বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৫ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

সারা বাংলার খবর

শিমুল চাকরি ছেড়েও নৌকার মনোনয়ন পাননি

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৫ অক্টোবর, ২০২১, ১০:০৫ এএম

জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলার রুকিন্দিপুর ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন পেয়েছিলেন কামরুন্নাহার শিমুল। শিমুল দলীয় কোন পদে না থাকলেও সে ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদকের স্ত্রী।

গত ৭ অক্টোবর (বৃহস্পতিবার) রুকিন্দিপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন পান শিমুল। তারপর ৯ অক্টোবর জয়পুরহাট পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের সহকারী ক্যাশিয়ার পদে ২৬ বছরের চাকরি ছেড়ে দেন। চাকরি ছেড়ে দেওয়ার অব্যাহতিপত্রও গ্রহণ করে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করে পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ।

হঠাৎ করে ২ দিন পর ১১ অক্টোবর ( সোমবার ) আওয়ামী লীগের সংসদীয় মনোনয়ন ও স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের যৌথসভায় রুকিন্দিপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পরিবর্তন করে দেওয়া হয় রুকিন্দিপুর ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান ও আক্কেলপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আহসান কবির এপ্লবকে।

এপ্লব ২০১৬ সালে রুকিন্দিপুর ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছিলেন। চলতি বছরের ১১ই মার্চ আক্কেলপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে সাধারণ সম্পাদকও নির্বাচিত হন।

আগামী ১১ নভেম্বর দ্বিতীয় ধাপে আক্কেলপুর উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়। আক্কেলপুর উপজেলার রুকিন্দিপুর, সোনামুখী, গোপীপনাথপুর, তিলকপুর ও রায়কালী ইউনিয়ন পরিষদ।

রুকিন্দিপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন ফরম ক্রয় করেছিলেন বর্তমান রুকিন্দিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আক্কেলপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আহসান কবির এপ্লব, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গোলাম মাহফুজ চৌধুরী অবসরের সহধর্মিনী কামরুন নাহার শিমুল।

কামরুন্নাহার শিমুল জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমার বিষয়ে খোঁজ খবর নিয়েই নৌকা দিয়েছিলেন রুকিন্দিপুর ইউনিয়নবাসীর সেবা করার জন্য। ১৯৮৭ সালে জয়পুরহাট সরকারি মহিলা কলেজ ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাকালীন সাধারণ সম্পাদক ছিলাম। আমার শ্বশুর সারাজীবন আওয়ামী লীগ করেছেন, আমার স্বামী আওয়ামী লীগের বড় পদে রয়েছেন। আমি সারাজীবনই আওয়ামী লীগের পাশে থেকেছি। কিন্ত চাকরির জন্য পদ নেওয়া হয়নি। মনোনয়নের জন্য চাকরি ছেড়ে দিতে হয়েছে। পুনরায় মনোনয়ন পেলে উপকৃত হতাম। ইউনিয়নের বেশির ভাগ ভোটার আমার সমর্থক। মনোনয়ন বঞ্চিতরা কেন্দ্রীয় নেতাদের ভুল বুঝিয়ে আমার মনোনয়ন বাতিল করেছেন। কেন্দ্রীয়ভাবে তদন্ত করলে সব জানা যাবে।

রুকিন্দিপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাজারুল আনোয়ার লিটনসহ একাধিক আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা জানান, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গোলাম মাহফুজ চৌধুরী অবসরের বিরুদ্ধে দেশের অনেক জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় অস্ত্র ব্যবসা নিয়ে নিউজ এসেছিলো এবং তার বিরুদ্ধে অস্ত্র ব্যবসার অভিযোগসহ দুদকের একাধিক মামলা রয়েছে। অবসরের সহধর্মিনী কামরুন নাহার শিমুল আওয়ামী লীগের সদস্য না হয়েও মনোনয়ন পেয়েছিলেন। একজন বিতর্কিত নেতার স্ত্রী হয়েও কিভাবে মনোনয়ন পায় সে। মনোনয়ন পরিবর্তন করায় নেত্রীকে ধন্যবাদ জানাই।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন