ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ জুন ২০২১, ১০ আষাঢ় ১৪২৮, ১২ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী

বিনোদন প্রতিদিন

করোনা আক্রান্তদের জন্য যিশু সেনগুপ্তের সেফ হোম

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০২১, ২:২৩ পিএম

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে নাজেহাল অবস্থা ভারতে। করোনার সঙ্গে লড়াইয়ে প্রত্যেকেই নিজেদের মতো করে এগিয়ে আসছেন। কেউ আর্থিকভাবে সাহায্য করছেন তো কেউ আক্রান্তদের নানা পরিষেবা দিতে সদা সচেষ্ট। ব্যতিক্রমী নন টলিউড অভিনেতা যিশু সেনগুপ্তও। করোনা মোকাবিলায় এবার মহৎ উদ্যোগ নিলেন তিনিও। কোভিড পজিটিভদের জন্য তৈরি করে ফেললেন আস্ত একটি সেফ হোম। সব ঠিকঠাক থাকলে মঙ্গলবার থেকেই এখানে পরিষেবা পাবেন আক্রান্তরা।

গোটা ভারতে প্রতিদিনই হাজারো মানুষ মরণ ভাইরাসের বলি হচ্ছেন। প্রাণরক্ষার লড়াই চালাচ্ছেন লাখো মানুষ। হাসপাতালে বেড পাওয়ার সমস্যা থেকে অক্সিজেনের অভাবের অভিযোগ বারবার উঠে আসছে শিরোনামে। এমন পরিস্থিতিতে যিশুর এই উদ্যোগ নিঃসন্দেহে প্রশংসনীয়। লেক মার্কেট লাগোয়া বাণীচক্র স্কুলকে করোনা আক্রান্তদের সেফ হোম করে তোলা হল তার প্রচেষ্টায়। যেখানে থাকছে ঝাঁ চকচকে ২০টি বেড। সাতটি অক্সিজেন কনসেন্ট্রেটর। ২০টি অক্সিজেন সিলিন্ডারও। শুধু থাকা এবং চিকিৎসা পরিষেবাই নয়, এখানকার ক্যান্টিনে খাওয়ার ব্যবস্থাও থাকছে কোভিড রোগীদের জন্য।

টলিপাড়ার তারকা জানান, রাসবিহারীর নবনির্বাচিত তৃণমূল বিধায়ক দেবাশিস কুমারের সহায়তাতেই তার পরিকল্পনা দিনের আলো দেখতে পেল। যিশুর কথায়, “এপ্রিলের মাঝামাঝি সময় থেকেই এরকম একটা প্ল্যান করছিলাম। কোভিড আক্রান্তদের যদি একটা নিরাপদ স্থানে রাখা যায়। ইন্দ্রদীপ দাশগুপ্তকেও কথাটা বলি। কিন্তু সেফ হোমের জন্য ভাল একটা জায়গা খুঁজে পাচ্ছিলাম না। এরপর দেবাশিসদাকে (কুমার) ফোন করি। উনি বলেন, দু-একদিন সময় দাও। তারপরই বলে দেন, বাণীচক্র স্কুলটা ফাঁকা আছে। ওখানেই সেফ হোম হতে পারে। আমারই পুরনো পাড়া এটা।” এমন একটা উদ্যোগে শামিল হতে পেরে আপ্লুত যিশু।

বিধায়ক দেবাশিস কুমার বলছেন, একসঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়েই করোনা অতিমারীকে তাড়াতে হবে। এটাই এখন প্রাথমিক লক্ষ্য।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন