রোববার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২২ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

মহানগর

ইসলামের কথা বলে অন্য ধর্ম আক্রমণকারী ফেৎনাবাজদের রুখে দাঁড়ান : তথ্যমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ অক্টোবর, ২০২১, ৮:২১ পিএম

তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, যারা ইসলামের কথা বলে হানাহানিতে লিপ্ত হয়, অন্য ধর্মাবলম্বীদের ওপর আক্রমণ করে তারা ফেৎনা সৃষ্টিকারী ও ইসলামের ওপর কালিমা লেপনকারী। এদের ব্যাপারে সতর্ক থাকতে হবে।

আজ হিজরি ১৪৪৩ সনের ১২ রবিউল আউয়াল মহানবী (সা:) এর জন্ম ও ওফাত দিবস পবিত্র ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী উপলক্ষে দুপুরে রাজধানীর রমনায় ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে অনুষ্ঠিত জশনে জুলুস ও শান্তি মহাসমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি একথা বলেন।

আয়োজক সংগঠন আঞ্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভান্ডারীয়া ও আন্তর্জাতিক সূফি ঐক্য সংহতির চেয়ারম্যান সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদের সভাপতিত্বে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক, ধর্ম প্রতিমন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান অনলাইনে এবং শাহসূফি সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন।

তথ্য ও সম্প্রচার-মন্ত্রী বলেন, ‘পৃথিবীতে হানাহানি, দলাদলি বন্ধ করে মানুষকে সুপথে এনে শান্তির ধর্ম ইসলাম প্রতিষ্ঠা করেছেন মহানবী (সা:)। ইসলামের মূল মর্মবাণী মানুষে মানুষে ভ্রাতৃত্ব, সৌহার্দ্য ও সম্প্রীতি স্থাপন করা। যারা এই মর্মবাণী ধারণ করে, তারা কখনো জঙ্গি হয় না, হানাহানিতে লিপ্ত হয় না, ইসলামের নামে কারো ওপর আক্রমণ করে না, কারণ রাসুল (সা:) কখনো ধর্মের নামে কারো ওপর আক্রমণের শিক্ষা দেননি, ইসলাম কখনো সে শিক্ষা দেয় না।’

কিন্তু আজকে ইসলামের এই মূল মর্মবাণী থেকে সরে গিয়ে অনেকে ধর্মের ভুল ব্যাখ্যা দিয়ে ওলী-আম্বিয়াদের বিরুদ্ধে কথা বলে, তরুণদের বিপথগামী করে উল্লেখ করে ড. হাছান দ্ব্যর্থহীন কন্ঠে স্মরণ করিয়ে দেন, এই জনপদে, এই উপমহাদেশে কোনো যুদ্ধ-বিগ্রহের মাধ্যমে ইসলাম বিস্তার লাভ করেনি।

ওলী-আম্বিয়ারা মানুষকে ভালোবাসা দিয়ে, বুঝিয়ে ইসলামের সুশীতল ছায়াতলে এনেছেন। তাই যারা ইসলামের কথা বলে ওলী-আম্বিয়াদের বিরোধিতা করে, হানাহানিতে লিপ্ত হয়, অন্য ধর্মাবলম্বীদের ওপর আক্রমণ করে তারা ফেৎনা সৃষ্টিকারী ও ইসলামের ওপর কালিমা লেপনকারী। এদের ব্যাপারে সতর্ক থাকতে হবে।’

‘বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা একজন ধর্মপ্রাণ মানুষ এবং বঙ্গবন্ধুর পূর্বপুরুষেরা ইরাকের বাগদাদ থেকে ধর্মপ্রচারের জন্য এদেশে আসেন’ স্মরণ করেন তথ্যমন্ত্রী।

তিনি বলেন, এদেশ যেমন মুসলিমদের, তেমনই হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টানদের, আমাদের সবার। বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে এদেশের হিন্দু-মুসলিম-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান সবাই কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি। এখানে শান্তি, সম্প্রীতি, সৌহার্দ্য বজায় রাখতে আমরা ঐক্যবদ্ধ থাকবো।’

এসময় ফিলিস্তিনের মুসলিমদের ওপর অত্যাচার বন্ধে ও মায়ানমার থেকে উদ্বাস্তু হয়ে এদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গা মুসলিমদের নিরাপদে মায়ানমারে ফিরে যাওয়া নিশ্চিত করার ওপর গুরুত্বারোপ করেন ড. হাছান মাহমুদ।

সূত্র: বাসস

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (7)
মোহাম্মদ দলিলুর রহমান ২০ অক্টোবর, ২০২১, ৯:০১ পিএম says : 0
আলহামদুলিললাহ,আলহামদুলিললাহ, আলহামদুলিললাহ,তোমার উপরে আললাহর রহমত বর্ষিত হোক আমিন,টুপি মাথায় রেখে ইসলাম বিরোধী কথা বললে টুপি সাক্ষী দিবে কিন্তু,সাবধান এক দিকে মাওলানা মৌলভী মুফতি দের রিমান্ডে দিয়ে অত্যাচার অবিচার করেন অন্য দিকে টুপি লাগাইয়া পাঞ্জাবি পরে ছদদও বেশে সভাপতিত্ব করেন,...
Total Reply(0)
Md Khurshed ২০ অক্টোবর, ২০২১, ১১:২১ পিএম says : 0
মাশাআল্লাহ আলহামদুলিল্লাহ সুবাহানঅাল্লাহ অনেক অনেক অভিনন্দন আমার পক্ষ থেকে বিনম্র শ্রদ্ধায় বিনম্র ভালো বাসা রইলো
Total Reply(0)
Gazi Shafiqul Islam ২০ অক্টোবর, ২০২১, ১১:২১ পিএম says : 0
আলহামদুলিল্লাহ। সঠিক বলেছেন।
Total Reply(0)
মোঃ ইশাফিকুল ইসলাম রাজন ২০ অক্টোবর, ২০২১, ১১:২২ পিএম says : 0
মহান আল্লাহ সকলেকে হেদায়েত দান করুন।
Total Reply(0)
মোহাম্মদ রাশেদ আলী ২০ অক্টোবর, ২০২১, ১১:২২ পিএম says : 0
মাশাল্লা, আল্লাহ রহমত দান করুক আপনাকে
Total Reply(0)
মাইশা আক্তার ২০ অক্টোবর, ২০২১, ১১:২৩ পিএম says : 0
টাকা দিয়ে সমাজ কিনা যায়,কিন্তু জ্ঞান না,অর্থদিয়ে সমাজ ডাকা দাওয়া যায় মানুষের হৃদয়ের ভালোবাসা পাওয়া যায় না
Total Reply(0)
Asim SK ২০ অক্টোবর, ২০২১, ১১:২৪ পিএম says : 0
দৃশ্যমান সঠিক বিচার দেখতে চাই!
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন