ঢাকা, শনিবার, ০৮ মে ২০২১, ২৫ বৈশাখ ১৪২৮, ২৫ রমজান ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

লকডাউনে চলবে আটটি বিশেষ পার্সেল ট্রেন

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৪ এপ্রিল, ২০২১, ৪:৩৭ পিএম

করোনাকালে জীবন ও জীবিকা চালু রাখতে হবে। লকডাউনে কৃষক যাতে কৃষিপণ্য সহজে পরিবহন করতে পারে, সেজন্য বাংলাদেশ রেলওয়ে বিশেষ পার্সেল ট্রেন চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। লকডাউন শুরুর দিন বুধবার থেকে আটটি বিশেষ পার্সেল ট্রেন চলবে।

রেলপথমন্ত্রী মো. নূরুল ইসলাম সুজন মঙ্গলবার রেলভবনে করোনাকালে সব ধরনের পণ্যবাহী ট্রেন চলাচলের পাশাপাশি কৃষিজাত পণ্য ও পার্সেল মালামাল পরিবহনের সুবিধার্থে বাংলাদেশ রেলওয়ের বিভিন্ন রুটে বিশেষ পার্সেল ট্রেন পরিচালনার বিষয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন।

এ সময় মন্ত্রী বলেন, রেলওয়ে অতীতে বিভিন্ন সময় ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন, ক্যাটল ট্রেনসহ পার্সেল ট্রেন পরিচালনা করেছে। রেলওয়ে বর্তমানে তেল, সারসহ অন্যান্য মালামাল পরিবহন করছে। কৃষিপণ্য পরিবহনের সুবিধার্থে আগামীকাল (বুধবার) থেকেই আটটি পার্সেল ট্রেন চলাচল শুরু করবে।

বিশেষ পার্সেল ট্রেনে শাকসবজি, দেশীয় ফলমূলসহ অন্যান্য কৃষি পণ্যাদি পরিবহনের ক্ষেত্রে মূল ভাড়ার ওপর ২৫ শতাংশ রেয়াত ও অন্যান্য সব ধরনের চার্জ মওকুফ থাকবে।

বিশেষ পার্সেল ট্রেন চলাচলের সময়সূচি অনুযায়ী ঢাকা থেকে ছাড়বে বেলা সাড়ে ৩টায় এবং সিলেট পৌঁছবে রাত আড়াইটায়। সিলেট থেকে ছাড়বে সকাল পৌনে ৭টায় এবং ঢাকায় পৌঁছবে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায়। চট্টগ্রাম থেকে ছাড়বে বেলা ৩টায় এবং সরিষাবাড়ী পৌঁছবে ভোর সাড়ে ৫টায়। সরিষাবাড়ী ছাড়বে ভোর সাড়ে ৫টায় এবং চট্টগ্রাম পৌঁছাবে সন্ধ্যা ৬টা ৪০ মিনিটে।


এছাড়া সপ্তাহে শনি, সোম ও বুধবার খুলনা ছাড়বে বেলা সাড়ে ৩টায়, চিলাহাটি পৌঁছবে রাত আড়াইটায়। সপ্তাহে রবি, মঙ্গল ও বৃহস্পতিবার ‘চিলাহাটি-খুলনা’ রুটে চিলাহাটি ছাড়বে বেলা সাড়ে ৩টায়, খুলনা পৌঁছবে রাত আড়াইটায়। সপ্তাহে শনিবার, সোমবার, বুধবার বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম-ঢাকা রুটে একটি ট্রেন চলবে। বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম স্টেশন ছাড়বে বেলা ১টায়, ঢাকা পৌঁছবে ভোররাত ৩টায়। সপ্তাহে রোববার, মঙ্গলবার, বৃহস্পতিবার ‘ঢাকা-বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম’ রুটে একটি পার্সেল ট্রেন চলবে। ঢাকা ছাড়বে সকাল ৬টায়, বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম স্টেশনে পৌঁছবে রাত সাড়ে ৮টায়।

ঢাকা-চট্টগ্রাম, ঢাকা-সরিষাবাড়ী ও চট্টগ্রাম-সিলেটের পার্সেল মালামাল ভৈরববাজার ও আখাউড়া স্টেশনে লাগেজ ভ্যান সংযোজন-বিয়োজনের মাধ্যমে গন্তব্যে প্রেরণ করা হবে।

ব্রিফিংকালে রেলপথ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সেলিম রেজা, বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক ধীরেন্দ্রনাথ মজুমদার, অতিরিক্ত মহাপরিচালক অপারেশন সরদার শাহাদত আলী উপস্থিত ছিলেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন