রোববার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৯ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

বিজেপির রথ থামাতে এবার গোয়া সফরে যাচ্ছেন মমতা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ অক্টোবর, ২০২১, ১:১৩ পিএম

আগামী ২৮ অক্টোবর গোয়া সফরে যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। উত্তরবঙ্গ সফর শেষে সোজা চলে যাবেন গোয়া। ওখানের মানুষের সঙ্গে কথা বলবেন তিনি। শনিবার দুটি টুইটবার্তায় এমন ঘোষণা দিয়েছেন তৃণমূল সুপ্রিমো।

সম্প্রতি সেখানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ গিয়েছিলেন। আর সেখানে বলেছিলেন, ২০২২ সালের বিধানসভা নির্বাচনে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা সরকার গড়বে বিজেপি। তার পর মুখ্যমন্ত্রীর এই সফর বেশ তাৎপর্যপূর্ণ।
সংবাদসংস্থা এএনআই সূত্রে খবর, বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আগামী ২৮ অক্টোবর গোয়া সফরে যাচ্ছেন। সেখানে তিনদিন থাকবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তারপর রাজ্যে ফিরবেন ১ নভেম্বর। এটাই তাঁর গোয়ায় প্রথম সফর। এই সফর নিয়ে জোর চর্চা শুরু হয়েছে জাতীয় রাজনীতিতে। কারণ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিজেপির রথ থমকে দিয়েছে বাংলায়। তারপর থেকে তিনিই গোটা দেশের বিরোধী মুখ। তাই তাঁর গোয়া সফর নিঃসন্দেহে চর্চার দাবি রাখে।
টুইটারে মমতা লিখেছেন, ‘আগামী ২৮ অক্টোবরের প্রথম বার গোয়া সফরের প্রস্তুতি নিচ্ছি। সব ব্যক্তি, সংগঠন এবং রাজনৈতিক দলের কাছে বিজেপি এবং তাদের বিভাজনের নীতিকে পরাস্ত করার জন্য একজোট হওয়ার আহ্বান জানাচ্ছি। গত ১০ বছরে গোয়ার আমজনতাকে অনেক দুর্ভোগ সইতে হয়েছে।’
দ্বিতীয় টুইটে মমতার মন্তব্য, ‘যৌথ ভাবে একটি নতুন সরকার গড়তে আমরা গোয়ায় নতুন ভোরের সূচনা করব। গোয়ার জনগণের সেই সরকার আমজনতার প্রত্যাশা পূরণে দায়বদ্ধ থাকবে।’
গত মাসে কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিয়েছিলেন গোয়ার সাবেক মুখ্যমন্ত্রী লুইজিনহো ফেলেইরো। এর পর কংগ্রেসসহ বিভিন্ন দল ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন একাধিক রাজনৈতিক এবং অরাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব। এরই মধ্যে গোয়ায় রাজনৈতিক দপ্তর খুলেছে তৃণমূল।
শুক্রবার তৃণমূলের সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি হিসেবে নিযুক্ত করা হয়েছে ফেলেইরোকে। এই আবহে আগামী ২৮ অক্টোবর তৃণমূলনেত্রীর গোয়া যাত্রাকে ‘তাৎপর্যপূর্ণ’ বলে মনে করা হচ্ছে।
একুশের ভোটে পশ্চিমবঙ্গে বিপুল জয়ের পর অন্যান্য রাজ্যে নজর দিয়েছে তৃণমূল। সেই তালিকার একেবারে প্রথম দিকে রয়েছে ত্রিপুরা এবং গোয়া। আগামী বছরের গোড়ায় গোয়ায় বিধানসভা ভোট হওয়ার কথা। ত্রিপুরায় বিধানসভা ভোট হওয়ার কথা ২০২৩-এর ফেব্রুয়ারি-মার্চ নাগাদ। সূত্র : আনন্দবাজার

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন