ঢাকা বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ১০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ০৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

মুসলিম উম্মাহ’র বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করছে ফ্রান্স

ফ্রান্স দূতাবাস ঘেরাও আজ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০০ এএম

রাসূল (সা.)’র ব্যঙ্গ কার্টুন প্রদর্শনী অব্যাহত রাখার জন্য সম্প্রতি ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাখোঁ কর্তৃক রাষ্ট্রীয় নির্দেশনা জারি ও বিকৃত কার্টুন প্রকাশের প্রতিবাদে গতকাল রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন জেলা- উপজেলায় মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এসময় বক্তারা বলেন, ফ্রান্সের এই পদক্ষেপ চরম অসভ্যতা ও বর্বরতাপূর্ণ, যা কোন মানবীয় বোধস¤পন্ন ব্যক্তি ও সমাজের পক্ষে অসম্ভব। তাদের এমন কাজে বিশ্ব মুসলিম ক্ষুব্ধ এবং মর্মাহত উল্লেখ বক্তারা ফ্রান্স সরকারকে অবিলম্বে এ ধৃষ্টতাপূর্ণ ব্যঙ্গচিত্র প্রচারণা বন্ধ করার আহবান জানান। অন্যথায় ফ্রান্সের বিরুদ্ধে সারাবিশ্বে প্রতিবাদের দাবানল ছড়িয়ে পড়বে এবং নবীপ্রেমিকরা ফ্রান্সের পণ্য বর্জন করতে বাধ্য হবে বলে হুশিয়ারি দেন তারা। এছাড়া বাংলাদেশ সরকারসহ ওআইসি ও আন্তর্জাতিক মুসলিম স¤প্রদায়কে নীরবতা ভেঙে অবিলম্বে এই ন্যাক্কারজনক পদক্ষেপের বিরুদ্ধে কঠোর ও কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণের জোর দাবি জানানো হয় সমাবেশ থেকে। এদিকে, আজ ফ্রান্স দূতাবাস ঘেরাও কর্মসূচি দিয়েছে ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ।

ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ : ফ্রান্সে প্রকাশ্যে বহুতল ভবনে রাসূল (সা.)-এর ব্যঙ্গ কার্টুন প্রকাশের প্রতিবাদে আজ মঙ্গলবার সকাল ১০টায় রাজধানীর বায়তুল মোকাররম উত্তর গেটে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর উদ্যোগে ঢাকাস্থ ফ্রান্স দূতাবাস ঘেরাও পূর্ব জমায়েত অনুষ্ঠিত হবে। এতে নেতৃত্ব দিবেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই। ঢাকাস্থ ফ্রান্স দূতাবাস ঘোরও কর্মসূচি সফলের আহ্বান জানিয়েছেন নগর দক্ষিণ সেক্রেটারী মাওলানা এবিএম জাকারিয়া ও উত্তর সেক্রেটারী মাওলানা আরিফুল ইসলাম।

মাইজভান্ডার দরবার শরীফ : ফ্রান্সে বিকৃত কার্টুন প্রকাশের তীব্র প্রতিবাদ নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করে মুসলিম দেশগুলোকে ফ্রান্সের পণ্য বয়কট করার ডাক দিয়েছেন মাইজভান্ডার দরবার শরীফের সাজ্জাদানশীন পার্লামেন্ট অব ওয়ার্ল্ড সূফীজের প্রেসিডেন্ট শাহ্সূফী মাওলানা সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল-হাসানী। গতকাল সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আন্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভান্ডারীয়া ও মইনীয়া যুব ফোরামের উদ্যোগে আয়োজিত মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী এ ডাক দেন। মানববন্ধনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, আন্জুমান কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি সাবেক এসপি আবুল কালাম আজাদ, সামশুল আলম বকুল, মাওলানা রুহুল আমিন ভূঁইয়া, শাহ।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ (মুফতি ওয়াক্কাস) : জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ-এর সভাপতি সাবেক মন্ত্রী মুফতি মুহাম্মদ ওয়াক্কাস ও কেন্দ্রীয় সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব শায়খুল হাদীস মাওলানা গোলাম মহিউদ্দিন ইকরাম এক বিবৃতিতে বলেন, ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট জেনেশুনে সা¤প্রদায়িক স¤প্রীতি নষ্ট করার জন্য রাসুল (সা.) এর ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করে মুসলমানদের কলিজায় আঘাত হেনেছে। এমন গর্হিত কাজের জন্য ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টকে মুসলিম উম্মাহ’র কাছে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইতে হবে।

বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস : ফ্রান্সে মহানবী (সা.)-এর ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশের প্রতিবাদে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের উদ্যোগে আগামী শুক্রবার ঢাকায় গণমিছিল ও দেশব্যাপী বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়েছে। গতকাল এক বিবৃতিতে গণমিছিল ও দেশব্যাপী বিক্ষোভ কর্মসূচি সফল করার জন্য সকল নবী প্রেমিক জনগণ ও দলীয় নেতা কর্মীদের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানেিয়ছেন সংগঠনের আমীর শায়খুল হাদীস আল্লামা ইসমাঈল নূরপুরী ও ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হক।

এদিকে, আগামী শুক্রবার বায়তুল মোকাররমের উত্তর গেইট থেকে ফ্রান্সে মহানবীর (সা.) অবমাননার প্রতিবাদে জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ এর উদ্যোগে গণমিছিল কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়েছে। সংগঠনের মহাসচিব আল্লামা নূর হোছাইন কাসেমী গণমিছিলে নেতৃত্ব দিবেন।

রাজশাহী ব্যুরো জানায়, রাসূল (সা.)’র ব্যঙ্গ কার্টুন প্রদর্শনী অব্যাহত রাখার জন্য স¤প্রতি ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাখোঁ কর্তৃক রাষ্ট্রীয় নির্দেশনা জারির চরম ধৃষ্টতাপূর্ণ পদক্ষেপের বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন ‘আহলে হাদীছ আন্দোলন বাংলাদেশ’র আমীরে জামা‘আত প্রফেসর ড. মুহাম্মাদ আসাদুল­াহ আল-গালিব। এক বিবৃতিতে তিনি প্রত্যেক মুসলমানকে ঈমানী দায়িত্ব হিসাবে যার যার অবস্থান থেকে এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানানোর আহ্বান জানান।

সিলেট ব্যুরো জানায়, সিলেটে বিক্ষোভ মিছিল-সমাবেশে করেছে বাংলাদেশ আনজুমানে তালামীযে ইসলামিয়া সিলেট জেলা ও মহানগর। গতকাল সোমবার বাদ জোহর মিছিলটি নগরীর সোবহানীঘাটস্থ হাজী নওয়াব আলী জামে মসজিদ প্রাঙ্গণ থেকে বের কোর্ট পয়েন্টে সমাবেশে মিলিত হয়। সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য প্রদান করেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি আখতার হোসাইন জাহেদ। সংগঠনের সিলেট মহানগরী সভাপতি মো. জাহেদুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সিলেট পশ্চিম জেলা সভাপতি শেখ আলী হায়দার এবং সিলেট মহানগরী সাধারণ সম্পাদক এস এম মনোওয়ার হোসেনের যৌথ পরিচালনায় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ আনজুমানে আল ইসলাহ সিলেট মহানগরীর সাধারণ সম্পাদক মাওলানা আজির উদ্দিন পাশা, তালামীযে ইসলামিয়ার সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি মুফতী বেলাল আহমদ, তালামীযে ইসলামিয়ার কেন্দ্রীয় সহ সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ উসমান গণি ও সাংগঠনিক সম্পাদক মোজতবা হাসান চৌধুরী নুমান।

ভোলা জেলা সংবাদদাতা জানান, ভোলায় মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা করেছে সাধারণ শিক্ষার্থীবৃন্দ। এ সময় বক্তব্য রাখেন, ভোলা নাগরিক কমিটির সদস্য সচিব এসএম বাহাউদ্দিন, সদর উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাশেদুজ্জামান হ্যাবেন, বিডিএস আহবায়ক মো. মামুন, মো. সাইফুল ইসলাম, মো. শরীফ, কাজী মহিবুল্লাহ প্রমূখ।

কমলনগর (লক্ষীপুর)উপজেলা সংবাদদাতা জানান, কমলনগর উপজেলার চরকাদিরা ইউনিয়নের ফজুমিয়ারহাট বাজারে এক প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ চরকাদিরা ইউনিয়ন শাখার সভাপতি মাওলানা হোসাইন আহমাদের সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা ও চরকাদিরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আল্লামা খালেদ সাইফুল্লাহ পীর সাহেব কমলনগর।

বোদা (পঞ্চগড়) উপজেলা সংবাদদাতা জানান, পঞ্চগড়ের বোদায় বিক্ষোভ সমাবেশ ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সোমবার দুপুরে ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন ও সমাবেশে বক্তব্য রাখেন মাওলানা শরিফুল ইসলাম, হাফেজ মো মোজাহার হোসেন, হাফেজ ও খতীব ইদ্রীস আলী, মুক্তি আব্দুল্লাহ আল মাসুদ প্রমুখ।

কেশবপুর উপজেলা সংবাদদাতা জানান, কেশবপুর কওমী উলামা পরিষদের উদ্যোগে শহরের ডাক্তার খানা জামে মসজিদে হযরত মুহাম্মদ (সঃ) এর নামে কটুক্তি, ও আহলে কুরআন অর্থাৎ তিন ওয়াক্ত নামাজ এর প্রচার কারিদের বিরুদ্ধে কেশবপুর উপজেলা কওমী উলামা পরিষদের সভাপতি মাওলানা আসাদুজ্জামানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মুফতী হাবীবুল্লাহ এর পরিচালনায় এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

নাঙ্গলকোট (কুমিল্লা) উপজেলা সংবাদদাতা জানান, কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে বাংলাদেশ আনজুমানে ছাত্র সালেকিন। বাংলাদেশ আনজুমানে ছাত্র সালেকিনের কুমিল্লা জেলা সভাপতি কাজী ইসহাক জামিলের সভাপতিত্বে বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আনজুমানে যুব সালেকিনের কেন্দ্রীয় সেক্রেটারি হাফেজ মাওলানা আবুল হাশেম। বক্তব্য রাখেন ছাত্র সালেকিনের কেন্দ্রীয় সহসাংগঠনিক সম্পাদক মোশারফ হোসেন, সদস্য ওমর ফারুক, নাঙ্গলকোট উপজেলা সেক্রেটারী হাফেজ নজরুল ইসলাম প্রমুখ।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (12)
Sabbir Hossain ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৪ এএম says : 0
মুসলিমদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষনা করেছে ফ্রান্স।ফ্রান্স চ্যালেন্জ জানাচ্ছে যে হে মুসলিম আসো আমার সাথে সাহস থাকলে যুদ্ধ করো।কিন্তু আফসোস আজ মুসলিমরা এতই দুর্বল যে সেই চ্যালেন্জ গ্রহন করে ফ্রান্সের টুটি চেপে ধরার মত কেউ নেই।আমাদের আজ একজন আইয়ুবী,তারেক বিন জিয়াদ,মুসলিম বিন কুতায়বা, মোহাম্মদ বিন কাসিম, সুলতান গজনবী,ইখতিয়ার উদ্দিন মোহাম্মদ বিন বখতিয়ার খলজি কেউ কেউ নেই।আমাদের মুসলিম বিশ্ব বর্তমানে আছে কতগুলো গাদ্দার উদহারন স্বরুপ সৌদির রাজপুত্র সালমান,মিশরের সিসি, আরব আমিরাতের রাজপুত্র আরও অনেক অনেকে।আর এসকল গাদ্দার ক্ষমতালোভী শাসকদের কারনেই আমরা আজ দুর্বল। মুসলিমদের প্রয়োজন একতাবদ্ধ হওয়া।আজ যদি সৌদি, আরব আমিরাত, মিশর,তুরস্ক,ইরান,কাতার,কুয়েত,পাকিস্তান, মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া, জর্ডান এক হতো আমি হলপ করে বলতে পারি মুসলিম বিশ্বের দিকে কেউ চোখ তুলে তাকাবার সাহস পেতো না।আর এই একতাবদ্ধ হওয়ার জন্য প্রথমেই দরকার তাদের নিজেদের মধ্যে একতাবদ্ধ হওয়া। দলমত নির্বিশেষে ইসলামের ছাতার নিচে একত্রিত হওয়া। আমাদের বুঝতে হবে আামদেরকে বিভক্ত করার জন্যই খৃস্টান ও ইহুদী নাসারারা আমাদের জন্য বিভিন্ন ফাঁদ পেতেছে আর এ ফাঁদগুলো হল শিয়া ছুন্নী আরও বিভিন্ন তরিকা। আর এ ফাঁদগুলো তৈরিতে সাহায্য করছে এসকল তাগুত সরকার।সুতরাং প্রথমেই এসকল তাগুত সরকার সরিয়ে ইসলামি মনোভাবাপন্ন সরকার ক্ষমতায় বসাতে হবে।আপনাকে বুঝতে হবে শয়তান মাথায় বসিয়ে আরেকটা শয়তানের সাথে লড়াই করা সম্ভব নয়।আর এসকল বিষয়গুলো আমরা মুসলিমরা যত দ্রুত বুঝে দ্রুত পদক্ষেপ নিতে পারবো ততই আমাদের জন্য মঙ্গল। আর এটি করতে সক্ষম একটা মুসলিম দেশের আলেম সমাজ।আলেম সমাজকেই সকল বিভেদ ভুলে মুসলিমদের একতাবদ্ধ করতে হবে সেই সাথে ইমাম সাহেবদের রাখতে হবে বিশেষ ভুমিকা প্রতিটি খুতবায় মুসলমানদের তাদের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে সচেতন করতে হবে। আর তখন আমরা ফ্রান্সের মত দেশের টুটি চেপে ধরতে পারবো.....
Total Reply(0)
মোঃ মাসুদ রানা ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৫ এএম says : 0
ওদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করার ডাক দেয়া হোক তুরস্কের সহয়তায় ইনসাআল্লাহ আল্লাহ আমাদের বিজয় দিবে
Total Reply(0)
Ibrahim Hossain ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৬ এএম says : 0
ফ্রান্সের সব পন্য বর্জন করা ও ফ্রান্সের সাথে সম্পর্ক ছিন্ন করা প্রতিটি মুসলিম ও মুসলিম দেশের উচিত। ফ্রান্সের এমন কর্মকাণ্ড ঘৃণা করি। ফ্রান্স নিপাত যাক
Total Reply(0)
Farhatual Hasan Nayem ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৬ এএম says : 0
নাওযুবিল্লাহ।যেই রাষ্ট মুসলমান জাতীর মনে আঘাত দিয়ে এতো বড় একটা নাস্তিকতা মুলক পাপ কাজ করার নির্দেশ দিয়েছে, সেই রাষ্ট এবং সেই রাষ্টের যে মানুষ নামের নিকৃষ্ট পশু গুলো এই নির্দেশ দিয়েছে আল্লাহ তায়ালা তাদের উপর গজব দিক।তাদেরকে আল্লাহ তায়ালা কঠিন শাস্তি দিয়ে দুনিয়া থেকে তুলে নিক।
Total Reply(0)
Muhammad Saiful Islam ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৬ এএম says : 0
প্রদীপ নেভার আগে একটু বেশিই জ্বলে ওঠে। হতে পারে এটা ওদের নিভে যাবার পূর্বাভাস।
Total Reply(0)
Chowdhury Shakil Ahmed ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৬ এএম says : 0
মুসলিম সিংহরা তাঁদের খাবার ঠিক সময়েই শিকার করে নেবে দৃষ্টান্ত মুলক জবাবের মাধ্যমে। ইনশাআল্লাহ।
Total Reply(0)
Kusum Koli ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৭ এএম says : 0
তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। এর ফয়সালা আল্লাহ করবেন। তাদের উপর আল্লাহর গজব অবধারিত হয়ে গেছে। শুধু সময়ের অপেক্ষা।
Total Reply(0)
সাখাওয়াত হোসেন ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১:৫৭ এএম says : 0
এদের শক্ত হাতে দমন করতে হবে। আল্লাহ তায়ালা এদের হিদায়েত দিক হিদায়েত কপালে না থাকলে ধ্বংস করে দিক।
Total Reply(0)
Munshi Arif ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ৮:৩৬ পিএম says : 0
রাসুল (সা)এর সাথে বেয়াদবী করার শাস্তি তারা পাবেই।
Total Reply(0)
habib ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ৯:৩৩ এএম says : 0
OIC members and Muslim world should take punitive action against France for their Islamophobia activities abusing and insulting prophet Muhammad RSW PBUH
Total Reply(0)
md Nazrul Islam ২৭ অক্টোবর, ২০২০, ১০:০৭ এএম says : 0
ফ্রান্সের সব পন্য বর্জন করা ও ফ্রান্সের সাথে সম্পর্ক ছিন্ন করা প্রতিটি মুসলিম ও মুসলিম দেশের উচিত। ফ্রান্সের এমন কর্মকাণ্ড ঘৃণা করি। ফ্রান্স নিপাত যাক
Total Reply(0)
Rn ariyen ২ নভেম্বর, ২০২০, ৭:১৯ এএম says : 0
আমি বুঝতে পারছি না,একটা মাএ দেশ,একটা মাএ প্রধানমন্তী মুসলমানদের এমন জায়গায় আঘাত করলো,মুসলিম বিশ্বে কি এমন নেতা জন্ম নেয়নি যে, এত সব প্রতিবাদী মুসলমানদের নিয়ে ফান্স কে উড়িয়ে দিতে পারে। আজ আমি বলছি হ্মমতা নেই বলে যদি আমার ডাকে বা আমার হাতে আল্লাহ এমন হ্মমতা দিত আমি যুদ্ধের ডাক দিয়ে দিতাম ফান্সের প্রেসিডেন্ট কে।হয় জয় নয় হ্ময় শুধু আমার নবী কারিম (সঃ) জন্য।জিবন দিতে কোন সমস্য নেই
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন