শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ০৭ কার্তিক ১৪২৮, ১৫ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

উয়েফার হুমকি, বার্সা-রিয়াল-জুভেন্টাসের কড়া জবাব

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৯ মে, ২০২১, ১২:০০ এএম

ভেস্তে যেতে বসা ইউরোপিয়ান সুপার লিগ থেকে নাম প্রত্যাহার করে নেওয়া ৯টি ক্লাবের সঙ্গে একটি চুক্তিতে পৌঁছেছে উয়েফা। তবে, শাস্তির মুখে পড়তে যাচ্ছে ‘বিদ্রোহী’ টুর্নামেন্টটিতে এখনও টিকে থাকা বাকি তিন ক্লাব-রিয়াল মাদ্রিদ, বার্সেলোনা ও জুভেন্টাস। এক বিবৃতিতে উয়েফার সভাপতি আলেক্সান্ডার সেফেরিন বলেন, ‘সুপার লিগে টিকে থাকা বাকি ক্লাবগুলোকে নিয়ে একই কথা বলা যাচ্ছে না। উয়েফা পরবর্তী সময়ে ক্লাবগুলোর বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে।’
এখানে সভাপতি পরিষ্কার ভাবেই ইঙ্গিত দিয়েছেন বার্সেলোনা, রিয়াল মাদ্রিদ ও জুভেন্টাসের প্রতি। উয়েফার এমন আচরণের তীব্র বিরোধীতা করেছে রিয়াল, বার্সা ও জুভেন্টাস। এক যৌথ বিবৃতিতে তারা জানায় সুপারলিগের ঘোষণা দেয়ার পর থেকেই চাপে রয়েছে তারা, ‘প্রতিষ্ঠাতা ক্লাবগুলিকে সংঘর্ষ করতে হয়েছে, এখনও চলছে সংঘর্ষ। প্রজেক্ট ছাড়তে ও গঠনমূলক আলোচনা ও শক্ত প্রস্তাবনার মাধ্যমে ফুটবল ইকোসিস্টেমের সমস্যা সমাধানে ক্লাবগুলো অধিকার ও দায়িত্ব থেকে সরে আসতে তৃতীয় পক্ষের কাছ থেকে চাপ ও হুমকি পেতে হয়েছে।’
তিন ক্লাবের দাবি, তারা সুপারলিগের বৈধতা নিয়ে আদালতে যতক্ষণ পর্যন্ত সমাধান না হচ্ছে ততক্ষণ উয়েফা জড়িত ক্লাবগুলোর বিপক্ষে কোনো পদক্ষেপ নিতে পারবে না, ‘আদালতে সুপারলিগ সংক্রান্ত মামলা চলাকালীন ক্লাবগুলোর বিপক্ষে কোন ধরনের শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিতে ফিফা, উয়েফা ও এর সহযোগী সংস্থাগুলোকে আদালত নিষেধ করার পরও এমন পরিস্থিতি মেনে নেয়ার মতো না।’
বার্সা, রিয়াল ও জুভেন্টাস বিশ্বাস করে এখনও আরা ইউরোপিয়ান ফুটবলের সার্বিক উন্নতির জন্য তারা নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলোর সঙ্গে আলোচনা করতে সক্ষম, ‘সুপার লিগের ঘোষণা দেয়া সময় আমরা যেমনটা বলেছিলাম, তেমনটা ফিফা, উয়েফা ও সহযোগী সংস্থাগুলোকে আবারও বলতে চাই। আইনের মধ্যে থেকে ও কোনো প্রকার চাপ ছাড়া, সম্মানের সঙ্গে পুরো ফুটবল পরিবারের স্থিতিশীলতার জন্য সমাধানগুলো আমরা আলোচনা করতে চাই।’
ইউরোপিয়ান ফুটবলের নিয়ন্তক সংস্থা গতপরশু এক বিবৃতিতে জানায়, সুপার লিগ থেকে বেরিয়ে আসা ক্লাবগুলো পুরনো অবস্থায় ফেরার অঙ্গীকারনামা ‘ক্লাব কমিটমেন্ট ডিক্লারেশন’ এ স্বাক্ষর করেছে। ক্লাবগুলো হলো-ইংল্যান্ডের ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, লিভারপুল, ম্যানচেস্টার সিটি, চেলসি, টটেনহ্যাম হটস্পার, আর্সেনাল, ইতালির এসি মিলান, ইন্টার মিলান ও স্পেনের অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ।
৯ ক্লাবের অঙ্গিকারনামায় যা আছে : সুপার লিগ কোম্পানির সঙ্গে সম্পৃক্ততার ইতি টানতে ওই ৯ ক্লাব তাদের ক্ষমতার মধ্যে থেকে সবরকম পদক্ষেপ নিবে। ভুল বুঝতে পেরে আগের অবস্থায় ফেরার সদিচ্ছার নিদর্শন স্বরূপ ক্লাবগুলোর মিলিতভাবে মোট দেড় কোটি ইউরো অনুদান দিতে হবে। যুক্তরাজ্যসহ ইউরোপজুড়ে শিশু, যুব এবং তৃণমূল ফুটবলের জন্য যা ব্যবহার করা হবে। একই সঙ্গে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ বা ইউরোপা লিগ থেকে এক মৌসুমের প্রাপ্ত রাজস্বের পাঁচ শতাংশ তারা দিয়ে দেবে। এছাড়া ভবিষ্যতে কোনো অননুমোদিত প্রতিযোগিতায় খেলতে গেলে ১০ কোটি ইউরো এবং কোনো প্রতিশ্রুতি লঙ্ঘন করলে ৫ কোটি ইউরো জরিমানা গুনতে হবে।
উল্লেখ্য, গত ১৮ এপ্রিল রিয়াল মাদ্রিদ প্রেসিডেন্ট ফ্লোরেন্তিনো পেরেসের পরিকল্পনা ও নেতৃত্বে উয়েফার বিরুদ্ধে বিদ্রোহ করে ইউরোপিয়ান সুপার লিগ গঠনের সিদ্ধান্ত নেয় তিন দেশের ১২টি শীর্ষ ক্লাব। তবে, ভক্ত-সমর্থক, সাবেক তারকা ও রাষ্ট্রপ্রধানদের তীব্র সমালোচনার মুখে তিন দিনের মধ্যেই সুপার লিগের জোট থেকে সরে আসে ৯ ক্লাব। স্থগিত করা হয় সুপার লিগের পরিকল্পনা।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন