ঢাকা মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১, ৩০ চৈত্র ১৪২৭, ২৯ শাবান ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

দ্বিতীয় দিনেই বিশৃঙ্খলা

বনানী ইউটার্ন

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২২ ডিসেম্বর, ২০২০, ১২:০০ এএম

বনানী চেয়ারম্যান বাড়িতে ইউটার্ন চালু হবার দ্বিতীয় দিনেই বিশৃঙ্খল অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। যানজট মুক্ত করার লক্ষ্যে ইউটার্ন করা হয়েছে যেন কোন গাড়ি না থেমে সুন্দরভাবে চলাচল অব্যহত রাখতে পারে। গত রোববার বনানী চেয়ারম্যান বাড়ি, নাবিস্কো ও বিজি প্রেসের সামনে মোট তিনটি- ইউটান চালু করে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি)। গতকাল তিনটিতেই ট্রাফিক অব্যবস্থাপনা ছিল। এর মধ্যে বনানীতে বিশৃঙ্খলার কারণে ভয়াবহ যানজটের সৃষ্টি হয়।
গতকাল সরেজমিনে দেখা গেছে, মহাখালী থেকে বনানী যাবার পথে প্রচন্ড যানজটের সৃষ্টি হয়। ইউটার্নের পরপরই সৈনিক ক্লাব হয়ে ক্যান্টনমেন্ট এলাকায় গাড়ি ঢুকার পথে এমপি চেকপোষ্টে চেকের কারণে গাড়ির গতি কমে হালকা যানজট সৃষ্টি হয়। আর ক্যান্টনমেন্ট থেকে গাড়ি বের হয়েই টার্নিং দিয়ে মহাখালীর দিকে যায়। ফলে সৈনিকক্লাবের ঢুকার কারণে যানজট ও বের হবার পর টার্নিং দিয়ে মহাখালীর দিকে যাবার কারণে মহাখালী থেকে বনানী যাবার রাস্তায় প্রচন্ড যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এ সিগনালে এ যানজট নিয়মিত বিষয় কিন্তু ইউটার্ন করার পর ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা ঠিক না হওয়ায় যানজট মুক্ত করা সম্ভব হয়নি। আর উদ্বোধনের দ্বিতীয় দিনে এ সিগনালে কোন ট্রাফিক পুলিশ ছিল না। তবে বনানী থেকে মহাখালী যাবার পথে যানজট কমেছে।
ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন সূত্র জানায়, বনানী সিগনাল পার হয়ে রেল ষ্টেশনের সামনে আরেকটি ইউটার্ন করা হবে। তখন সৈনিক ক্লাব থেকে যে গাড়ি বের হবে তা ওই ইউটার্ন দিয়ে মহাখালীর দিকে যাবে। এখন যে টার্নিং রয়েছে তা বন্ধ করে দেয়া হবে। তখন এ সিগনালে কোন ধরণের যানজট থাকবে না।
এদিকে নাবিস্কো ও বিজি প্রেসের সামনে ইউটার্ন চালু করার পর বিজয় স্বরণী থেকে তেজগাঁও যাবার টার্নিংটি বন্ধ করে দেয়ার কথা ছিল। সিটি করপোরেশন বলেছিল বিজয় স্বরণী থেকে আসা গাড়ি নাবিস্কো ঘুরে সাতরাস্তার দিকে যাবে আর বিজয় স্বরণী যে গাড়ি গুলো যাবে তা বিজি প্রেসের সামনের ইউটার্ন দিয়ে ঘুরে এরপর যাবে। ফলে এ সিগনালের যানজট আর থাকবে না। কিন্তু তেজগাঁওয়ের এ সিগনালটি বন্ধ করা হয়নি। ফলে ইউটার্নের পরও যানজট ছিল। তবে মহাখালী থেকে তেজগাঁও যাবার পথে যানজট কিছুটা কমেছে।
এদিকে নাবিস্কো ও বিজি প্রেসের সামনের ইউটার্নের কাজ এখনো পুরোপুরি শেষ হয়নি। ইউটার্নের মধ্যে সড়ক দ্বীপে মাটি দিয়ে ভরাটের কাজ চলছে। এছাড়াও ডিভাইডারে রং করার কাজ চলছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (12)
নওরিন ২২ ডিসেম্বর, ২০২০, ৩:৫৬ এএম says : 0
ট্রাফিক পুলিশকে কঠোর হতে হবে
Total Reply(0)
দুলাল ২২ ডিসেম্বর, ২০২০, ৩:৫৭ এএম says : 0
নিয়ম অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।
Total Reply(0)
জুয়েল ২২ ডিসেম্বর, ২০২০, ৩:৫৭ এএম says : 0
আমরা হয়তো ভালো জিনিসের উপযুক্ত নই
Total Reply(0)
আশিক ২২ ডিসেম্বর, ২০২০, ৩:৫৮ এএম says : 0
এই ভালো উদ্যোগটি কাজে লাগাতে সকলকে সহযোগিতা করতে হবে
Total Reply(0)
গিয়াস উদ্দীন ফোরকান ২২ ডিসেম্বর, ২০২০, ৩:৫৯ এএম says : 0
নিয়ম মানার প্রবণতা আমাদের মধ্যে নেই
Total Reply(0)
বাবুল ২২ ডিসেম্বর, ২০২০, ৪:০০ এএম says : 0
বাকী কাজগুলো দ্রুত শেষ করা হোক
Total Reply(0)
Md Rukonozzaman Khan ২২ ডিসেম্বর, ২০২০, ১০:০৯ এএম says : 0
এই অল্প খা‌নিক রাস্তায় য‌দি ২/৩ টা ইউটার্ন থা‌কে তাহ‌লে যতই চেষ্টা করা হোক না কেন কিছুই হ‌বে না। ইউ টার্ন কমা‌তে হ‌বে না হ‌লে কিছু‌তেই কিছু হ‌বে না। বনা‌নি কাক‌লি মো‌ড়ে হ‌বে একটা। আমার ম‌নে হয় আর দরকার আ‌ছে ব‌লে ম‌নে হয় না।
Total Reply(0)
A k m shazzadur Rahman ২৪ ডিসেম্বর, ২০২০, ৭:৫২ এএম says : 1
বনানী কাজ শেষ না করে, এই অংশ চালু করা বোকামি।
Total Reply(0)
Tasvir ২৪ ডিসেম্বর, ২০২০, ৯:১০ পিএম says : 0
সিটি বাসগুলোর বেপরোয়া সমাগম আর রাস্তার মাঝখানেই যত্রতত্র দাড়িয়ে যাত্রী তোলা বন্ধ করতে পারলে অনেকাংশেই যানজট কমানো সম্ভব
Total Reply(0)
Muinuddin Zulfiquer ২৪ ডিসেম্বর, ২০২০, ৯:১৪ পিএম says : 0
ডিজাইন আরো নিখুঁত হওয়ার প্রয়োজন ছিল। বেশী জায়গা অপচয় হয়েছে। এত সুন্দর একটা প্রকল্প সিমুলেসন করে ডিজাইন করলে আরো ভাল সুফল পাওয়া যেত। পরবর্তীতে ই তে আ, আরো বেশী মেধা খাটানোর আশা রাখছি।
Total Reply(0)
Sumon ২৪ ডিসেম্বর, ২০২০, ১০:১২ পিএম says : 0
Akanay jamat bn per hat assay
Total Reply(0)
RAHMAN MD MAHFUZUR ২৫ ডিসেম্বর, ২০২০, ১২:২৮ পিএম says : 0
ঢাকার ভিতর ট্রাফিক সিগন্যাল বাতি স্থাপন করতে হবে।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন