ঢাকা বুধবার, ২০ জানুয়ারি ২০২১, ০৬ মাঘ ১৪২৭, ০৬ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ইন্দোনেশিয়ায় বিনামূল্যে ভ্যাকসিন প্রদান শুরু

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ জানুয়ারি, ২০২১, ৭:৪৩ পিএম

করোনা ভ্যাকসিন নিচ্ছেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো।


বুধবার থেকে ইন্দোনেশিয়ায় করোনা ভ্যাকসিন প্রদান কর্মসূচি শুরু হয়েছে। সবার প্রথমে ভ্যাকসিন নিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো। জনগণকে উৎসাহিত করতে তার টিকাকরণের দৃশ্য সরাসরি সম্প্রচার করা হয়।

ইন্দোনেশিয়ায় জরুরী ব্যবহারের জন্য চীনের সিনোভ্যাক বায়োটেকের তৈরি ভ্যাকসিন অনুমোদন পাওয়ার পরেই বিশ্বের অন্যতম জনবহুল দেশটি বিস্তীর্ণ দ্বীপপুঞ্জের লাখ লাখ মানুষকে ভ্যাকসিন দেয়ার প্রচেষ্টা শুরু করেছে। চীনের বাইরে সিনোভাক বায়োটেক লিমিটেডের ভ্যাকসিনটি ইন্দোনেশিয়াতেই প্রথম বৃহত্তর ব্যবহারের জন্য অনুমতি পেয়েছে। তবে বিশাল এই দেশটিতে সবাইকে ভ্যাকসিন দেয়াটা সরকারের জন্য কঠিন একটি চ্যালেঞ্জ। এর বিস্তৃত অঞ্চল জুড়ে রয়েছে কয়েক হাজার দ্বীপ। সেখানে বহু জায়গায় পরিবহন ও অবকাঠামো সীমাবদ্ধ। প্রেসিডেন্টের পরে শীর্ষ সামরিক কর্মকর্তা, পুলিশ ও চিকিৎসকদেরকে এই ভ্যাকসিন দেয়া হচ্ছে। ভ্যাকসিন নিয়েছেন ইন্দোনেশিয়ান ওলামা কাউন্সিলের সেক্রেটারিও। গত সপ্তাহে এই সংস্থাটি রায় চীনের ভ্যাকসিনটি ‘হালাল’ বলে ঘোষণা দিয়েছিলো। কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, তারা স্বাস্থ্যসেবা কর্মী, বেসামরিক কর্মচারী এবং ঝুঁকিপূর্ণ অন্যান্য জনগোষ্ঠীকে অগ্রাধিকার দেবেন এবং ভ্যাকসিনটির দুইটি ডোজই সমস্ত ইন্দোনেশিয়ান নাগরিকের জন্য বিনামূল্যে দেয়া হবে।

গত সোমবার দেশটির খাদ্য ও ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা (বিপিএম) শর্ত সাপেক্ষে করোনাভ্যাক ব্যবহারের অনুমোদন দেয়। সংস্থাটি সেদিন জানায়, চীনের সিনোভ্যাক বায়োটেকের তৈরি ভ্যাকসিন ৬৫ দশমিক ৩ শতাংশ কার্যকর, যা ডাব্লিউএইচওর শর্তকে পূরণ করে। স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ভ্যাকসিনটির সুরক্ষা এবং কার্যকারিতা বজায় রাখতে সেটি ৩৬ থেকে ৪৬ ডিগ্রি ফারেনহাইটের (প্রায় ২-৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস) মধ্যে রাখতে হবে। সূত্র: এপি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন