ঢাকা, শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ২৪ বৈশাখ ১৪২৮, ২৪ রমজান ১৪৪২ হিজরী

খেলাধুলা

শ্রীলঙ্কায় প্রস্তুতি ম্যাচে ব্যাটসম্যানদের দিন

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৮ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০০ এএম

করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে কোনো নেট বোলার কিংবা প্রস্তুতি ম্যাচের দল দেবে না শ্রীলঙ্কা-এমন শর্ত মাথায় নিয়েই দুই টেস্টের সিরিজ খেলতে বাংলাদেশ দল শ্রীলঙ্কা পৌছায় ১২ এপ্রিল। সেখানে প্রাথমিকভাবে কোয়ারেন্টিনের পর গত বৃহস্পতিবার অনুশীলন শুরু করে তারা। গতকাল নিজেদের মধ্যে লাল দল ও সবুজ দলে ভাগ হয়ে দুই দিনের প্রস্তুতি ম্যাচও খেলেন তামিম-মুশফিকরা।
লাল দলের অধিনায়ক তামিম ইকবাল, তার দলে খেলছেন সাইফ হাসান, নাজমুল হোসেন শান্ত, মুশফিকুর রহিম, নুরুল হাসান সোহান, মেহেদি হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম, তাসকিন আহমেদ, আবু জায়েদ রাহি, খালেদ আহমেদ ও দলের সাপোর্ট স্টাফের একজন সদস্য।
সবুজ দলে অধিনায়ক মুমিনুল হকের সঙ্গে আছেন সাদমান ইসলাম, লিটন দাস, মোহাম্মদ মিঠুন, ইয়াসির আলি রাব্বি, শুভাগত হোম, নাঈম হাসান, শরিফুল ইসলাম, এবাদত হোসেন, শহিদুল ইসলাম ও মুকিদুল ইসলাম মুগ্ধ।
প্রথম দিন পুরোটাই গেছে ব্যাটিংয়ে থাকা লাল দলের পক্ষে। দিনের খেলাশেষে ৬ উইকেটে তারা করেছে ৩১৪। ৬ উইকেটের পাঁচটিতেই অবসর নিয়েছেন ব্যাটসম্যান। সবুজ দল তাই নিতে পেরেছে মাত্র এক উইকেট।
লাল দলের হয়ে ফিফটি তুলে নেন তামিম, সাইফ, শান্ত ও মুশফিক। চার জন করেন যথাক্রমে ৬৩, ৫২, ৫৩ ও ৬৬। একটুর জন্য ফিফটি পাননি সোহান। তিনি করেন ৪৮। মিরাজের ব্যাট থেকে আসে অপরাজিত ২৪। একমাত্র ব্যাটার হিসেবে আউট হওয়া তাইজুল করেন ২। সবুজ দলের একমাত্র উইকেটটি শিকার করেন শুভাগত, তাইজুলকে উইকেটের পেছনে লিটনের ক্যাচ বানিয়ে।
বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের এমন ব্যাটিংয়ের প্রশংসা করছেন দলের সঙ্গে শ্রীলঙ্কা যাওয়া মিনহাজুল আবেদীন।
তিনি বলেন, ‘উইকেটের যে কন্ডিশন ছিল, প্রথম ঘন্টায় ব্যাটিং করা কঠিন ছিল। আমাদের ওপেনার তামিম, সাইফরা অসাধারণ ব্যাটিং করেছে। শান্ত, মুশফিক অসাধারণ ব্যাটিং করেছে। বোলাররাও খুব চেষ্টা করেছে অভ্যস্ত হওয়ার জন্য। আমার বিশ্বাস এই প্র্যাকটিস ম্যাচ থেকে আমরা যথেষ্ট ভালো ফিডব্যাক পেয়েছি। আগামী দিন খেলা শেষ হওয়ার পর টেস্টের জন্য পুরোপুরি প্রস্তুতি নিতে পারব।’
শ্রীলঙ্কায় অনুশীলন ম্যাচ আয়োজন খুবই জরুরি ছিল বলে জানান প্রধান নির্বাচক। তিনি বলেন, ‘এটা আমাদের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ ছিল। আমাদের খেলোয়াড়রা দুইদিন অনুশীলনের পরই এই প্র্যাকটিস ম্যাচটা পেয়েছে, এটা আমাদের জন্য যথেষ্ট উপকার হয়েছে। বিশেষ করে আবহাওয়া, কন্ডিশন সবকিছুর সাথে মানিয়ে নেয়ার জন্য। আমার মনে হয় খেলোয়াড়রা যথেষ্ট অভ্যস্ত হয়েছে কন্ডিশন ও উইকেটের সাথে। যথেষ্ট ভালো প্র্যাকটিস হয়েছে। আমাদের টপ অর্ডাররা ভালো ব্যাটিং করেছে, বোলাররা যথেষ্ট চেষ্টা করেছে লাইন লেংন্থ ও ভালো জায়গায় বল করার। সব মিলিয়ে ভালো প্রস্তুতিতে সহায়তা করেছে, কাল আরও একদিনের খেলা আছে।’
ব্যাটসম্যানরা ভালো করলেও বোলারদের কঠিন সময় গেছে। তামিম ইকবালের লাল দল কোনো উইকেট না হারিয়েই চা বিরতি পর্যন্ত ২০৪ রান তোলে। এ নিয়ে মিনহাজুল আবেদীন বলেন, ‘বোলারদের জন্য খুব কঠিন একটা সেশন গিয়েছে। যে উইকেট ও কন্ডিশন, বাউন্স যথেষ্ট ভালো, যেহেতু এটা অনেকটা ফ্ল্যাট ট্র্যাকের মতো।’
টেস্টের উইকেট এমন হবে বলেই মনে করছেন প্রধান নির্বাচক, ‘হয়তো টেস্টেও এ রকম কন্ডিশন হতে পারে, এই গরমের মধ্যে ভালো জায়গায় বল করা, মনোযোগ থাকা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আরও একটা দিন বাকি আছে ম্যাচ প্র্যাকটিসে অভ্যস্ত হওয়ার জন্য। আমার বিশ্বাস আমাদের বোলাররা খুব তাড়াতাড়ি অভ্যস্ত হতে পারবে, টেস্ট ক্রিকেটের আগে প্রস্তুতির জন্য এটা যথেষ্ট কাজে লাগবে। বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কার মধ্যকার ম্যাচ দুটি অনুষ্ঠিত হবে ক্যান্ডির পাল্লেকেলে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। প্রথম টেস্ট শুরু হবে ২১ এপ্রিল। দ্বিতীয় টেস্ট মাঠে গড়াবে ২৯ এপ্রিল। এই মাঠে এবারই প্রথম টেস্ট ম্যাচ খেলতে যাচ্ছে বাংলাদেশ।

প্রস্তুতি ম্যাচের দুই দল
লাল দল : তামিম ইকবাল (অধিনায়ক), সাইফ হাসান, নাজমুল হোসেন শান্ত, মুশফিকুর রহিম, নুরুল হাসান সোহান, মেহেদী হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম, তাসকিন আহমেদ, আবু জায়েদ রাহী, খালেদ আহমেদ ও এক সাপোর্ট স্টাফ।
সবুজ দল : মুমিনুল হক (অধিনায়ক), সাদমান ইসলাম, লিটন দাস, মোহাম্মদ মিঠুন, ইয়াসির আলী, শুভাগত হোম, নাঈম হাসান, শরিফুল ইসলাম, এবাদত হোসেন, শহিদুল ইসলাম ও মুকিদুল ইসলাম।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন