সোমবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২২, ১০ মাঘ ১৪২৮, ২০ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

ঢাবি হল খোলার বিষয়ে সিদ্ধান্ত আজ

বিশ্ববিদ্যালয় রিপোর্টার : | প্রকাশের সময় : ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১২:০১ এএম

দ্রুত বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলগুলো খুলে দেয়ার বিষয়ে আজ একাডেমিক কাউন্সিলের বৈঠকের পর সিদ্ধান্ত জানানো হবে বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ভিসি প্রফেসর ড. আখতারুজ্জামান। গতকাল সোমবার হল খোলার দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা ভিসিকে স্মরকলিপি দিতে গেলে তিনি এ কথা জানান। এরআগে সোমবার সকাল থেকেই হল খোলার দাবিতে আন্দোলন শুরু করে শিক্ষার্থীরা। শহীদুল্লাহ হলের শিক্ষার্থীরা তালা ভেঙ্গে হলে প্রবেশ করলেও প্রশাসনের হস্তক্ষেপে তারা হল ত্যাগ করে। বিকেল সাড়ে ৩টায় বিশ্ববিদ্যালয় রাজু ভাস্কর্যের সামনে অনুষ্ঠিত হয় মানববন্ধন। মানববন্ধন থেকে প্রশাসনকে ৭২ ঘন্টার আল্টিমেটাম বেধে দেয়া হলেও ভিসির আশ্বাসে আল্টিমেটাম প্রত্যাহার করে শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীরা জানান, ভিসি আশ্বাস দিয়েছেন সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী শিক্ষার্থীদের করোনা টিকার আওতায় আনা, আবাসিক হল খুলে দেওয়া এবং পরীক্ষা গ্রহণের সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করার জন্য মঙ্গলবার একাডেমিক কাউন্সিলের বৈঠক হবে। বৈঠক থেকে যদি আমাদের প্রত্যাশা পূরণ না হয় তবে আমরা কঠোর কর্মসূচিতে যাব। এ বিষয়ে ঢাবি ভিসি বলেন, আগামীকাল (আজ) সকাল সাড়ে ১০টায় একাডেমিক কাউন্সিলের মিটিং রয়েছে। সেই মিটিংয়ে আমরা সরকারি, জাতীয় ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সিদ্ধান্তগুলো সমন্বিত করে একটি সিদ্ধান্তে আমরা আসবো। অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের মতো শিক্ষার্থীরা তালা ভেঙে হলে উঠার সম্ভাবনার বিষয়ে ভিসি বলেন, আমাদের শিক্ষার্থীরা দায়িত্বশীল। তারা এ বিষয়ে দায়িত্বশীল আচরণ করবে বলে আমার দৃঢ় বিশ্বাস। প্যানডামিকের সময়ে কোন বিষয়ে একক সিদ্ধান্ত নেওয়া সম্ভব নয়।
বরং সমন্বিত সিদ্ধান্তের দিকে আমাদের এগোতে হবে বলে জানান ভিসি।

এরআগে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন থেকে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনির বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করে হল খুলতে ৭২ ঘন্টার আল্টিমেটাম দেয় আন্দোলনকারীরা। দুপুরে পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী শহীদুল্লাহ্ হলের মূল ভবনের ফলকে তালা ছাড়া আটকানো শিকল খুলে শিক্ষার্থীরা ভেতরে প্রবেশ করলে প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাদের বাধা দেয়া হয়নি। হলে উঠে উল্লাস প্রকাশ করতে দেখা যায় শিক্ষার্থীদের।

ভিসির সাথে বৈঠক শেষে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা বলেন, কীভাবে অতি দ্রুত হল খোলা যায়, সে বিষয়ে আমরা স্মারকলিপি জমা দিয়েছি। কথাও বলেছি। ভিসি স্যার আমাদের জানিয়েছেন, আগামীকাল একাডেমিক কাউন্সিলের পরে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানাতে পারব। আমরা ৭২ ঘন্টার যে আল্টিমেটাম দিয়েছি তা প্রত্যাহার করেছি। আমরা একাডেমিক কাউন্সিলের সভার সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় থাকবো। এরপর আমাদের নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন