বুধবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৩ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী

সারা বাংলার খবর

পরিবারের সবাইকে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে চুরি

একই পরিবারের ৩ জনকে অচেতন অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি

নাজিরপুর (পিরোজপুর) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৯ মে, ২০২১, ৩:০৭ পিএম

পিরোজপুরের নাজিরপুরে (১৮ মে রাতে) ভাত কিংবা পানির সাথে এক পরিবারের সবাইকে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে চুরির অভিযোগ পাওয়া গেছে। ওই পরিবারের ৩ সদস্যকে অচেতন অবস্থায় নাজিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেছে স্থানীয়রা।

তারা হলেন, নাজিরপুর উপজেলার শ্রীরামকাঠী ইউনিয়নের দক্ষিণ জয়পুর এলাকার মৃত উপেন্দ্রনাথ মিস্ত্রীর ছেলে রমেন মিস্ত্রী (৪৩), মালা মিস্ত্রী (৩৮) (স্ত্রী) স্বামী- রমেন মিস্ত্রী, উষা রানী ঢালী (৬০) (স্বাশুরী)।

এদের মধ্যে রমেন মিস্ত্রীর অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে পিরোজপুর আধুনিক সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। পরিবার সূত্রে জানা যায় বিথি নামক এক মহিলা ঘটনার দিন বিকেলে তাদের বাড়িতে পানি খাওয়ার উদ্দেশ্য করে আসে এবং অনেক অনুনয় বিনয় করে তাদের বাড়ীতে রাতে থাকার জন্য অনুরোধ করে, পরে তার ঠিকানা জানতে চাইলে তিনি উপজেলার গাওখালী এলাকার নাম বলে।

পরবর্তীতে তারা তাকে আশ্রয় দেয় এবং রাতে একসাথে খাবার খায়। সকালে স্থানীয়রা এসে ডাকাডাকি করলে তাদের কোন প্রতিউত্তর না পাওয়ায় ঘরের দরজা খোলা দেখে ঘরের ভিতরে প্রবেশ করে দেখে তারা সবাই অচেতন। ঘরের মালামাল সব অগুছাল, সে বিথি নামক মহিলাকে দেখতে পায় না। তবে তারা বলেন আমাদের ঘরের স্বর্ণালঙ্কর, নগদ টাকা সহ প্রায় ৫ লাখ টাকার মালামাল নিয়ে গেছে।

নাজিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্øেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. মোঃ মোস্তফা কায়সার বলেন, হাসপাতালে ভর্তি ৩ জনের মধ্যে ২জনের অবস্থা স্থিতিশীল একজন পুরুষের অবস্থা আশঙ্কাজনক তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য পিরোজপুর আধুনিক সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। আমরা মনে করছি তাদের ঘুমের ওষুধ জাতীয় কিছু খাওয়ানো হয়েছে। এই ধরণের রোগীরা পুরোপুরি সুস্থ হতে তিন থেকে ৭ দিন পর্যন্ত সময় লাগতে পারে।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন