সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ৩০ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

সারা বাংলার খবর

অপ্রীতিকর ঘটনার আরেক উস্কানিদাতা গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২১ অক্টোবর, ২০২১, ৭:৩৬ পিএম

কুমিল্লায় পূজামণ্ডপে কোরআন পাওয়াকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন জেলায় অপ্রীতিকর ঘটনার উস্কানিদাতাদের গ্রেফতার করা হচ্ছে। এর ধারাবাহিকতায় ইসলামি বক্তা মাওলানা আব্দুর রহিম বিপ্লবী (৩৯) নামে আরেকজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)।

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) সকালে সিআইডির সাইবার মনিটরিং সেলের একটি টিম ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানাধীন শুভাঢ্যা ইউনিয়নের চুনকুটিয়া পূর্বপাড়া (আমিনপাড়া) থেকে তাকে গ্রেফতার করে।

সিআইডির মিডিয়া কর্মকর্তা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আজাদ রহমান জানান, গত ১৩ অক্টোবর ভোরে কুমিল্লা শহরের নানুয়াদিঘীর পাড়ে একটি পূজামণ্ডপে কোরআন পাওয়া যায়। পরে একদল লোক কোরআন শরীফ অবমাননার অভিযোগ তুলে ওই পূজামণ্ডপে হামলা ও ভাঙচুর চালায়। এ ঘটনার জের ধরে সেদিনই চাঁদপুরের হাজীগঞ্জে কিছু মন্দিরে হামলা চালানো হয়। সহিংসতায় কয়েকজন নিহত হয়। ওই দিনই একজন ইসলামি বক্তা মাওলানা আব্দুর রহিম বিপ্লবী (৩৯) একটি ওয়াজ মাহফিলে উস্কানিমূলকভাবে বলেন, মূর্তির পায়ে যারা পবিত্র কোরআন শরীফ রেখেছে তাদেরকে আগামী বৃহস্পতিবারের (১৪ অক্টোবর) মধ্যে গ্রেফতার না করলে শুক্রবার (১৫ অক্টোবর) জুম্মার নামাজ শেষে বাংলাদেশের প্রত্যেকটি মসজিদ থেকে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তোলা হবে এবং বাংলাদেশে একটি পূজামণ্ডপও রাখব না। তাছাড়াও কুমিল্লার পূজা ইস্যুকে কেন্দ্র করে চাঁদপুরের নিহতের ঘটনায় পুলিশকে দায়ী এবং দোষী করে অপমানজনক, তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য, অবজ্ঞা এবং উগ্র বক্তব্য প্রচার করেন এই বক্তা।

তিনি আরও জানান, তার এই বক্তব্য বিভিন্নভাবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে নেটিজেন ও জনগণের মধ্যে তীব্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়। এ বক্তব্য ছড়িয়ে পড়লে সারাদেশেই আইনশৃঙ্খলার অবনতি ঘটতে থাকে। দেশের বিভিন্ন এলাকায় হিন্দু সম্প্রদায়ের বাড়িঘর ও উপাসনালয়ে হামলা চালায় দুর্বৃত্তরা। ফলে অনেকেই তাকে গ্রেফতারের দাবি জানান। বিষয়টি সিআইডির সাইবার মনিটরিং সেলের নজরে এলে তারা দ্রুত আব্দুর রহিম বিপ্লবীকে শনাক্ত করে। পরে আজ বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) সকালে সিআইডির সাইবার মনিটরিং সেলের একটি টিম ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানাধীন শুভাঢ্যা ইউনিয়নের চুনকুটিয়া পূর্বপাড়া (আমিনপাড়া) জামে মসজিদের সামনের পাকা রাস্তার ওপর থেকে তাকে গ্রেফতার করে।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে পুজামণ্ডপ সম্পর্কিত উস্কানিমূলক বক্তব্য দেওয়ার কথা স্বীকার করেছেন তিনি। তার এই বক্তব্য সিআইডি পরবর্তী কার্যক্রমের জন্য সংরক্ষণ করেছে। তার বিরুদ্ধে পল্টন মডেল থানায় একটি মামলা রুজু করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পুলিশ কর্মকর্তা আজাদ রহমান।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন