ঢাকা বুধবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮ আশ্বিন ১৪২৭, ০৫ সফর ১৪৪২ হিজরী

খেলাধুলা

নিজেদের ফেবারিট মানছেন না রেনিয়েরি

প্রকাশের সময় : ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্পোর্টস ডেস্ক : ইউরোপিয়ান ফুটবলে এই মুহূর্তে সবচেয়ে ফুরফুরে মেজাজে আছেন সম্ভবত ক্লাদিও রেনিয়েরি। ফুটবলের পাড় ভক্ত না হলে নামটি অবশ্য অপরিচিত লাগতে পারে। লাগারই কথা। ১২ মাস আগের ঠিক এই সময়টাতে টানা চার হারে যে দলের অবস্থান ছিল পয়েন্ট তালিকার তলানীতে, লড়তে হচ্ছিল অবনমোন অঞ্চল থেকে মাত্র ৫ পয়েন্ট ওপরে থেকে এমন একটা দলের কোচের নাম কে-ই বা মনে রাখে। কিন্তু যখন জানবেন সেই দলটির নাম লেস্টার সিটি আর তাঁদের কোচের নাম ক্লাদিও রেনিয়েরি তাহলে তো মনে রাখতেই হয়।
বছরান্তে ‘এই’ লেস্টারকে আলাদাভাবে চেনানোর কিছু নেই। ৫৩ পয়েন্ট নিয়ে প্রিমিয়ার লিগের শীর্ষ দল তারা। প্রতিদ্ব›দ্বীর চেয়ে আপাতত পরিষ্কারভাবে ৬ পয়েন্টে এগিয়ে। মৌসুমের চমক জাগানিয়া এই দলের হাতেই অনেকে দেখছেন এবারের লিগ শিরোপা। পরশু ইতিহাদ স্টেডিয়ামে ম্যানচেস্টার সিটিকে ৩-১ গোলে হারানোর পর স্বভাবতই এমন প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হয়েছিল রেনিয়েরিকে। কিন্তু প্রশ্নটা কৌশলে এড়িয়ে গেলেন তিনি। এমনকি এখনো পর্যন্ত শিরোপা দৌঁড়ে নিজেকে ফেবারিট মানছেন না তিনি। ইতালিয়ানের কথায় অবশ্য যুক্তি আছে। মৌসুমের প্রথমার্ধে তিনি বলেছিলেন, তার দলের লক্ষ্য ৪০ পয়েন্ট যার দ্বারা অবনমন এড়ানো যায়। শিরোপা নিয়ে ‘এপ্রিল শেষ না হওয়া পর্যন্ত’ কোন মন্তব্য করবেন না বলেও জানিয়েছেন ৬৪ বছর বয়সি। ‘জিতছি কিনা এ নিয়ে আমার কোন চিন্তা নেই। এই মুহূর্তে আমার মনে কেবলই ৭ দিন পরে (১৪ ফেব্রæয়ারি) আর্সেনালের বিপক্ষে ম্যাচ নিয়ে’Ñতিনি যোগ করেন। লিগের এখনো ১৩টি ম্যাচ বাকি। এই মুহূর্তে প্রত্যেক দলই চাইবে সাবধানে পথ চলতে। বিশেষ করে প্রিমিয়ার লিগে আগ বাড়িয়ে কিছু বলা যাবে না। তবে মুখে রেনিয়েরি যাই বলুন না কেন, মনের কোনে যে একটা স্বপ্ন যে লুকোনো আছে তা তো বোঝাই যায়। সেটা তার এই কথাতেই স্পষ্টÑ ‘আমরা এটা উপভোগ করছি এবং সমর্থকরা নিশ্চয় স্বপ্ন দেখা অব্যহত রেখেছে।’
ফুরফুরে মেজাজে আছেন টটেনহ্যাম (৪৮) হটস্পর কোচ মাউরিকো পচেত্তিনোও। থাকবেন নাই বা কেন, পরশু ওয়াটফোর্ডকে একমাত্র গোলে হারিয়ে ম্যানসিটিকে (৪৭) টপকে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে তাঁর দল। সিটির অবস্থান অবশ্য এখন চতুর্থ। গতকাল বোর্নমুথকে হারিয়ে আর্সেনাল (৪৮) উঠে এসেছে তৃতীয় স্থানে। টানা ৪ ম্যাচে কোন জয়হীন থাকার পর জয় পেল গানাররা।
‘ফেভারিট’ তকমা লাগানো লিগের বাকি দলগুলোর কোচেরা আছেন কঠিন সময়ে। উয়ুর্গুন ক্লপের ভাগ্যটা খারাপ বলতেই হবে। ঘরের মাঠে পরশু ২ গোলে এগিয়ে থেকেও শেষ ৮ মিনিটে দুই গোল খেয়ে বসে তার দল লিভারপুল। সান্ডারল্যান্ডের সাথে ম্যাচটি ড্র হয় ২-২ গোলে। চলতি মৌসুমেই ব্রান্ডন রজার্সের চেয়ারে বসেন ক্লপ। কিন্তু সুবিধা করতে পারছেন না কোন মতেই। লিগে অবস্থান নবম। এছাড়া ব্যর্থতার দায়ে ছাঁটাই হয়েছেন চেলসির হোসে মরিনহো। সুতোয় ঝুলছে ম্যানইউ কোচ লুইস ফন গালের ভাগ্যও। খুঁড়িয়ে পথ চলতে থাকা সিটির কোচের ভাগ্যও নিস্পত্তি হল সম্প্রতি। ম্যানুয়েল পেল্লেগ্রিনির জায়গায় আসছেন পেপ গার্দিওলা। পরিবর্তনের এই ঘোষনার পরেই একই সাথে হোঁচট খেলেন পেল্লেগ্রিনি ও গার্দিওলা। লেস্টারের কাছে সিটি তো হেরেছেই ওদিকে লিগে তৃতীয় বারের মত ড্র করেছে বায়ার্ন মিউনিখ। লেভারকুসেনের সাথে গোলশুন্য ড্র করেও অবশ্য শিরোপা দৌড়ে বরুশিয়া ডর্টমুন্ডের চেয়ে ৮ পয়েন্টে এগিয়ে মুলার-লেভান্দভস্কিরা।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন