বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৫ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

বড় জয়ের পথে বাংলাদেশ

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২১ অক্টোবর, ২০২১, ৬:৫৬ পিএম | আপডেট : ৬:৫৬ পিএম, ২১ অক্টোবর, ২০২১

সাকিবের ৪ উইকেট

নিজের শেষ ওভারে সাকিব ফেরালেন হিরিকে। স্টাম্পের বল স্লগ সুইপ করতে গিয়ে বল আকাশে তুলে দিলে কোনো ভুল করলেন না সোহান। ২৯ রানেই ৭ উইকেট হারাল পাপুয়া নিউগিনি। এই ৭ উইকেটের ৪টিই নিয়েছেন সাকিব। ৪ ওভারে ৯ রান দিয়েছেন বাংলাদেশ অলরাউন্ডার।

২৪ রানেই ৬ উইকেট

এবার মেহেদীর শিকার নরমান ভানুয়া। রানের খাতা খোলার আগেই মুশফিকের হাতে ক্যাচ দিলেন ভানুয়া। ২৪ রানেই ৬ উইকেট হারাল পাপুয়া নিউগিনি। ম্যাচ থেকেই আগেই ছিটকে গেছে ভালার দল। বাকি ব্যাটাররা শুধু হারের ব্যবধানই কমাতে পারেন।

সাকিব ফেরালেন বাউকে

নিজের তৃতীয় ওভারে বোলিংয়ে এসেছেন সাকিব। সেসে বাউ তুলে মারতে গিয়ে নিজেই বিপদ ডেকে আনলেন। ২১ বলে ৭ রানের টেস্ট মেজাজের এক ইনিংস খেলে নাঈমের হাতে ক্যাচ দিলেন বাউ। ৩ ওভারে ৭ রান দিয়ে ৩ উইকেট তুলে নিলেন সাকিব।

সাকিবের জোড়া আঘাত

বোলিংয়ে এসেই সাকিব তুলে নিলেন আমিনিকে। বাউন্ডারিতে দুর্দান্ত এক ক্যাচ নিলেন নাঈম। দুই বল পর আবারো সাকিব ঝলক। এবার শিকার সাইমন আতাই। বৃত্তের মধ্যে সহজ ক্যাচ নিলেন মেহেদী। পঞ্চম ওভারে ২ রান দিয়ে সাকিবের ২ উইকেট।

পাপুয়া নিউগিনি ১৫/৪, ৫ ওভার।

তাসকিনের উইকেট মেডেন

পরের ওভারে তাসকিন ফেরালেন ভালাকে। উইকেটের পেছনে দুর্দান্ত এক ক্যাচ নিলেন সোহান। ৯ বলে ৬ রান করে আউট হলেন ভালা। উইকেট মেডেন দিলেন তাসকিন।

পাপুয়া নিউগিনি ১৩/২, ৪ ওভার।

প্রথম সাফল্য এনে দিলেন সাইফউদ্দিন

দুর্দান্ত এক ডেলিভারিতে লেগি সিয়াকাকে এলবিডব্লুর ফাঁদে ফেললেন সাইফদ্দিন। সাইফউদ্দিনের ফুল এন্ড স্ট্রেইট ডেলিভেরি ফ্লিক করতে চেয়েছিলেন সিয়াকা তবে বলের লাইন মিস করলে সরাসরি প্যাডে আঘাত করে। সাইফদ্দিনের আবেদনে সাড়া দিলেন আম্পায়ার রিচার্ড কেটেলবোরো।

বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ রান করল বাংলাদেশ

ইনিংসের দ্বিতীয় বলে মোহাম্মদ নাঈম আউট। এই ধাক্কা দারুণভাবে সামলে নিয়ে বাংলাদেশকে খেলায় ফেরান সাকিব আল হাসান ও লিটন দাস। কার্যকরী ইনিংসের ইঙ্গিত দিলেও হতাশ করেন লিটন। ৪১ বলে ৫০ রানের জুটি ভাঙে তার বিদায়ে, ২৩ বলে করেন ২৯ রান। এরপর সাকিব হাফ সেঞ্চুরির পথে ছুটতে গিয়েও ব্যর্থ হলেন। ৪৬ রান করেন তিনি। মাহমুদউল্লাহ ও আফিফ হোসেনের ২৩ বলে ৪৩ রানের জুটি ছিল দুর্দান্ত। বাংলাদেশের অধিনায়ক ২৭ বলে করেন হাফ সেঞ্চুরি। তার ৫০ রানের ইনিংস থামে আরেকটি বল খেলে। শেষ ওভারের শেষ দুটি বলে টানা দুটি ছয় মারেন। শেষ বলটি নো হলে চার মেরে ইনিংস শেষ করেন সাইফউদ্দিন।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

বাংলাদেশ: ২০ ওভারে ১৮১/৭ (সাইফউদ্দিন ১৯*, মেহেদী ২*)

নাটকের পর আউট মাহমুদউল্লাহ

রাভুর কোমর উচ্চতার বল সোপার ক্যাচ নিলেন বাউন্ডারিতে। মাঠের আম্পায়ার সিদ্ধান্তের জন্য থার্ড আম্পায়ারের সহায়তা নিলেন। তবে ভুলবশত নট আউট দিলেন থার্ড আম্পায়ার। তবে দ্রুত ভুল শুধরে নিয়ে জায়ান্ট স্ক্রিনে পরের মূহুর্তেই দেখাল আউট। নাটকীয় এমন সিদ্ধান্তের পর ২৮ বলে ৫০ করে হাসতে হাসতে ফিরে গেলেন মাহমুদউল্লাহ। ওভারের শেষ বলে নেমেই ক্যাচ দিলেন সোহান।

বাংলাদেশ : ১৫৩/৬, ১৮ ওভার

মাহমুদউল্লাহর ফিফটি

১৭তম ওভারে সোপারকে ৭৭ মিটারের এক ছক্কা হাঁকালেন মাহমুদউল্লাহ। শেষ দিকে দ্রুত তোলার এই দায়িত্বটা উইকেটে থিতু হওয়া মাহমুদউল্লাহকেই নিতে হবে। ফ্রি হিট ব্যাটেই লাগাতে না পারলেও ওভারের পঞ্চম বলে আবারও সোপারকে গ্যালারাতি আছড়ে ফেলেন। ওভারের শেষ বলে চার মেরে ফিফটি পূর্ণ করলেন বাংলাদেশ অধিনায়ক।

ছক্কার পরের বলেই ক্যাচ আউট

আগের বলেই ভালাকে এক্সট্রা কাভারের উপর দিয়ে এক হাতে ছয় হাঁকালেন সাকিব। পরের বলটা ভালা দিয়েছেন স্টাম্পের সামান্য বাইরে। এবারও টেনে মারতে গেলেন। তবে ব্যাটে বলে ভালো সংযোগ হলো না।লং অনে ধরা পড়লেন চার্লস আমিনির হাতে। ৩৭ বলে ৪৬ রান করা সাকিব রান তোলার গতি বাড়াতে গিয়েই ক্যাচ দিয়ে ফিরলেন। ১৪ ওভার শেষে ৪ উইকেটে বাংলাদেশের রান ১০৩।

আবারও ব্যর্থ মুশফিক

ব্যাটিং অর্ডারে আজ চারে নেমেও ব্যর্থতার ধারাবাহিকতা ধরে রাখলেন মুশফিক। সাইমন আতাইয়ের বলে ডিপ স্কয়ার লেগে ক্যাচ দিয়ে ফিরলেন ৮ বলে ৫ রান করে।আতাইয়ের এই ওভার থেকে এসেছে ৬ রান। ১১ ওভার শেষে বাংলাদেশের রান ৩ উইকেটে ৭৭ রান।

স্লগ সুইপের চেষ্টায় লিটনের বিদায়

ভালার স্ট্যাম্পের অনেক বাইরের বল টেনে এনে স্লগ সুইপ করতে গিয়ে লিটন যে উইকেট উপহার দিয়ে আসলেন। ডি মিড উইকেটে কোনো ভুল করলেন না বাউ। দক্ষতার সঙ্গে বল তালুদন্দী করলেন। লিটন ফিরে গেলেন ২৩ বলে ২৯ করে। ৮ ওভার শেষে বাংলাদেশের রান ২ উইকেটে ৫৪। ওমানের বিপক্ষে ৮ নম্বরে নামা মুশফিক আজ উইকেটে আসলেন ৪ নম্বরে।

পাওয়ার প্লে শেষে ৪৫/১

রিভিউ নষ্ট করল পাপুয়া নিউগিনি। বাউয়ের বল লিটন সুইপ করতে গিয়ে মিস করলে প্যাডে আঘাত করে। আবেদন করলে আম্পায়ার সাড়া না দিলে রিভিউ নেয় তারা। তবে বল বাইরে পিচ করায় রিভিউ নিয়েও লাভ হলো না পাপুয়া নিউগিনির।পাওয়ার প্লেতে বাংলাদেশের রান ১ উইকেটে ৪৫।বিশ্বকাপের আগের দুই ম্যাচের চেয়ে এই ম্যাচে পাওয়ার প্লেতে ভালো করেছে মাহমুদউল্লাহর দল।

ইনিংসের দ্বিতীয় বলে ফিরলেন নাঈম

কাবুয়া মোরেয়ার ইনিংসের দ্বিতীয় বলেই ক্যাচ দিয়ে ফিরলেন নাঈম। লেগ স্টাম্পে মোরেয়ার হাফ ভলি ফ্লিক করেছিলেন নাঈম। তবে শটে খুব বেশি পাওয়ার না থাকায় ডিপ স্কয়ার লেগে সেসে বাউয়ের হাতে ধরা পড়লেন। প্রথম ওভারে বাংলাদেশের রান ১ উইকেট হারিয়ে ৩ রান।

টস জিতে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে হারে বিবর্ণ হয়ে উঠেছিল বাংলাদেশের সুপার টুয়েলভের স্বপ্ন। ওমানকে হারিয়ে সেই স্বপ্ন বাঁচিয়ে রাখে বাংলাদেশ। আজ বৃহস্পতিবার সুপার টুয়েলভ নিশ্চিত করতে পাপুয়া নিউগিনির মুখোমুখি হয়েছে বাংলাদেশ। অন্তত ৩ রানে জিতলেই মূল পর্ব নিশ্চিত হয়ে যাবে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের দলের।

'ডু অর ডাই' ম্যাচে টস ভাগ্য পক্ষে এসেছে বাংলাদেশের। টস জিতে আগে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। ম্যাচটি বাংলাদেশ সময় বিকাল ৪টায় মাসকাটের আল আমেরাত ক্রিকেট গ্রাউন্ডে শুরু হবে।

বাংলাদেশের একাদশে কোনো পরিবর্তন আসেনি। অপরিবর্তিত একাদশ নিয়ে মাঠে নেমেছে প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অংশ নেওয়া পাপুয়া নিউগিনিও।

বাংলাদেশ একাদশ

লিটন দাস, নাঈম শেখ, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ (অধিনায়ক), আফিফ হোসেন ধ্রুব, নুরুল হাসান সোহান (উইকেটরক্ষক), শেখ মেহেদী হাসান, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, তাসকিন আহমেদ ও মুস্তাফিজুর রহমান।

পাপুয়া নিউগিনি একাদশ

লেগা সিয়াকা, আসাদ ভালা (অধিনায়ক), চার্লস আমিনি, সেসে বাউ, সাইমন আতাই, হিরি হিরি, নরম্যান ভানুয়া, কিপলিন ডোরিগা (উইকেটরক্ষক), চ্যাড সোপার, ড্যামিয়েন রাভু ও কবুয়া মোরিয়া।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন