রোববার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২২ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

ওয়ানডে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ মিলিয়ে প্রথম জয়ের স্বাদ পেল নামিবিয়া

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ অক্টোবর, ২০২১, ৭:৩৭ পিএম

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে ৬ উইকেটের জয় পেয়েছে নামিবিয়া। ম্যাচটিতে প্রথমে ব্যাট করে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৬৪ রান করে নেদারল্যান্ডস। এই রান এক ওভার হাতে রেখে চার উইকেট হারিয়ে টপকে যায় নামিবিয়া।

এই জয়ের মাধ্যমে নিজেদের ইতিহাসে বিশ্বকাপে প্রথম জয়ের স্বাদ পেয়েছে নামিবিয়া। এবারই প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ পায় আফ্রিকার দেশ নামিবিয়া। এর আগে ২০০৩ সালে দীর্ঘ ১৮ বছর আগে ওয়ানডে বিশ্বকাপে খেলেছিল। সেবার খালি হাতেই ফিরেছিল নামিবিয়ানর। এবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এসেই পেল সে কাঙ্ক্ষিত জয়ের দেখা।

ম্যাচটিতে নামিবিয়ার জয়ের নায়ক ডেভিড উইসি। তিনি ৪০ বলে ৬৬ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন। তার হাতেই যায় ম্যাচ সেরার পুরষ্কার।

এদিকে এর আগে ডাচদের দেয়া ১৬৫ রানের লক্ষ নিয়ে খেলতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি নামিবিয়ার। তারা প্রথম তিনটি উইকেট হারায় ৫২ রানে। ৮ ওভার ৩ বল খেলে এই রান করতে সমর্থ হয় তারা। কিন্তু এরপর ক্রিজে আসেন এক সময় দক্ষিণ আফ্রিকার প্রতিনিধিত্ব করা ডেভিড উইসি। ক্রিজে এসেই দ্রুত রান তোলায় মনোযোগ দেন উইসি। তার সঙ্গে সমান তালে ব্যাট চালাতে থাকেন নামিবিয়ার অধিনায়ক এরাসমুস। অধিনায়ক শেষ পর্যন্ত ২২ বলে ৩২ রান করে আউট হন। কিন্তু একপ্রান্ত আগলে রেখে শেষ পর্যন্ত জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন উইসি।

এর আগে ম্যাচটিতে হাফসেঞ্চুরি তুলে নেন নেদারল্যান্ডসের ও'দউদ। তার হাফসেঞ্চুরির সুবাদে ১৫ ওভার শেষে ২ উইকেট হারিয়ে ১১৬ রান তুলতে সমর্থ হয় ডাচরা। তাকে পাশে থেকে সঙ্গ দেন অ্যাকারম্যান। তবে তিনি ৩২ বলে ৩৫ রান করে আউট হন। এরপর ক্রিজে আসেন এডওয়ার্ডস। তিনি ঝড়ো গতির ইনিংস খেলতে থাকেন। সব মিলিয়ে ১১ বল খেলে ২১ রান করে অপরাজিত থাকেন তিনি। তার ঝড়ো ইনিংসে ১৬৪ রানের বড় সংগ্রহ দাঁড় করতে সমর্থ হয় নেদারল্যান্ডস।

ও'দউদ পাঁচটি চার ও একটি ছক্কার মাধ্যমে হাফসেঞ্চুরি পূর্ণ করেন । সব মিলিয়ে ৫৭ বল খেলে ৭০ রান করে রান আউট হন ও'দউদ। তিনি এর আগে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষেও হাফসেঞ্চুরি করেন। দুই ম্যাচে ১২১ রান করে এখন আছেন টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারী ব্যাটসম্যানদের তালিকার প্রথম স্থানে।

ম্যাচটিতে নামিবিয়ার হয়ে ৩৬ রান দিয়ে সর্বোচ্চ দুটি উইকেট তুলে নিয়েছেন ফ্রাঙ্কলিন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন