রোববার, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ০৮ কার্তিক ১৪২৮, ১৬ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

বিনোদন প্রতিদিন

নিজেকে বাঁচাতেই নুসরাতের মিথ্যে অভিযোগ, দাবী নিখিলের

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ১২:০৬ পিএম

মিটেও মিটতে চাইছে না টলিউড অভিনেত্রী নুসরাত জাহান ও তার প্রাক্তন সঙ্গী নিখিল জৈনের বিতর্ক। কিছুদিন আগেই আবারো নিখিলের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ এনেছেন তিনি। নুসরাত জাহানের অভিযোগ নিখিল নাকি বাইসেক্সুয়াল। এবার সেই অভিযোগের জবাবে মুখ খুললেন নিখিল। এবং তার বিস্ফোরক মন্তব্যে রীতিমতো শোরগোল পড়ে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

এক ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে নিখিল বলেন, “ক্ষমতার সঙ্গে সঙ্গে কিছু দায়িত্বও আসে। আশা করব, বাড়ির বড়রা অন্তত ওকে বলে দিন নিজের ভাষার উপর নিয়ন্ত্রণ রাখতে। নিজেকে বাঁচাতে, মানুষের সামনে নিজেকে ঠিক প্রমাণ করতে একজন সাধারন মানুষের উপর ভিত্তিহীন অভিযোগ লাগাচ্ছে ও। এই সব মানুষদেরই কিন্তু একাধিক বার বোকা বানিয়েছে ও। আসলে যাদের সঙ্গে মেলামেশা করে এসব অভিযোগ তাদেরই চিন্তাধারার প্রতিফলন। নুসরাত একজন জনপ্রতিনিধি সেটা ভুললে চলবে না।”

এদিকে সম্প্রতি যশের পাশে সিঁথিতে সিঁদুর নিয়ে নজর কাড়েন নুসরাত। সন্তানের পিতৃপরিচয় ফাঁসের ঠিক পরপর উঠে আসে এই ছবি। এরপরেই নেটিজেনরা প্রশ্ন তুলতে শুরু করে, যশই ছেলের বাবা এটা জানানোর পরেই কি চুপিচুপি বিয়েটাও সেরে নিলেন নুসরাত? কিন্তু পরক্ষণেই নিজের সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট থেকে সিঁদুর লুকিয়ে ছবি পোস্ট করেন সাংসদ অভিনেত্রী। ফের ধেয়ে আসে ট্রোল।

এই প্রসঙ্গ তুলেও তীব্র কটাক্ষ শানিয়ে নিখিল বলেন, “মুখ লুকানোর চেষ্টা করছে এখন ও। কারণ সিঁদুর পরা এবং ওর সন্তানকে ট্রোলড হতে হচ্ছে ওকে। তাই এখন আমার উপর মিথ্যে অভিযোগ তোলা হচ্ছে। অথচ এই সঙ্গীকেই একদিন নুসরাত বিয়ে করেছিল।”

প্রসঙ্গত ২০১৯ সালে তুরস্কে বিয়ে করেছিলেন নুসরাত এবং নিখিল। তবে বছর ঘোরার আগেই বিচ্ছেদ ঘটে তাদের। বর্তমানে নিখিল এবং নুসরাতের সম্পর্ক আদালতে বিচারাধীন। এখন নেটিজেনরা অপেক্ষা করছেন কার দিকে আদালত রায় দেন সেটাই দেখতে। এরমাঝেই টলিউড অভিনেতা যশ দাশগুপ্তের সন্তানের মা হয়েছেন নুসরাত জাহান। সন্তান এবং যশ দাশগুপ্তের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় এখন নিয়মিত সমালোচনার সম্মুখীন হতে হয় নুসরাতকে। যে কারণে পাল্টা নিখিলকে মিথ্যা অভিযোগে অভিযুক্ত করতে চাইছেন অভিনেত্রী বলে মত নিখিলের।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন