রোববার, ০১ আগস্ট ২০২১, ১৭ শ্রাবণ ১৪২৮, ২১ যিলহজ ১৪৪২ হিজরী

বিনোদন প্রতিদিন

বক্স অফিস মাতানো দুই সিনেমা স্টার সিনেপ্লেক্সে

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৮ জুন, ২০২১, ১২:১১ পিএম

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে সিনেমা হল বন্ধ ছিল অনেকদিন। গত মে মাসে খুলেছে প্রেক্ষাগৃহগুলো। দর্শকও হলমুখী হয়েছেন। এরইমধ্যে মুক্তি পাওয়া কিছু ছবির বক্স অফিস রিপোর্টও আশাব্যঞ্জক। গত ৪ জুন যুক্তরাষ্ট্রে মুক্তি পেয়েছে ‘দ্য কনজ্যুরিং: দ্য ডেভিল মেইড মি ডু ইট’। মুক্তির প্রথম দিনেই সর্বোচ্চ আয়ের রেকর্ড গড়েছে এই ছবি। প্রথম দিনেই এই ছবি আয় করে নিয়েছে প্রায় ১০ মিলিয়ন ডলার। অন্যদিকে, ২৮ মে মুক্তি পায় ‘ক্রুয়েলা’। ১০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার বাজেটের এই ছবিটি এরই মধ্যে বিশ্বব্যাপী প্রায় সাড়ে ১১২ মার্কিন মিলিয়ন ডলার আয় করেছে। বাংলাদেশের দর্শকদের জন্য সুখবর হলো, বক্স অফিসে প্রাণ ফেরানো এ দু’টি ছবি মুক্তি পেয়েছে স্টার সিনেপ্লেক্সে।

বলা হচ্ছে, হলিউডের সেরা দশ ভৌতিক সিনেমার একটি ‘দ্য কনজ্যুরিং’। ইংল্যান্ডের রোড আইল্যান্ডে অবস্থিত একটি ফার্ম হাউজকে কেন্দ্র করে সিনেমাটির গল্প। ১৯৭১ সালে বিচ্ছিন্ন ভূতুড়ে একটি ফার্ম হাউজে এক পরিবার ও তাদের অস্বাভাবিক কর্মকান্ড নিয়ে নির্মিত সিনেমাটি হরর সিনেমাপ্রেমীদের কাছে বিশেষ আবেদন তৈরি করে। সত্যিকার প্যারানরমাল কার্যকলাপের তদন্ত ও বিশ্বাসযোগ্যতা বর্তমান উন্নত দুনিয়ায় দেখা না গেলেও তখনকার খুব জনপ্রিয় একটি ঘটনা হিসেবে বিবেচিত এটি। রজার এবং ক্যারোলিন পেরোন তাদের পাঁচ কন্যা-আন্দ্র্রে, ন্যান্সি, ক্রিস্টিন, সিন্ডি ও এপ্রিল এবং তাদের কুকুর স্যাডিকে নিয়ে এসেছিলেন এই বাড়িতে। সেখানেই ঘটে যত অঘটন। সেই ঘটনাগুলো উন্মোচনে আসেন এড ওয়ারেন ও লরেন ওয়ারেন। পরিচালকের মতে, কনজ্যুরিং সিরিজের সবচাইতে ভয়ঙ্কর সিনেমা এটি।

ক্রুয়েলা সিনেমাটি ২০২০ সালে মুক্তি পাওয়ার কথা থাকলেও করোনা পরিস্থিতির কারণে আটকে যায়। ১৯৬১ সালে মুক্তি পাওয়া ডডি স্মিথের উপন্যাস অবলম্বনে ‘ওয়ান হান্ড্রেড অ্যান্ড ওয়ান ডালমেশিয়ান’ সিনেমা ক্রুয়েলা নামের এক নারীকে নিয়ে। যে সাদা-কালো ডালমেশিয়ান কুকুরের চামড়া দিয়ে কোট বানায়। ফলে ক্রুয়েলা পোষা প্রাণীদের দোকান থেকে শুধু ডালমেশিয়ান কুকুর কেনে। ঘটনাক্রমে পঙ্গো ও পেরদিতা নামের এক ডালমেশিয়ান দম্পতির কুকুর ছানারা ক্রুয়েলার নজরে আসে। ক্রুয়েলা সেগুলো কিনতে চায়। কিন্তু পঙ্গো ও পেরদিতার মালিক রজার ও অনিতা তাদের বিক্রি করবে না। ক্রুয়েলা ক্ষুব্ধ হয়ে কুকুর ছানাগুলো চুরির পরিকল্পনা করে। কুকুর ছানা ও তাদের মা-বাবার জীবনে ক্রুয়েলা বয়ে নিয়ে আসে ভয় আর আতঙ্ক। এভাবেই গল্প এগিয়ে যায়। এই সিনেমায় ক্রুয়েলা চরিত্রে অভিনয় করেছেন হলিউডের লাস্যময়ী অভিনেত্রী এমা স্টোন। পরিচালক ক্রেইগ গিলেস্পি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন