ঢাকা মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৫ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

খেলাধুলা

মেসিকে ঘিরেই বার্সার সব প্রস্তুতি

তাকে ছাড়তে না চাওয়ার কারণ জানালেন বার্তোমেউ : আজ প্রতিপক্ষ রোনালদোহীন জুভেন্টাস

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ অক্টোবর, ২০২০, ১২:০০ এএম

প্রবল সমালোচনা হবে জেনেও লিওনেল মেসিকে ক্লাব ছাড়তে দেয়নি বার্সেলোনা। এতদিনে এর কারণ খোলাসা করলেন ক্লাবটির প্রেসিডেন্ট জোজেপ মারিয়া বার্তোমেউ। কয়েক দিনের মধ্যে আর্জেন্টাইন তারকা চুক্তি নবায়ন করে ক্যাম্প ন্যু থেকেই অবসরে যাবেন বলে আশা ক্লাব প্রধানের।

২০২০-২১ মৌসুমের বাজেট প্রকাশের পর সোমবার সংবাদ সম্মেলনে অনেক বিষয় নিয়ে কথা বলতে হয়েছে বার্তোমেউকে। সেখানেই উঠে আসে গত দলবদলের সবচেয়ে আলোচিত বিষয়, মেসির ক্লাব ছাড়তে চাওয়ার প্রসঙ্গ। তিনি জানালেন, সবকিছু জেনে বুঝেই দলের সেরা খেলোয়াড়কে ধরে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল ক্লাব, ‘মেসি যে রাগ করেছিল, এটা আমি বুঝতে পারি। তবে আমরা তাকে যেতে দেইনি কারণ, আমাদের সব পরিকল্পনা তাকে ঘিরেই। আমরা আশা করছি, আগামী কয়েক দিনের মধ্যে সে বলবে, চুক্তি নবায়ন করে এখানেই সে থাকতে চায়।’

ক্লাব ছাড়তে না পারার কারণ হিসেবে তখন বার্তোমেউকে দুষেছিলেন মেসি। অভিযোগ তুলেছিলেন, বিভিন্নভাবে প্রেসিডেন্ট তার সঙ্গে দেখা করার বিষয়টি এড়িয়ে গেছেন। এর কারণও জানালেন সেই থেকে সমালোচনার মুখে থাকা ক্লাব সভাপতি, ‘তাকে ঘিরেই ক্লাব ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা করছিল। তাই আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম, এ নিয়ে দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় বসব না... সমালোচনার মুখে পড়ব জেনেও আমরা এই সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম। এখানে সে খেলা চালিয়ে যাবে কি-না, তা জানানোর একটা সময়সীমা ছিল। সেই সময়ের মধ্যে সে করেনি, তাই তাকে এখানেই থাকতে হয়েছে। আমরা সবাই চাই, সে এখান থেকেই অবসরে যাক।’

কোভিড-১৯ সঙ্কটকালে বেতন কমানো নিয়ে ফুটবলারদের অসন্তুষ্টির বিষয়টি কিছুদিন আগে সামনে এনেছিলেন দলটির অভিজ্ঞ ডিফেন্ডার জেরার্দ পিকে। তবে এটিকে বেতন ‘কমানো’ নয়, কঠিন পরিস্থিতিতে ‘সামঞ্জস্য বজায় রাখা’ হিসেবে দেখেন বার্তোমেউ, ‘বর্তমান অর্থনৈতিক পরিস্থিতিতে বেতন সামঞ্জস্যের ব্যাপারে আমাদের অ্যাথলেটদের প্রয়াসকে আমরা প্রশংসা করি। এটা বেতন কমানো নয়, ক্লাবের আয়ের সঙ্গে সামঞ্জস্যতা। আমার বিশ্বাস, আলোচনার টেবিল এটা ভালোভাবে শেষ হবে।’

মেসি-ক্লাব বিতর্ক নিয়েও বোর্ডের কড়া সমালোচনা করেছিলেন কদনি আগে দলের সঙ্গে নতুন চুক্তি করা পিকে। তবে কোনো বিষয়েই স্প্যানিশ ফুটবলারের মন্তব্য নিয়ে সবার সামনে কিছু বলতে চান না তিনি, ‘আমি খুব খুশি যে সে চুক্তি নবায়ন করেছে এবং ক্লাবের আয়ের সঙ্গে বেতনের ভারসাম্য এনেছে। সবার সামনে আমি খেলোয়াড়দের সঙ্গে তর্কে জড়াব না, ব্যক্তিগতভাবে কথা বলব। তাদের জন্য আমার দরজা খোলা।’
এতো গেল মাঠের বাইরে মেসির মূল্যায়ন। আর মাঠের ভেতরে? সেখানেও যে মেসিকে ঘিরেই চলে জয়ের যত পরিকল্পনা সেটিও অজানা নয় কারো। সতীর্থরাও যে মেসিকে কেন্দ্র করেই মাঠে নামেন তর আরেকটি প্রমাণ মিলল ফ্রেঙ্কি ডি ইয়ংয়ের কথায়।
গেল মৌসুমের ছন্দহীনতা এখনও কাটিয়ে উঠতে পারেনি বার্সেলোনা। চেনা ছন্দে দেখা যাচ্ছে না অধিনায়ক লিওনেল মেসিকেও। তবে, আর্জেন্টাইন তারকা এখনও বিশ্বের সেরা ফুটবলারই আছেন বলে মনে করেন ফ্রেংকি ডি ইয়ং। তাই কক্ষপথে ফিরতে দলের সবাইকে মেসির সঙ্গে মানিয়ে নেওয়ার তাগিদ দিলেন ডাচ এই মিডফিল্ডার।

আজ বাংলাদেশ সময় রাত দুইটায় উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে সিরি ‘আ’ চ্যাম্পিয়ন জুভেন্টাস মুখোমুখি হবে বার্সেলোনা। এর দুই দিন আগে, উয়েফাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বার্সেলোনায় নিজের জীবন, তার ওপর কোচ রোনাল্ড কোমানের প্রভাব, নিজের খেলা ও সতীর্থদের নিয়ে কথা বলেন ডি ইয়ং। সেখানেই উঠে আসে মেসি প্রসঙ্গ।

কোমানের ৪-২-৩-১ ফরমেশনের সঙ্গে এখনও পুরোপুরি মানিয়ে নিতে পারেননি রেকর্ড ছয়বারের বর্ষসেরা ফুটবলার। সব প্রতিযোগিতা মিলে মৌসুমে এখন পর্যন্ত ছয় ম্যাচ খেলে দুটি গোল করেছেন মেসি, দুটিই স্পট কিকে। লা লিগায় মেসি এখন পর্যন্ত গোলের সুযোগও তৈরি করেছেন কেবল একবার। যেখানে দলটির তরুণ ফরোয়ার্ড আনসু ফাতি সব প্রতিযোগিতা মিলে পাঁচ গোল করার পাশাপাশি সতীর্থদের দিয়ে করিয়েছেন একটি। তবে মেসির সামর্থ্যে প্রবল বিশ্বাস ডি ইয়ংয়ের, ‘মেসি দলে থাকা মানে অবশ্যই বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়কে দলে পাওয়া। তাই ফল পেতে তাকে তার সেরা পজিশনে খেলানো উচিত, যেন ব্যবধান গড়ে দিতে পারে। আমার মনে হয়, তার সঙ্গে আমাদের মানিয়ে দেওয়া দরকার। প্রিয় জায়গায় বল পেলে সবসময় সে ব্যবধান গড়ে দেয়।’

লা লিগায় নিজেদের প্রথম দুই ম্যাচ জয়ের পর হঠাৎ করেই যেন পথ হারিয়ে ফেলেছে বার্সেলোনা। শেষ তিন রাউন্ডে তারা পায়নি জয়ের দেখা, এর মধ্যে শেষ দুটিতে হেরেছে তারা। মাঝে অবশ্য গত সপ্তাহে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ফেরেন্সভারোসের বিপক্ষে দাপুটে পারফরম্যান্সে ছন্দে ফেরার আভাস দিয়েছিল দলটি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন