ঢাকা, মঙ্গলবার, ০৭ জুলাই ২০২০, ২৩ আষাঢ় ১৪২৭, ১৫ যিলক্বদ ১৪৪১ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

মোদির পাকিস্তান নীতি সমর্থন করে না ৭৮ ভাগ ভারতীয়

প্রকাশের সময় : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির পাকিস্তান নীতি সমর্থন করছে না দেশটির ৭৮ ভাগ মানুষ। তাদের মতে মোদি যেভাবে পাকিস্তান ইস্যু সামলাচ্ছেন তা ঠিক নয়। তবে মাত্র ২২ ভাগ মানুষ মোদির পাকিস্তান নীতিকে সমর্থন করেছেন। আর্ন্তজাতিক জরিপ সংস্থা পিউ রিসার্চ সেন্টারের এক জরিপের বরাতে এ তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আজকাল। সংবাদমাধ্যমটি বলছে গত মে মাসে এ সমীক্ষাটি করে পিউ রিসার্চ সেন্টার। যদি গত শনিবার কাশ্মীরের উরিতে ১৮ ভারতীয় সেনা নিহতের ঘটনার পর মোদির পাকিস্তান নীতি আরও বেশি মানুষ বিরোধিতা করত বলে মন্তব্য করেছে আজকাল। জরিপের বরাতে বলা হয়েছে, গত লোকসভা নির্বাচনের আগে মোদিকে নিয়ে মানুষের মধ্যে যে উচ্ছ্বাস ছিল এখন তার কোনও অস্তিত্ব নেই এখন। বরং তার জনপ্রিয়তা কিছুটা হ্রাস পেয়েছে। অন্যদিকে ধীরে ধীরে খারাপ অবস্থা কাটিয়ে উঠছেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী। আগের তুলনায় তার দলেরও গ্রহণযোগ্যতা বাড়ছে। এ ছাড়া পরিবর্তনের ডাক দিয়ে সাড়া ফেলা দেয়ো দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল এবং তার দল আম আদমি পার্টির জনপ্রিয়তা পড়তির দিকে রয়েছে। জরিপের বরাতে আজকাল জানিয়েছে, ৮১ ভাগ ভারতীয়র কাছে মোদির কাজ সন্তোষজনক। এক বছর আগে এই সংখ্যাটা ছিল ৮৭ ভাগ। যেভাবে মোদি দেশের অর্থনৈতিক ইস্যু সামলাচ্ছেন তার প্রশংসা করেছেন দেশটির নাগরিকরা। ২০১৪ সালে মাত্র ৫৫ ভাগ ভারতীয় মনে করতেন মোদি অর্থনীতি ভালই সামলাচ্ছেন। এখন তা মনে করছেন ৮০ ভাগ ভারতীয়। বেকারত্ব কমাতে মোদি যেসব পদক্ষেপ নিয়েছেন তা কাজ করবে বলে মনে করছেন ৬২ ভাগ মানুষ। সন্ত্রাসবাদ প্রশ্নে মোদির কাজে সন্তুষ্ট ৬১ ভাগ ভারতীয়। বিশ্বের কাছে ভারতের গ্রহণযোগ্যতা ১০ বছর আগের তুলনায় এখন বেড়েছে বলে মনে করেন ৬৮ ভাগ।
ভারতীয়দের মধ্যে ৬৩ ভাগ রাহুল গান্ধীকে গ্রহণযোগ্য বলে মনে করছেন। ২০১৪ সালে ৫০ ভাগ মানুষ তাকে গ্রহণযোগ্য মনে করতেন। এরপরের বছর থেকে রাহুলের প্রতি মানুষের মধ্যে আস্থা তৈরি হয়েছে তা এবারও বজায় রয়েছে। কংগ্রেস কর্মীদের মধ্যেও ৮৫ ভাগ নেতা হিসেবে রাহুলকে মেনে নিতে রাজি। এদিকে ভারতীয়দের কাছে কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধীর গ্রহণযোগ্যতাও বেড়েছে। দেশটির ৬৫ ভাগ মানুষ তার প্রতি আস্থা রাখছেন। গত বছর এই হার ছিল ৫৮ ভাগ। ওয়েবসাইট।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন