ঢাকা বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১, ১৮ ফাল্গুন ১৪২৭, ১৮ রজব ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ক্যাপিটল দাঙ্গা বিশ্বব্যাপী চরমপন্থী আন্দোলনের প্রতিচ্ছবি

বর্ণবাদের কালো থাবা ১

দ্য নিউ ইয়র্ক টাইম্স | প্রকাশের সময় : ২৬ জানুয়ারি, ২০২১, ১২:০০ এএম

বর্ণবাদী মতাদর্শে ঐক্যবদ্ধ চরমপন্থীরা বাস্তব এবং অনলাইন সংযোগের জন্য একটি নিরবচ্ছিন্ন ক্ষেত্র তৈরি করেছে, যা বিভিন্ন্ দেশের নিরাপত্তা কর্মীদের উদ্বেগের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এ নেতৃত্বহীন উগ্রপন্থীদের একাংশ গত ৬ জানুয়ারি ওয়াশিংটনের ক্যাপিটল হিলে হামলা চালিয়েছিল। তাদের ক্যাপিটল ভবনে ভাঙচুরের খবরে সুদূর আটলান্টিক জুড়ে উগ্রপন্থীরা উল্লাস প্রকাশ করেছিল। এর ঠিক চার মাস আগে জার্মানিতে চরমপন্থী বিক্ষোভকারীদের একটি দল দেশটির পার্লামেন্ট ভবনে প্রবেশের চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। এর ফলে একটি বিষয় পরিষ্কার হয় যায় যে, তাদের একটি সুনির্দিষ্ট উদ্দেশ্য এবং পরিকল্পনা রয়েছে। নিরাপত্তা বিশ্লেষকরা ধরণা করছেন যে, তা এ আক্রমণগুলোর থেকেও আরও বড় কিছু। বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার খবর বলছে, বিশ্বজুড়ে বর্ণবাদী এবং ধর্মীয় এবং রাজনৈতিক চরমপন্থী আন্দোলনের অনুগামীরা পরস্পরকে সহোযোগিতা করার জন্য একটি একক ক্ষেত্র তৈরি করেছে। জার্মান চরমপন্থী স্নাইপাররা প্রতিযোগিতার জন্য আমেরিকা ভ্রমণ করেছে। আমেরিকান নিও-নাৎসিরা ইউরোপের সহযোগীদের সাথে সাক্ষাৎ করেছে। বিভিন্ন দেশের এসব চরমপন্থী রাশিয়া এবং ইউক্রেন থেকে দক্ষিণ আফ্রিকা পর্যন্ত বিস্তৃত এবং বিভিন্ন প্রশিক্ষণ শিবিরের সাথে জড়িত।

বহু বছর ধরে বর্ণবাদী চরমপন্থীরা সমাজের অলিগলিতে এবং ইন্টারনেটের গভীরতম অঞ্চলে তাদের নিজস্ব আদর্শ ও অনুপ্রেরণার বিস্তার ঘটিয়ে আসছে। আমেরিকার রাজধানীতে ৬ জানুয়ারির ঘটনাগুলো তাদের সহিংসতার সম্ভাবনাকে উন্মোচিত করেছে। কেউ কেউ দাবি করেছেন, এটি তৎকালীন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে ক্ষমতাচ্যুত করার জন্য বামপন্থীদের সাজানো নাটক ছিল। তবে, অনেকের কাছে এ ধরনের ঘটনা আরো সম্মিলিত ও জোরালোভাবে একটি গণতান্ত্রিক সরকারকে হটিয়ে দেয়ার লক্ষ্যে কীভাবে এগিয়ে যেতে হবে এবং সে পরিকল্পনা অনুসরণ করতে হবে, তার একটি শিক্ষণীয় নজির।

বিশ্বজনীন এ হুমকিটি গোয়েন্দা কর্মকর্তারা, বিশেষত জার্মানি, গুরুত্ব সহকারে নিয়েছে। আমেরিকার সহিংসতার পরপরই জার্মান কর্তৃপক্ষ বার্লিনে পার্লামেন্ট ভবনের আশেপাশে নিরাপত্তা জোরদার করেছে, যেখানে ওয়াশিংটনের দাঙ্গাবাজদের অনুরূপ একই পতাকা ও প্রতীক বহনকারী চরমপন্থীরা গত ২৯ আগস্ট হাঙ্গামা করার চেষ্টা চালিয়েছিল। (চলবে)

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন