বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৫ মাঘ ১৪২৮, ১৫ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

বিএনপি নেতারা এখন ষড়যন্ত্রের পথ বেছে নিয়েছেন: ওবায়দুল কাদের

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১২ জুন, ২০২১, ৩:১১ পিএম

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে শক্তিশালী করাই সরকারের লক্ষ্য বরং বিএনপিই একের পর এক গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে বিতর্কিত করছে।

শনিবার (১২ জুন) সকালে ওবায়দুল কাদের তার সরকারি বাসভবনে নিয়মিত ব্রিফিংকালে এ মন্তব্য করেন। ওবায়দুল কাদের বলেন, ক্ষমতা ফিরে পাওয়ার মোহে বিএনপি নেতারা এখন ষড়যন্ত্রের পথ বেছে নিয়েছেন। যারা দেশের স্বাধীনতায় ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী নয়, তারাই দেশকে অকার্যকর এবং ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত করতে চায়।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি নেতাদের অপরাধ ও দুর্নীতির বিচার না করলে দুদক ভালো। বিএনপি নিজেরই গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে পরিকল্পিতভাবে প্রশ্নবিদ্ধ করছে। বিএনপি ক্ষমতা পাগল, বিএনপি এখন দিক বিদিক শূন্য। ক্ষমতা ফিরে পাওয়ার মোহে বিএনপি নেতারা এখন মিথ্যাচার আর ষড়যন্ত্রের পথ বেছে নিয়েছেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
মোঃ+দুলাল+মিয়া। ১২ জুন, ২০২১, ৪:৪৯ পিএম says : 0
পালতু কথা বলতে খুব মজা লাগে তাই না,আওয়ামী লীগ বি এন পি তোমরা ক্ষমতায় থাকার জন্য সংবিধান সংশোধন করিয়াছে সংসদীয় পদ্ধতি করিয়াছে,এইটা তোমাদের দুই পাটির এক গভীর ষড়যন্ত্র,তোমাদের গোপন বৈঠকে সেটা করা হয়েছে,যেহেতু তোমরা সারা জীবন ক্ষমতায় থাকতে পারে,অন্য কেউ যেন ক্ষমতায় আসতে না পারে সেই জন্যই দুই দল মিলে রাষ্ট্র পতি পদ্ধতি বাতিল করিয়াছে ও জনগণ দুই ভাগে বিভক্ত করিয়াছে ও জনগণ তোমাদের চালাকি বুঝতে পারে নাই,এখন তোমাদের মধ্যে যে ঐক্যবদ্ধ হইয়াছিলো সেই খানে তোমরা আওয়ামী লীগ কথা রাখেনি,তোমাদের সাথে বৈঠকে কথা ছিল তোমরা পাঁচ আমরা পাঁচ। এখন মাশাআললাহ তোমরা তাদের ধারে কাছে ও নাই ,তোমরা এককভাবে থাকার জন্য দর পাঁকঢ় ছাড়া কিছুই নেই,আচ্ছা জনগণ তোমাদের সংসদীয় পদ্ধতি করার রায় তোমাদের দিয়েছে,কিন্তু ক্ষমতায় থেকে নির্বাচন করার হুকুম জনগণ তোমাদের দিয়াছে না কি,তোমরা ক্ষমতায় থেকে নির্বাচন দিয়ে একতরফা ভাবে সংসদ দখল করিয়াছে ও জনগণের ভোট ছাড়াই জোরপূর্বক নিয়ে বাদশাহি শাসন করতেছে ও,তোমরা ক্ষমতায় থাকিয়া নির্বাচন কি কারনে দিবে,তোমাদের যদি জনগণ চায় অবশ্যই তোমরা আবার ক্ষমতায় আসতে পারিবা ,তোমরা যেটা করছে ও পৃথিবীতে এই দরনে ফালতু আইন নাই ক্ষমতা হাতে রেখে নির্বাচন,এটা জনগণের সাথে পাগলামি,এবং এক রকম সন্ত্রাসী,ওকে বুকে সাহস থাকলে ক্ষমতা ছেড়ে নির্বাচন দিয়ে ক্ষমতায় আসেও দেখবে জনগণ কাকে রায় দেন,এই ভাবে তোমরা ছোলা ছুলি করে জনগণের সব কিছুর অধিকার কেড়ে নিবার কে তোমরা ,এখনও সময় আছে ক্ষমতা ছেড়ে দাও,আর্চারযের বেপার ক্ষমতায় থেকে নির্বাচন আবার বড় বড় কথা,ভয় না থাকলে ক্ষমতা ছেড়ে নির্বাচন দাও,এটাই মরদ পোলার কাজ,অন্যথায় তোমরা দুই দলের এতো কিছু জনগণ শুনবে না,জনগণ রাস্তায় নেমে আবার একজন কে রাষ্ট্রের ক্ষমতা দিবে,সংসদীয় পদ্ধতি বাতিল হবে,রাষ্ট্র পতি পদ্ধতি চালু হবে,
Total Reply(0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন