বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১১ কার্তিক ১৪২৮, ১৯ রবিউল আউয়াল সফর ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ম্যাখোঁর ইসলাম বিদ্বেষী বক্তব্য ফ্রান্সে ‘সহিংসতার চক্র’ উস্কে দিচ্ছে

সাক্ষাৎকারে মিডল ইস্ট আইকে ইমরান খান

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০০ এএম

চরম মুসলিমবিরোধী বক্তৃতা এবং নীতি প্রয়োগ করে সম্প্রতি ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রঁ পুনর্নির্বাচনের প্রতিযোগিতা সম্পর্কে সম্প্রতি ইসলামাবাদে মিডল ইস্ট আইকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেছেন, ‘তিনি কি বুঝতে পারছেন না যে তার বক্তব্য এবং কাজগুলি কেবল ফ্রান্সে সহিংসতার দুষ্টচক্রকে শক্তিশালী করে? আমি ধারণা, প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রঁ সত্যিই বুঝতে পারছেন না যে তিনি যদি এই দুষ্টচক্রটি না বোঝেন, তাহলে তিনি মুসলিম সম্প্রদায়ের সাথে কী আচরণ করবেন?’

ইমরান খান দশ বছর আগে তার ‘পাকিস্তান: একটি ব্যক্তিগত ইতিহাস’ বইতে মার্কিন নেতৃত্বাধীন সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ সম্পর্কে লিখেছিলেন, ‘সারা বিশ্বের ১.৩ বিলিয়ন মুসলমান মুষ্টিমেয় অপরাধীদের কাজের জন্য কোনো না কোনোভাবে দায়ী বলে করানোটি একজন খ্রিস্টানকে হিটলারের জন্য দায়বদ্ধতা অনুভব করানোর মতো।’

ইমরান লিখেছিলেন যে, পশ্চিমা জনগোষ্ঠীর মধ্যে ইসলামিক ফ্যাসিবাদের নামে ভয় ঢোকানোর প্রচারণাটি ইসলাম বিদ্বেষ বেড়ে ওঠার পথ তৈরি করেছে। ইউরোপের ডানপন্থী অভিবাসন বিরোধী দলের উত্থান, মুসলমানদের বিরুদ্ধে ডানপন্থী পশ্চিমা মিডিয়ায় নিছক বিভ্রান্তিকর চাঞ্চল্যকর রিপোর্ট, ফ্রান্সের বোরকা নিষিদ্ধকরণ, সুইজারল্যান্ডে মিনারের ওপর নিষেধাজ্ঞা এবং নিউইয়র্কের গ্রাউন্ড জিরোর কাছে মুসলিম কমিউনিটি সেন্টার নিয়ে হৈচৈ একদিকে মৌলবাদীদের ইন্ধন জুগিয়েছে এবং অন্যদিকে সাধারণ মুসলিমদের বিচ্ছিন্ন করে দিতে সাহায্য করেছে।

ফরাসি প্রেসিডেন্ট যখন বলেন যে স্যামুয়েল প্যাটিকে হত্যার জন্য ইসলামপন্থীদের দায়ী করেন, খান ধারাবাহিক টুইটে লিখেছিলেন যে, এই মন্তব্যগুলি কেবল বিভাজন সৃষ্টি করবে। খান লেখেন যে, এটা দুর্ভাগ্যজনক যে, সন্ত্রাসীরা যারা সহিংসতা চালায় তাদের মুসলিম বলে অভিহিত করে, শ্বেতাঙ্গ আধিপত্যবাদী বা নাৎসি মতাদর্শীদের চেয়ে ইসলামকে আক্রমণ করে তিনি ইসলাম বিদ্বেষকে উৎসাহিত করার পথ বেছে নিয়েছেন। তিনি এও লেখেন, ‘এটি এমন সময় যখন প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রঁ নিরাময়ী স্পর্শ প্রয়োগ করতে পারতেন এবং বরং আরও মেরুকরণ ও প্রান্তিকতা তৈরি করার পরিবর্তে, চরমপন্থীদের সুযোগ দিতে অস্বীকার করতে পারতেন, যা অনিবার্যভাবে মৌলবাদের দিকে নিয়ে যায়।’

ম্যাক্রঁ এবং তার অনেক সমর্থকদের জন্য বাকস্বাধীনতা একটি মৌলিক স্বাধীনতা প্রজাতন্ত্রের মূল সার্থকতা। বিপরীতে, ইমরান খান বিশ্বাস করেন যে, বাকস্বাধীনতার অধিকার সাম্প্রদায়িক সংহতি এবং জাতিগত সম্পর্ক রক্ষার প্রয়োজনকে অতিক্রম করতে পারে না। মিডল ইস্ট আইকে তিনি বলেন, ‘ঠিক যেমন পশ্চিমা সমাজ স্বীকার করে যে হলোকাস্ট অস্বীকার ইহুদি সম্প্রদায়ের জন্য অনেক বেদনার সৃষ্টি করেছিল, তেমনি নবী মুহাম্মদের পরিকল্পিত অপমানের কারণে মুসলমানদের যে কষ্ট হয় তাও অনুধাবন করতে হবে।’

পাক-প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘কাউকেই মানব সম্প্রদায়কে কষ্ট দেওয়ার অনুমতি দেওয়া উচিত নয়। যদি আমাদের একটি বিশ^পল্লীতে বসবাস করতে হয়, তাহলে প্রতিটি মানব সম্প্রদায়কে কী বেদনা দেয়, তা আমাদের মুসলিমদের অবশ্যই অনুধাবন করাতে হবে। এটি (নবীজির অবমাননা) আমাদের কষ্ট দেয়।’

ইমরান খান আরও বলেন যে, কোভিডের একটি মারাত্মক রূপের জন্য ভারতকে দোষ দেওয়া যেমন ভুল, তেমনি সন্ত্রাসবাদকে কোনও ধর্মের সাথে যুক্ত করা উচিত নয়। তিনি বলেন, ‘সন্ত্রাসবাদের সঙ্গে ইসলামের কী সম্পর্ক আছে? ঠিক এই মুহূর্তে, কোভিড-১৯-এর এই ভারতীয় ভ্যারিয়েন্টটি এসেছে, বিশ্বকে ধ্বংস করে দিয়েছে, কিন্তু ভারতীয়রা বলেছে যে, দেখো, এটাকে ভারতীয় রূপ বলো না, একে ডেল্টা ভেরিয়েন্ট বলো। কারণ কোন ভাইরাস কোন জাতির সাথে যুক্ত হবে কেন? একইভাবে, সন্ত্রাসবাদকে কেন কোনো ধর্মের সঙ্গে যুক্ত করা উচিত?’ সূত্র : মিডল ইস্ট আই।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (9)
মোহাম্মদ দলিলুর রহমান ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ১:১৩ এএম says : 0
ইমরানের খান ইসলামের জন্য আলোকিত একজন রাষ্ট্র প্রধান।
Total Reply(0)
বদরুল সজিব ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ১:৪০ এএম says : 0
ধন্যবাদ ইমরান খানকে, সত্য কথা তুলে ধরার জন্য।
Total Reply(0)
Siam Uddin ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ১:৩৭ এএম says : 0
The great hero of Pakistan and Muslim ummah.
Total Reply(0)
Shanu Kobi ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ১:৩৮ এএম says : 0
এরদোগান, ইমরান খান, মাহাথির মুহাম্মদ আর খামেনি-তাঁদের আসলে তুলনা হয় না।
Total Reply(0)
Kayes Ahmed ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ১:৩৯ এএম says : 0
শুভেচ্ছা ۔۔ইমরান খানের মতো নেতা দরকার
Total Reply(0)
Abire Sabil ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ১:৩৯ এএম says : 0
মাশাআল্লাহ, একজন মুসলিম হিসাবে আমরা গরবিত
Total Reply(0)
সোলায়মান ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ১০:১০ এএম says : 0
ইমরান খান ও এরদোগানের মত অন্যান্য মুসলিম নেতারা যদি কথা বলতো, তাহলে মুসলিম বিশ্ব আজকে অনেকটা শান্তিতে থাকতো
Total Reply(0)
MD Whahedul Islam Faysa ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ৩:১৯ এএম says : 0
সূলুট ইমরান খানকে বাংলাদেশে এমন একজন প্রধানমন্ত্রী দরকার ভবিষ্যতে।
Total Reply(0)
Azad mullah ১৪ অক্টোবর, ২০২১, ৫:২০ এএম says : 0
অতিসুনদর খান সাহেব ভালো কথা বলেছেন ধন্যবাদ
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন