী প্রকৌশলী (মূল সেতু) দেওয়ান মো. আব্দুল কাদের এ তথ্য জানান। এর আগে গতকাল স্প্যান বসানোর প্রস্তুতি থাকলেও তীব্র স্রোতের কারণে স্প্যানবাহী ক্রেন পিলারের কাছে নোঙর করতে না পারায় বসানো যায়নি স্প্যানটি।

সেতু সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলী সূত্র ও সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, গত শনিবার স্প্যানটি বসানোর পূর্বপ্রস্তুতি অনুযায়ী সকালে কুমারভোগ কনস্ট্রাকশন ইয়ার্ড থেকে ভাসমান ক্রেন তিয়ান-ই এর মাধ্যমে পিলারের কাছাকাছি নিয়ে যাওয়া হয়। তবে নদীতে স্রোতের কারণে বিকাল পর্যন্ত চেষ্টা করেও শেষ পর্যন্ত বসানো যায়নি স্প্যানটি। পরে ক্রেনটিকে আরও কিছুটা দূরে নদীতে নোঙর করে রাখা হয়।
গতকাল সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে পুনরায় স্প্যান বসানোর কাজ করা শুরু হয়। এরপর ক্রেনটিকে নির্ধারিত স্থানে এনে প্রকৌশলীদের মাপযোগ শেষে ধীরে ধীরে ইঞ্চিমেপে নির্ধারিত পিলারের ভ‚মিকম্প সহনশীল বিয়ারিংয়ের ওপর স্প্যানটি বসানো হয়। সকাল সাড়ে ছয়টা থেকে শুরু হওয়া স্প্যানটি বসানোর পুরো প্রক্রিয়া শেষ করতে সময় লাগে তিন ঘণ্টার মতো।

স্প্যানটি বসানোর মাধ্যমে পুরো সেতুতে বাকি রইলো আর মাত্র ৯টি স্প্যান বসানোর কাজ। যেগুলো সবগুলোই মুন্সীগঞ্জের মাওয়া প্রান্তের ১-২, ২-৩, ৩-৪, ৭-৮, ৮-৯, ৯-১০, ১০-১১, ১১-১২, ১২-১৩ নম্বর পিলারের ওপর বসানো হবে। সেতুর জাজিরা প্রান্তে সবগুলো স্প্যান এর মধ্যেই বসানোর কাজ শেষ হয়েছে। এর আগে চলতি বছরের ১০ জুন পদ্মা সেতুতে সর্বশেষ বসানো হয়েছিল ৩১তম স্প্যান। করোনা আর বন্যা পরিস্থিতির কবলে সেতুর অন্যান্য কাজ চললেও এরপর আর কোনো স্প্যান বসানো হয়নি। সেতু প্রকল্পের সার্বিক অগ্রগতি ৮১ ভাগেরও বেশি এবং মূল সেতুর প্রায় ৯০ ভাগ করা শেষ হয়েছে।

সেতু সংশ্লিষ্ট সূত্রে আরো জানা যায়, আরো তিনটি স্প্যান ‘ওয়ান-এ’, ‘ওয়ান-বি’ ও ‘ওয়ান-সি’ সম্পূর্ণ প্রস্তুত রয়েছে। পরবর্তী ৪টি স্প্যান ১-২, ২-৩, ৩-৪ নম্বর পিলারে বসানো হবে। আর ডিসেম্বরের মধ্যে বাকি ৯টি স্প্যান পিলারের ওপর বসানোর পরিকল্পনা রয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন