ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

খেলাধুলা

‘ভার’ এ মুখ ভার কোমানের

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৬ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০১ এএম

ম্যাচ শেষ হলেও এল ক্লাসিকো নিয়ে উত্তাপ এখনো ষোলোআনা। ৩-১ গোলে চিরপ্রতিদ্ব›দ্বীদের হারিয়ে রিয়াল যেখানে সন্তুষ্ট, বার্সেলোনা সেখানে হারের ব্যাখ্যা খুঁজে ফিরছে। নিজেদের মাঠে এমনভাবে পর্যুদস্ত হওয়ার দায় শেষমেশ ‘ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারি’ (ভিএআর) এর ওপর চাপিয়েছেন বার্সেলোনার ডাচ কোচ রোনাল্ড কোমান।

ম্যাচে তখন ১-১ গোলের সমতা। এমন সময় দেখা গেল ক্রুসের এক ফ্রি-কিকের সময় রামোসের জার্সি টেনে ধরেছেন বার্সা ডিফেন্ডার ক্লেমঁ লংলে। টান খেয়ে রামোস পড়ে গেলেন ডি-বক্সের মধ্যে। প্রথমে রেফারি পেনাল্টি না দিলেও ‘ভার’-এর সহায়তায় পেনাল্টি পায় রিয়াল মাদ্রিদ। রামোসের গোল করতে মোটেও সমস্যা হয়নি তাতে। ম্যাচের পাল্লাটা তখনই রিয়ালের দিকে হেলে পড়ে। কিছুক্ষণ পর মদরিচ তৃতীয় গোল করে বার্সার কফিনে শেষ পেরেকটা ঠুকে দেন। পেনাল্টিটা না হলে হয়তো বার্সেলোনা লড়ে যেত শেষ পর্যন্ত। বার্সা-কোচের আক্ষেপও তাই এই পেনাল্টি নিয়েই। যে পেনাল্টির কারণে ম্যাচের ভাগ্য এভাবে রিয়ালের দিকে ঝুঁকল, সে পেনাল্টিটাই বলে রিয়ালের প্রাপ্য নয়!

ম্যাচ শেষেক্ষুব্ধ কোমান ‘ভারের’ বিপক্ষে নিজের রাগ উগরে দিয়েছেন, ‘আমরা রেফারির সিদ্ধান্তের সঙ্গে সম্মত নই। আমার দৃষ্টিতে ওটা পেনাল্টি ছিল না। আশা করব স্পেনের ভিএআর নিয়ে একদিন যথোপযুক্ত ব্যাখ্যা পাব আমি। মাত্র পাঁচ ম্যাচ খেলেছি আমরা এই মৌসুমে, এর মধ্যে প্রত্যেকবার দেখলাম ভিএআরের সিদ্ধান্ত বার্সার বিপক্ষেই গেল। সেভিয়ার বিপক্ষে মেসির পেনাল্টিটা দেওয়া হলো না। হেতাফের বিপক্ষে লাল কার্ড পাওয়ার মতো দুটো ফাউলকে গণ্যই করা হলো না। সব সময় বার্সার বিপক্ষেই কেন ভিএআরকে ব্যবহার করা হচ্ছে? ভিএআর অসাধারণ একটা প্রযুক্তি, কিন্তু সব দলের জন্য যেন এটির প্রয়োগ সমান হয়।’

কোমান অবশ্য পেনাল্টির জন্য লংলেকে দোষ দেয়নি, ‘আমি পেনাল্টির ব্যাপারে লংলের সঙ্গে কথা বলিনি। আমার মতে, রামোসই লংলেকে ফাউল করেছিল। পরে লংলে রামোসকে ধরে রাখে। রামোসকে ফেলে দেওয়ার জন্য নয়, বরং সে নিজে যেন হুমড়ি খেয়ে সামনে না পড়ে যায়, সেটা থেকে বাঁচার জন্য। আবারও বলছি, এটা আমার দৃষ্টিতে পেনাল্টি না। অবশ্য রেফারিকে চাপে রাখাটা মাদ্রিদের খেলোয়াড়দের জন্য স্বাভাবিক বিষয়। আমার তাতে কোনো সমস্যা নেই। কিন্তু ম্যাচের গুরুত্বপ‚র্ণ এক সময়ে রেফারি ও ভিএআর ওই সিদ্ধান্তটা নেয়।’
তার কিছু পরই কোমানের তোপের জবাব রিয়াল শিবির থেকে দিলেন বস জিজুই!

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন