ঢাকা, শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ২৪ বৈশাখ ১৪২৮, ২৪ রমজান ১৪৪২ হিজরী

সারা বাংলার খবর

ভোলায় ৯০ টাকার স্যালাইন ৩০০ টাকা

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২১ এপ্রিল, ২০২১, ৯:৫৮ এএম

বরিশাল অঞ্চলে হঠাৎ করে ডায়রিয়ার প্রাদুর্ভাব বেড়েছে। আর এতে করে দেখা দিয়েছে তীব্র খাবার স্যালাইনের সংকট। সরকারি হাসপাতালে স্যালাইন নেই। আক্রান্তরা বাধ্য হয়ে স্থানীয় খুচরা দোকান থেকে স্যালাইন কিনছেন। অন্যদিকে স্যালাইনের চাহিদা তুঙ্গে থাকায় সরবরাহ কমের অজুহাতে দাম বাড়িয়ে দিয়েছে দোকানিরা।

ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলার ৫০ শয্যা হাসপাতালে ডায়রিয়া রোগীদের চিকিৎসা দিতে হিমশিম খাচ্ছে ডাক্তার ও নার্সরা। গড়ে প্রতিদিন ৯০ থেকে ১০০ জন করে ডায়রিয়া রোগী ভর্তি হচ্ছেন। গত এক সপ্তাহে ডায়রিয়া রোগী ভর্তি হয়েছে ৫০০। গত শুক্রবার রাত থেকে এ হাসপাতালে স্যালাইন না থাকায় বাধ্য হয়ে বাইরে থেকে সেলাইন কিনতে হচ্ছে রোগীদের। আর এ সুযোগে ফার্মেসিগুলো নানা অজুহাতে ৯০ টাকার স্যালাইন ৩০০ থেকে সাড়ে ৩০০ টাকায় বিক্রি করছে বলে অভিযোগ উঠছে।

রোগীরা বাধ্য হয়েই চড়া দামে সেলাইন ক্রয় করে চিকিৎসাসেবা নিচ্ছেন। এ ছাড়া বেডের চেয়ে রোগীর সংখ্যা অধিক হওয়ায় এসব ডায়রিয়া রোগীর ঠাঁই হচ্ছে হাসপাতালের ফ্লোরে। রোগীদের চাপ বেশি থাকায় চিকিৎসা দিতে হিমশিম খাচ্ছে নার্স ও ডাক্তারা। বুধবার সকালে এমন চিত্র পাওয়া গেছে।

বোরহানউদ্দিন হাসপাতালের আরএমও ডাক্তার মো. সাজ্জাদ হোসেন জানান, গড়ে প্রতিদিন ৯০ হতে ১০০ ডায়রিয়া রোগী ভর্তি হচ্ছে। কোনো কোনো দিন ১২০ জন ডায়রিয়া রোগী ভর্তি হচ্ছে। গত দুই সপ্তাহে প্রায় ৭০০-এর বেশি ডায়রিয়া রোগীকে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। ৬ মাসের ডায়রিয়া স্যালাইন ১ মাসেই শেষ হয়ে গেছে। গত শুক্রবার থেকে ডায়রিয়ার স্যালাইন নেই। হাসপাতালে বেডের সংখ্যা ৫০টি কিন্তু রোগী ভর্তি হচ্ছে ১০০ থেকে ১৫০ জন। তাই ফ্লোরে কাগজ বিছিয়ে রোগীরা চিকিৎসাসেবা নিচ্ছেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন