ঢাকা বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ০১ ব্শৈাখ ১৪২৮, ০১ রমজান ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

ভারতীয় মাদরাসায় গীতা পাঠদান সংবিধান লঙ্ঘনের শামিল বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পার্টি

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৪ মার্চ, ২০২১, ৫:৪২ পিএম

ভারত সরকারের প্রবর্তিত নতুন শিক্ষা নীতির আওতায় ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ওপেন স্কুলিং সংস্থার প্রস্তাবে ভারতের মাদরাসাসমূহে হিন্দু ধর্মগ্রন্থ গীতা, ভগবত ও রামায়ণ ইত্যাদি পাঠদানের যে সিদ্ধান্ত চাপিয়ে দেয়া হচ্ছে; তা ভারতীয় ঐতিহ্যের পরিপন্থী এবং ধর্মনিরপেক্ষ ভারতের সংবিধান লঙ্ঘনের শামিল।

আজ বৃহস্পতিবার এক যুক্ত বিবৃতিতে উপমহাদেশের ঐতিহ্যবাহী রাজনৈতিক দল বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পার্টির আমীর আল্লামা সরওয়ার কামাল আজিজি এবং মহাসচিব মাওলানা মুসা বিন ইযহার এবং মহানগরী আমীর প্রিন্সিপাল মাওলানা আবু তাহের খান এসব কথা বলেন। বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, ভারতের শাসন ক্ষমতায় চেপে বসা বর্তমান হিন্দুত্ববাদী উগ্র বিজেপি সরকার দীর্ঘদিন ধরে ভারতের শত শত বছরের ঐতিহ্যের কবর রচনা করে হিন্দুত্ববাদী উগ্র শাসন প্রতিষ্ঠার পাঁয়তারা করছে। তারা বিভিন্নভাবে ভারতের মাটি থেকে ইসলাম ও মুসলমানদের চিহ্ন মুছে দেয়ার ঘৃণ্য ষড়যন্ত্র চালিয়ে যাচ্ছে। এ লক্ষ্যে বিজেপি সরকার এযাবত বহু বিতর্কিত পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। নতুন শিক্ষানীতির নামে মুসলমানদের মন থেকে ইসলামী মূল্যবোধ বিলুপ্ত করা এবং মুসলিম জাতিসত্তার বিলোপ সাধনের অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। বহুজাতিক ভারতীয় ঐতিহ্য এর বিরুদ্ধে পরিচালিত এ সব অপতৎপরতা অবিলম্বে বন্ধ করতে হবে। নেতৃবৃন্দ বাংলাদেশের সরকারকে এ বিষয়ে কড়া প্রতিবাদ জানানোর আহŸান জানান। জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ :

এদিকে, ভারতের মাদরাসাগুলোতে শিক্ষার্থীদের বেদ, গীতা, রামায়ণ ও মহাভারত পড়ানোর প্রস্তাবের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের সভাপতি ও সাবেক মন্ত্রী মুফতি মুহাম্মদ ওয়াক্কাস ও সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব শায়খুল হাদীস মাওলানা ড.গোলাম মহিউদ্দিন ইকরাম। আজ বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় এই নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান। নেতৃদ্বয় বলেন,ভারতীয় ঐতিহ্য ও সংস্কৃতি রক্ষা করার নামে হিন্দুত্ববাদী সরকার সুকৌশলে মুসলমানদেরকে হিন্দু বানানোর গভীর চক্রান্ত ও ষড়যন্ত্র করছে। এর পরিণাম ভারতের জন্য শুভ হবে না। নেতৃদ্বয় আরো বলেন, ভারত হচ্ছে বহুত্ববাদী সংস্কৃতির দেশ। সে দেশে সংস্কৃতি রক্ষার নামে মুসলমানদের ধর্মীয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান মাদরাসায় হিন্দুগ্রন্থ পড়ানোর প্রস্তাব মুসলমানদের ধর্মীয় স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপের নামান্তর।ভারত একটি ধর্মনিরপেক্ষরাষ্ট্র। প্রত্যেক নাগরিক নিজ নিজ ধর্ম পালন করবে এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু মুসলমানদের উপরে অন্য ধর্মের গ্রন্থ চাপিয়ে দেয়া এটা অন্যায়। নেতৃদ্বয় ভারতের সরকারকে মানবতার কল্যাণে এই সিদ্ধান্ত থেকে ফিরে আসার আহ্বান জানান।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন