ঢাকা শনিবার, ১৬ জানুয়ারি ২০২১, ০২ মাঘ ১৪২৭, ০২ জামাদিউল সানী ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ভারতীয় নিম্নমানের অস্ত্রের কারণে আর্মেনিয়া হেরেছে : নেট দুনিয়ায় ট্রল

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৭ নভেম্বর, ২০২০, ৬:২০ পিএম

সম্প্রতি নাগোর্নো-কারাবাখ নিয়ে যুদ্ধে নিম্নমানের অকেজো ভারতীয় সামরিক হার্ডওয়্যারের কারণে আজারবাইজানের কাছে আর্মেনিয়া হেরেছে বলে সামাজিক গণমাধ্যমে ব্যাপক ট্রল চলছে। যদিও আর্মেনিয়া সরকারের পক্ষ থেকে ভারতের বিরুদ্ধে এখনো কোন অভিযোগ তোলা হয়নি কিন্তু নেট দুনিয়ায় ভারতীয় অস্ত্র নিয়ে সমালোচনা থামছে না। অভিযোগের তীর মূলত ভারতের সরবরাহ করা ‘সাথী’ রাডারের দিকে। -ইউরেশিয়ান টাইমস, সাউথ এশিয়ান মনিটর

টুইটার, ফেসবুক, ইউটিউবে অভিযোগ তোলা হয়, আর্মেনিয়া চলতি বছর ভারতের কাছ থেকে ৪০ মিলিয়ন ডলার দিয়ে যে সাথী রাডার কিনেছে তা আজারবাইজানের উন্নত অস্ত্রের বিরুদ্ধে কাজ করেনি। নেটিজেনরা যেসব সূত্র থেকে এই খবর প্রকাশ করেছে সেগুলোও নিশ্চিত করা যায়নি। কিছু ইউজার এমনও দাবি করেন যে আর্মেনিয়াকে ত্রুটিপূর্ণ রাডার সরবরাহের কারণে যে বিব্রতকর পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে তা ভারতীয় প্রতিরক্ষা শিল্পের ব্যাপক ক্ষতি করবে। আজারি সেনাদের হামলায় ক্ষতিগ্রস্ত সামরিক সরঞ্জামের তালিকায় সাথী রাডার নেই। আর যুদ্ধক্ষেত্রে এই রাডার ব্যবহার করা হয়েছে কিনা সেই তথ্যও গোপন রেখেছে আর্মেনিয়া সরকার।সাথী রাডার কিনতে চলতি বছরের মার্চে ভারতের সঙ্গে চুক্তি করে আর্মেনিয়া। ডিফেন্স রিসার্চ অর্গানাইজেশন (ডিআরডিও)-এর উদ্ভাবিত রাডারটি তৈরি করে ভারত ইলেক্ট্রনিক্স লি. (বিইএল)। দাবি করা হয় যে, এই রাডার একই সঙ্গে অনেকগুলো টার্গেট সনাক্ত করতে পারে এবং সেই তথ্য আর্টিলারি অপারেটরের কাছে সরবরাহ করে। বলা হয়, এই রাডার ৫০ কিলোমিটার পাল্লার মধ্যে মর্ডার, শেল ও রকেট সনাক্ত করতে পারে।

নাগোর্নো-কারাবাখ যুদ্ধে আর্মেনিয়ার ব্যাপক ক্ষতি হয়। দেশটি প্রায় ১৮৫টি টি-৭২ ট্যাঙ্ক, ৯০টি সাঁজোয়া যুদ্ধযান, ১৮২টি কামান, ৭৩টি মাল্টিপল রকেট ল্যান্সার, ২৬টি সারফেস-টু-এয়ার মিসাইল সিস্টেম, ১৪টি রাডার ও জ্যামার, একটি এসইউ-২৫ জঙ্গিবিমান, চারটি ড্রোন ও ৪৫১টি সামরিক যান হারিয়েছে বলে মিলিটারি এফেয়ার্স ব্লগ-অরিক্সের বিশ্লেষক তিজিন মিৎজার জানিয়েছেন। যুদ্ধে আজারবাইজানের ড্রোনগুলো ব্যাপক পারদর্শিতা দেখায় এবং আর্মেনিয়ার প্রতিরক্ষা ব্যুহ গুড়িয়ে দিয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (16)
Jack Ali ২৭ নভেম্বর, ২০২০, ৬:৪০ পিএম says : 1
May Allah destroy Armenian Army and those who are supporting them like France/Russia.
Total Reply(0)
Md Habib ২৭ নভেম্বর, ২০২০, ৭:২০ পিএম says : 0
...মনে হয় আর্মেনিয়ার সেনাবাহিনী দের কে বলে নাই যে যদি কাজ না করে তাহলে গরুর পেশাব পান করাবেন
Total Reply(0)
A R Sarker ২৭ নভেম্বর, ২০২০, ৭:৫২ পিএম says : 0
If the news is true, the news is undoubtedly good.
Total Reply(0)
সংবাদ ২৭ নভেম্বর, ২০২০, ৯:১৩ পিএম says : 3
পৃথিবীর একমাত্র অভিজ্ঞ সাংবাদিক সব ইনকিলাবে চাকরী করছে,,, ধর্মান্ধ দল সব।
Total Reply(0)
Anadi halder ২৭ নভেম্বর, ২০২০, ১০:২৮ পিএম says : 0
India yet not export swati rader to Armenia ,how they used this rader?
Total Reply(0)
Anadi halder ২৭ নভেম্বর, ২০২০, ১০:২৯ পিএম says : 0
India yet not export swati rader to Armenia ,how they used this rader?
Total Reply(0)
a aman ২৮ নভেম্বর, ২০২০, ১২:০১ এএম says : 0
Indian home made experiment should be banned in Bangladesh
Total Reply(0)
jahid ২৮ নভেম্বর, ২০২০, ১০:২৬ এএম says : 0
গরুর গৌমূত খেয়ে আর কি বানাতে পারবে।
Total Reply(0)
Md.Atik ullah ২৮ নভেম্বর, ২০২০, ১১:৫৩ এএম says : 0
এইখানেও বিএনপি জামায়েতর চক্রান্ত ছিলো
Total Reply(0)
মোহাম্মদ নুর আলম সিদ্দিক ২৮ নভেম্বর, ২০২০, ৮:৩০ পিএম says : 0
জর্জিয়া যুদ্ধে হার এর পেছনে বিএনপি জামাতের হাত থাকতে পারে বিষয়টি তদন্তের জন্য সুপারিশ করা হলো
Total Reply(0)
মোহাম্মদ নুর আলম সিদ্দিক ২৮ নভেম্বর, ২০২০, ৮:২২ পিএম says : 0
ভারতের অস্ত্র বিজ্ঞানীরা গরুর মূত্র খেয়ে এর থেকে ভালো আর কি অস্ত্র বানাতে পারবে
Total Reply(0)
মোহাম্মদ নুর আলম সিদ্দিক ২৮ নভেম্বর, ২০২০, ৮:৩৪ পিএম says : 0
প্রথমে ধন্যবাদ জানাই ইনকিলাব পত্রিকা কে এত সুন্দর এবং সময় উপযোগী একটা নিউজ করার জন্য
Total Reply(0)
MOHAMMAD BADSSHA MONDAL ১ ডিসেম্বর, ২০২০, ৬:০০ পিএম says : 0
মেন্টাল ছারা কেউ নিজের পায়ে নিজে কুড়াল মারেনা,ভারতের কাছথেকে অস্ত্র কেনার অর্থ নিজের পায়ে নিজে কুড়াল মারা। দেশের উন্নয়নের নামে যারা টাকা মেরেখাওয়ার ধান্দাকরে তারাই ভারতের কাছথেকে অস্ত্রকিনবে।
Total Reply(0)
Ripon ২ ডিসেম্বর, ২০২০, ৭:৫৭ পিএম says : 0
ভারতের কথা ও কাজের মিল নেই।
Total Reply(0)
তৌহিদুল ইসলাম মজুমদার ৩ ডিসেম্বর, ২০২০, ১:৪৪ পিএম says : 0
বাংলাদেশে গত বছর করোনায়া সহায়তার জন্য ভারত এইধরনের সেনাবাহিনী পাঠাইতে চেয়ে ছিলো ......করোনায় প্রয়োজন ঔষধ ডাক্টার ভ্যাকসিন আর ভারত চায় সুযোগে সেনাবাহিনী পাঠাইতে ........ওরা নিতে জানে দিতে নয় বিশ্বর এক নাম্বার হাড়-কৃপন জাতী।
Total Reply(0)
md Rubel hasan ৪ ডিসেম্বর, ২০২০, ৪:৩০ এএম says : 0
দাদারা কাজের কাজ কিছু করতে পারে না,শুধু মুত্র পান করে আর বড় বড় কথা বলে..
Total Reply(0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন