শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ৩১ আশ্বিন ১৪২৮, ০৮ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

গ্রিনভিলের ঐতিহাসিক গোল্ডরাশ শহর পুরোটাই ধ্বংস

ক্যালিফোর্নিয়ায় ইতিহাসের তৃতীয় বৃহত্তম দাবানল

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৮ আগস্ট, ২০২১, ১২:০২ এএম

ইতিহাসের তৃতীয় বৃহত্তম দাবানলে বিপর্যস্ত যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া রাজ্য। তিন সপ্তাহ ধরে জ্বলতে থাকা এই দাবানলে প্রায় পুরোই ধ্বংস হয়ে গেছে গ্রিনভিলের ঐতিহাসিক শহর গোল্ড রাশ।
নিরাপদে সরে যেতে বলা হয়েছে শহরটির ৮০০ বাসিন্দাকে। গত বুধবার স্থানীয় সময় রাতে শহরটিতে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। আগুনের শিখায় ঐতিহাসিক বেশিরভাগ ভবন ধ্বংস হয়ে গেছে। এক শতাব্দীরও বেশি পুরনো ক্যালিফোর্নিয়ার গোল্ড রাশ যুগে নির্মিত ভবনগুলোসহ একটি গ্যাস স্টেশন, হোটেল এবং বারও ধ্বংস হয়েছে।
এবারের দাবানলকে ক্যালিফোর্নিয়ার ইতিহাসে তৃতীয় বৃহত্তম বলে অভিহিত করা হচ্ছে। তীব্র এই দাবানল নিয়ন্ত্রণে আনতে হিমশিম খাচ্ছেন দেশটির কর্মকর্তা ও দমকল কর্মীরা। ঘটনাস্থল থেকে তোলা কয়েকটি ছবিতে দেখা গেছে, আগুনে পুড়ছে গ্রিনভিল শহরের গাছ। তাপে ঝলসে গেছে বিভিন্ন কাঠামো।

টেরেসা হ্যাচ, ৬১, বেশ কিছু দিন আগে তার গ্রামীণ উত্তর ক্যালিফোর্নিয়া শহর থেকে সরে গিয়েছিলেন ডিক্সি ফায়ার হুমকির কারণে, কিন্তু শিগগিরই তাকে ফেরত আসার অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। তারপর গত বুধবার তার সেলফোনে সতর্কতামূলক লালবাতি জ্বলতে থাকে, তাকে আবার বের হতে বলে - দ্রæত। তিনি বলেন যে, তিনি তার কুকুর স্কুবিকে ধরেন, তিনটি প্লাস্টিকের ব্যাগে কাপড় ভরে প্রথম গাড়িতে উঠে পড়েন।

চতুর্থ প্রজন্মের গ্রিনভিলের বাসিন্দা হ্যাচসহ ক্যালিফোর্নিয়ার আশেপাশের ১৮ হাজারেরও বেশি লোককে সরিয়ে নেওয়ার আদেশ দেওয়া হয়েছে, কারণ দমকলকর্মীরা দুটি দ্রুত বর্ধনশীল দাবানল নিয়ন্ত্রণের জন্য লড়াই করছেন। ডিক্সি ফায়ার রাতারাতি আকারে মাশরুমে পরিণত হয় এবং ক্যালিফোর্নিয়ার ইতিহাসে তৃতীয় বৃহত্তম। হ্যাচের ঐতিহাসিক শহরে শতাব্দী প্রাচীন ভবন ধ্বংস করে ফেলেছে। ছোট নদীর আগুন হাজার হাজার বাড়িঘরকেও হুমকির মুখে ফেলেছে।

ডিক্সি ফায়ার বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার প্রায় ৩ লাখ ৬২ হাজার একর এলাকা থেকে শুষ্ক এবং ঝড়ো হাওয়ায় দ্রæত বেড়ে বাট এবং প্লুমাস কাউন্টিতে ৪ লাখ ৩২ হাজার একরেরও বেশি জায়গা জুড়ে বিস্তৃত হয়েছে। অগ্নিনির্বাপকদের প্রচেষ্টায় শুক্রবারের মধ্যে দাবানল ৩৫ শতাংশ নিয়ন্ত্রণে ছিল। দমকল কর্মকর্তারা এদিন আশা প্রকাশ করেন যে, উচ্চ আর্দ্রতা তাদের আগুন নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করবে।

বন উপদেষ্টা এবং ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া কো -অপারেটিভ এক্সটেনশনের কাউন্টি ডিরেক্টর ইয়ানা ভালাচোভিচ ডিক্সি ফায়ার সম্পর্কে বলেন ‘এটা এক ধরনের নিখুঁত ঝড়’। আমরা এসব দেখেছি। এ ধরনের অবস্থার জন্য এ বছর সম্ভাবনা বেশি ছিল এবং একবার যখন আপনি একটি ইগনিশন পান, বিশেষ করে যেসব এলাকায় অ্যাক্সেস করা কিছুটা কঠিন এবং সেখানে চারপাশে নতুন স¤প্রদায়ের বাস, এটি সিস্টেমকে বাধাগ্রস্ত করে।

প্লাস কাউন্টির সুপারভাইজার কেভিন গস ফেসবুকে লিখেছেন, ‘ডিক্সি ফায়ার আমাদের পুরো শহরকে পুড়িয়ে দিয়েছে। আমাদের ঐতিহাসিক ভবন, পরিবারের ঘরবাড়ি, ছোট ব্যবসা এবং আমাদের বাচ্চাদের স্কুল সম্পূর্ণভাবে হারিয়ে গেছে। শহরের প্রতিটি বর্গ ইঞ্চি আমাদের ছোট স¤প্রদায়ের প্রতিটি সদস্যের জন্য অগণিত স্মৃতি এবং আমাদের পূর্বপুরুষদের যথেষ্ট পরিমাণ ইতিহাস রয়েছে’।

কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ডিক্সি ফায়ার প্রায় ১১টি ভবন ধ্বংস করেছে এবং আরো পাঁচটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। গ্রিনভিলে, ইউএস ফায়ার সার্ভিস অনুমান করেছে যে, মাত্র এক চতুর্থাংশ কাঠামো সংরক্ষিত রয়েছে। তাদের মধ্যে রয়েছে একটি ডলার জেনারেল স্টোর এবং গ্রিনভিল হাইস্কুল।
আগুনে ক্ষয়ক্ষতির পুরো চিত্র তাৎক্ষণিকভাবে জানাতে পারেনি কর্তৃপক্ষ। তবে ঘটনাস্থলের ছবি এবং ভিডিও দেখে আঁচ করা যায় যে, আগুন ব্যাপক তান্ডব চালিয়েছে।

ওই অঞ্চলের প্রতিনিধিত্বকারী মার্কিন কংগ্রেস সদস্য ডগ লামালফা বুধবারের দাবানলের ভয়াবহতার কথা জানাতে গিয়ে বলেছেন, ‘আমরা আজ রাতে গ্রিনভিলকে হারিয়েছি, কিছু বলার ভাষা নেই’।
আবহাওয়া পরিবর্তনের ফলে বাড়তি তাপমাত্রা এবং শুষ্ক আবহাওয়া দাবানলের ভয়াবহতা আরও বাড়িয়ে দেওয়ার ঝুঁকি সৃষ্টি করেছে, বলছেন বিশেষজ্ঞরা। সূত্র : ওয়াশিংটন পোস্ট, রয়টার্স।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
jack Ali ৮ আগস্ট, ২০২১, ১২:৩৭ পিএম says : 0
আল্লাহ আমেরিকার প্রতি এত গজব দিচ্ছে তারপরও আমেরিকা ইসলাম গ্রহণ করছে না সারা বিশ্বে সন্ত্রাসী কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন