শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ৩১ আশ্বিন ১৪২৮, ০৮ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

কাদের মির্জার ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম

নোয়াখালী ব্যুরো : | প্রকাশের সময় : ৩১ মে, ২০২১, ১২:০৪ এএম

বসুরহাট পৌরসভার ৯নম্বর ওয়ার্ডে গত শনিবার সন্ধ্যায় মেয়র কাদের মির্জার কয়েকজন অনুসারী প্রতিপক্ষের হামলায় গুলিবিদ্ধ হয়েছে। অতঃপর লাইভে এসে আগের মত খোলামেলা ভাবে কঠিন বাক্যবানে বলেছেন, প্রতিদিন ওসি, এডিশনাল এসপি শামিম, ইউএনও এবং এসিল্যান্ড ১০ লাখ টাকা করে পায় একরাম এবং আলাউদ্দিন নাসিমের কাছ থেকে। প্রশাসনের কর্মকর্তাদের ছত্রছায়ায় আমার ১৫জন অনুসারী গুলিবিদ্ধ হয়েছে। ওবায়দুল কাদের সাহেব আপনি বলেন তুমি চুপ থাকেন, আমি চুপ থাকলাম। আমার আব্বারে রাজাকার বলছে আপনি কিছু করেন নাই। গত শনিবার রাত ৯টায় কাদের মির্জার অনুসারী স্বপন মাহমুদের ফেইসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে ১১ মিনিট ১১ সেকেন্ডের লাইভে ৪ সরকারি কর্মকর্তাকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে প্রত্যাহারের আল্টিমেটাম দিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আমি আবার শুরু করব, ছেড়ে দেবনা। সত্য কথা থেকে আমি কখনো সরব না। আপনারা আমাকে সরাতে পারবেন না। কি করবেন, জেলে দিবেন। যা ইচ্ছা তাই করেন। ১০/১৫ সন্ত্রাসী প্রশাসনের পাহারায় এখানে তান্ডব চালাচ্ছে। ইউএনও, ওসির পাহারায় ডিসি, এসপির পাহারায়। এটা কি চালাচ্ছেন? কার রাজত্ব কায়েম করতে চান এখানে আপনারা? কি করতে চান আপনি? আপনার কনটেটেন্সি মানুষ আজকে ধিক্কার দিচ্ছে আপনাকে ।

কাদের মির্জা ওবায়দুল কাদেরকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আপনাকে বললে আপনি বলেন চুপ থাকেন। কি বুঝাইতে চান আপনি? কি করতে চান আপনি? তারা বলে তাদের সাথেও আপনি কথা বলেন। আমারে বললেন যে তুমি যেভাবে বলব সেভাবে হবে। তাদেরকে বলেন, তোমরা যেভাবে বল সেভাবে হবে। আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে যদি ইউএনও, এসি ল্যান্ড, ওসি ও এডিশনাল এসপি শামিমকে প্রত্যাহার না করলে আমি কোম্পানীগঞ্জের মানুষকে নিয়ে আন্দোলন শুরু করব। আমেরিকা যাওয়ার কথা ছিল, আমি যাব না। আমি এর শেষ দেখে ছাড়ব। তারপর আমেরিকা যাব।

তিনি আরো বলেন, যারা কোটি কোটি টাকা ঘুষ খেয়ে একতরফাভাবে কাজ করছে আপনি তাদেরকে বিরুদ্ধে আপনি কোন ব্যবস্থা নিতে চান না। কি করতে চান, কি করতে চান আপনি। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে এদেরকে সরাতে হবে। অন্যথায় সব দায় দায়িত্ব আপনার। আপনার বিরুদ্ধে প্রয়োজনে আমরা কঠিন আন্দোলন শুরু গড়ে তুলব। ছেড়ে দেবনা।

লাঠি হাতে মিছিল : র বসুরহাট পৌরসভার আলোচিত মেয়র আব্দুল কাদের মির্জা তার অনুসারী নিয়ে মিছিল করেছেন। বসুরহাট বাজারের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণে এই সময় তাকে লাঠি হাতে নিয়ে বিভিন্ন স্লোগান দিতে দেখা যায়। গতকাল সকাল সাড়ে ৮টায় মেয়র কাদের মির্জার নেতৃত্বে মিছিলটি বসুরহাট বাজারের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে বঙ্গবন্ধু চত্বরে এক সংক্ষিপ্ত পথ সভায় বকৃক্তা করেন কাদের মির্জা। এ সময় কাদের মির্জা বলেন, কোম্পানীগঞ্জ থেকে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শামিম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জিয়াউল হক মীর, সহকারী কমিশনার ভূমি সুপ্রভাত চাকমা ও ওসি মীর জাহেদুল হক রনির প্রত্যাহার দাবি করেন বসুরহাট মেয়র। এজন্য তিনি সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরকে ইঙ্গিত করে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে প্রত্যাহার করতে হবে। অন্যথায় পৌরসভা চত্বরে লাগাতার অবস্থান কর্মসূচি পালন করার হুমকি দেন।

মেয়র বলেন, এখানে প্রশাসনের ছত্রছায়ায় তাণ্ডব চালাচ্ছে। ডিসি-এসপির নির্দেশে টাকার জন্য প্রশাসন তাদেরকে সমর্থন দিচ্ছে। ওরা এমপি একরামের রাজত্ব এখানে কায়েম করতে চায়। এ সময় তিনি অনুসারীদের নিয়ে স্লোগান দেন ‘ওসি রইন্যার (ওসি মীর জাহেদুল হক রনি) চামড়া তুলে নেব আমরা’, ‘শামিমের (এএসপি শামিম কবির) চামড়া তুলে নেব আমরা’, ‘ইউএনওর চামড়া তুলে নেব আমরা’, ‘ডিসির চামড়া তুলে নেব আমরা’, ‘এসপির চামড়া তুলে নেব আমরা’। কাদের মির্জা তার অনুসারীদের নিজ নিজ এলাকায় সংগঠিত হয়ে মিছিল সমাবেশ করার নির্দেশ দেন। এতে কেউ বাধা দিলে তা প্রতিহতের নির্দেশ দেন। তিনি আরো বলেন, ওবায়দুল কাদের সাহেবের কথা এখন বললাম না। আমার সাথে যে সব ওয়াদা করেছেন সে গুলো চব্বিশ ঘন্টার মধ্যে পূরণ করেন। না হলে আপনার বিরুদ্ধেও চলবো, আপনার বউয়ের বিরুদ্ধেও চলবে। ছাড়ি দেবনা।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন