ঢাকা, শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ২৪ বৈশাখ ১৪২৮, ২৪ রমজান ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

গাউসিয়া মার্কেটে কৃত্রিম অগ্নিকান্ড ফায়ার সার্ভিসের মহড়া

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১২:০০ এএম

জনবহুল রাজধানীতে প্রায়ই অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। তবে বহুতল ভবনগুলোতে আগুন লাগলে নানা কারণেই প্রাণহানি রোধ কষ্টসাধ্য হয়ে পড়ে ফায়ার সার্ভিসসহ আগুন নেভানোর সাথে জড়িতদের। বহুতল ভবনগুলোতে অগ্নিকান্ড প্রতিরোধ ও অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটলে তা মোকাবেলায় বিভিন্ন কার্যক্রম হাতে নিয়ে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফফেন্স অধিদপ্তর। এরই ধারাবাহিকতায় এবার গাউসিয়া মার্কেটে কৃত্রিম অগ্নিকান্ড ঘটিয়ে মহড়া সম্পন্ন করেছে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফফেন্স অধিদপ্তর। গতকাল শনিবার রাজধানীর গাউসিয়া মার্কেট ও পার্শ্ববর্তী ইসমাইল ম্যানশনে এ মহড়া অনুষ্ঠিত হয়।

জাতীয় দুর্যোগ প্রস্তুতি দিবস-২০২১ উপলক্ষ্যে ‹ভূমিকম্প ও অগ্নিকান্ড বিষয়ক সচেতনতা বৃদ্ধি মহড়ার› অংশ হিসেবে নিউমার্কেট-গাউসিয়া জোনে এই মহড়ার আয়োজন করা হয়। মহড়ার শুরুতে গাউসিয়া মার্কেট ও পার্শ্ববর্তী ভবনে কৃত্রিম অগ্নিকান্ড সৃষ্টি করা হয়। এরপর ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা প্রয়োজনীয় উপকরণ নিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ শুরু করে। অগ্নিকান্ডের ফলে ভবনে আটকে পড়াদের উদ্ধার এবং তাদের হাসপাতালে পাঠাতে পৃথম পৃথক টিম কাজ করে। এছাড়া ভবন থেকে ঝাঁপ দিয়ে বাঁচার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হয়।

একপর্যায়ে ফায়ার সার্ভিসের চেষ্টায় ওই কৃত্রিম অগ্নিকান্ড নিয়ন্ত্রণে আনা হয়। এ সময় উপস্থিত সকলের মধ্যে সচেতনতামূলক বার্তা সম্বলিত লিফলেট বিতরণ করা হয়।

ফায়ার সার্ভিসের পরিচালক (অপারেশন এন্ড মেনটেইনেন্স) লে. কর্নেল জিল্লুর রহমান উপস্থিত সাংবাদিকদের বলেন, আগুন লাগবে এরপর আমরা এসে নেভাবো এটা অগ্নি নিরাপত্তা নয়। অগ্নি নিরাপত্তা হচ্ছে ভবনের অগ্নিকান্ড প্ররিরোধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থাপনা। এখানে যে কয়েকটি ভবন আমার চোখের সামনে রয়েছে, সেগুলো আমরা পরীক্ষা না করেই বলতে পারি এগুলো অগ্নি নিরাপত্তা অত্যন্ত দুর্বল। আমরা দেখছি ভবনের সামনে অসংখ্য ঝুলন্ত তার। কখনে এসব ভবনে অগ্নিকান্ড হলে ফায়ার সার্ভিসের সদস্যদের প্রথমে যে বাধা সৃষ্টি করবে, তা হচ্ছে অপরিকল্পিত এসব ইলেক্ট্রিক লাইন।

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশে যতোই শপিং কমপ্লেক্স হোক, এখনো ঈদ বা পুজায় শপিংয়ের প্রথম পছন্দ এই নিউমার্কেট এবং গাউসিয়া। হয়তো আগামী ১০ বছরেও এটি প্রথম পছন্দই থাকবে। তাই আমরা আশা করবো যেন কোন অগ্নি দূর্ঘটনায় যেন একটি মানুষের জীবনও না যায়। এ সময় ফায়ার সার্ভিসের ঊর্দ্বতন কর্মকর্তাসহ বিভিন্ন বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থার প্রতিনিধি, মার্কেট মালিক সমিতির নেতা ও স্থানীয় কাউন্সিলর উপস্থিতি ছিলেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন