শুক্রবার, ২২ অক্টোবর ২০২১, ০৬ কার্তিক ১৪২৮, ১৪ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

বিনোদন প্রতিদিন

কর ফাঁকির অভিযোগ প্রসঙ্গে যা বললেন সোনু

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১২:৫৭ পিএম

গত বছর থেকেই লাগাতার সংবাদ শিরোনামে জায়গা করে আসছেন বলিউড অভিনেতা সোনু সূদ। করোনা আবহে ভারতে যারাই বিপদে পড়ে সাহায‍্য চেয়েছেন কাউকে ফেরাননি সোনু। কিন্তু এবার নিজেই বিপদে পড়েছেন তিনি। সম্প্রতি প্রায় টানা তিনদিন ধরে টানা তল্লাশি চালানো হয় তার বাড়িতে। এরপর তার বিরুদ্ধে ২০ কোটিরও বেশি কর ফাঁকি দেওয়ার অভিযোগ এনেছে আয়কর দফতর।

এতদিন মুখে কুলুপ এঁটে থাকলেও অবশেষে এই বিষয়ে মুখ খুলেছেন সোনু। তার দাবি, তার সংস্থার প্রত্যেকটা টাকা কারোর সাহায‍্যের জন‍্য রাখা ছিল। পাশাপাশি আয়কর দফতরের অফিসারদের ‘অতিথি’ বলে কটাক্ষ করতেও ছাড়েননি তিনি।

সম্প্রতি টুইটারে সোনু লিখেছেন, ‘তোমাকে সবসময় নিজের সাফাই দিতে হবে না, সময়ই তা দেবে। নিজের সর্বস্ব শক্তি ও হৃদয় দিয়ে ভারতবাসীকে সাহায‍্যের প্রতিজ্ঞা করেছিলাম আমি। আমার সংস্থার প্রত্যেকটা টাকা কোনো অমূল্য জীবন বাঁচানোর জন‍্য বা অসহায়কে দেওয়ার জন‍্য রাখা হয়েছে। উপরন্তু অনেক সময় আমি বিভিন্ন ব্র‍্যান্ডকে অনুরোধ করি আমার পারিশ্রমিকটা মানবিক স্বার্থে ব‍্যবহার করার জন‍্য। গত চারদিন ধরে কয়েকজন অতিথির অভ‍্যর্থনা করতে ব্যস্ত ছিলাম, তাই আপনাদের সাহায‍্য করতে পারিনি। আমি আবার ফিরে এসেছি আপনাদের জন‍্য।’

এদিকে সোনুর টুইটের উত্তরে দিল্লির মুখ‍্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল লিখেছেন, ‘আপনার শক্তি আরো বাড়ুক সোনু জি। লক্ষ লক্ষ ভারতবাসীর নায়ক আপনি।’

শুক্রবার অভিযোগ ওঠে ২০ কোটি টাকা কর ফাঁকি দিয়েছেন সোনু। তার অলাভজনক সংস্থা গত বছর থেকে চলতি বছর এপ্রিল পর্যন্ত ১৮ কোটি টাকা অনুদান তুলেছে। তার মধ‍্যে মাত্র ১.৯ কোটি টাকা ব‍্যবহার হয়েছে ত্রাণকার্যে। বাকি ১৭ কোটি টাকা ব‍্যবহারই হয়নি। আরো অভিযোগ উঠেছে, বিদেশি সংস্থার থেকে ২.১ কোটি টাকা আর্থিক অনুদান গ্রহণ করেছে অভিনেতার স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা। এতে বিদেশি অনুদান সংক্রান্ত আইন লঙ্ঘিত হয়েছে বলে অভিযোগ আয়কর দফতরের।

উল্লেখ‍্য, কিছুদিন আগেই ঘোষনা করা হয় দিল্লি সরকারের প্রস্তাবিত ‘ভারত কে মেন্টর’ কর্মসূচীতে কাজ করবেন অভিনেতা। তাকে পড়ুয়াদের মেন্টরশিপ প্রোগ্রামের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হিসেবে নিয়োজিত করা হয়েছে। এরপরেই আচমকা আয়কর দফতরের হানা। দুটোর মধ‍্যে সংযোগ সূত্র রয়েছে বলেই সন্দেহ অনেকের।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন