সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ২০ আষাঢ় ১৪২৯, ০৪ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

তরুণরা জেগে না উঠলে পরিবর্তন আসবে না

প্রকাশনা অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুল

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩১ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০২ এএম

দেশে বর্তমানে শ্বাসরুদ্ধকর অবস্থা বিরাজ করছে অভিযোগ করে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, এখন সকলের একটাই জিজ্ঞাসা এই অবস্থা থেকে কবে বেরুতে পারবো? হতাশ না হয়ে সকলকে জেগে উঠার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, আমাদের তরুণরা, যুবকরা তারা যদি জেগে না উঠে তাহলে পরিবর্তনটা আসবে কোত্থেকে? তরুণরা না জেগে উঠলে পরিবর্তন আসবে না। আমি বিশ্বাস করি পরিবর্তন অবশ্যই আসবে, হতাশ হওয়ার কোনো কারণ নেই। গতকাল শনিবার রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁওয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি প্রফেসর আনোয়ারুল্লাহ চৌধুরীর ওপর লেখা ‘আনোয়ারউল্লাহ চৌধুরী সংবর্ধনা গ্রন্থ’র প্রকাশনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের ভূমিকা নিয়ে নিজের কষ্টের কথা উল্লেখ করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ইউনিয়নে সাবেক সভাপতি মির্জা ফখরুল বলেন, যখন দেখি, আমার একজন বোন, মেয়ে ধর্ষিত হয় অথবা আমার গ্রামের মধ্যে মা-বোনেরা ধর্ষিতা হয় তখন দেখিনা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে একটা প্রতিবাদ মিছিল বেরিয়েছে। টিপাইমুখে যখন বাঁধ তৈরি করতে যায় সেই সময়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে প্রতিবাদ করে কোনো মিছিল বের হয় না, গণতন্ত্রকে যখন ধবংস করা হয়, ছাত্রদেরকে যখন পিটিয়ে শুইয়ে দেয়া হয়, রক্ত ঝরানো হয় তখন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কোনো প্রতিবাদ মিছিল বের হয় না। এটা দুঃখের কথা।

দেশে প্রতিটি ক্ষেত্রে চরম নৈরাজ্য চলছে অভিযোগ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ শিক্ষা বিভাগ থেকে ১৭টি নথি খোয়া গেছে। শাহবাগ থানায় ডায়েরি করা হয়েছে। এই হচ্ছে বর্তমানে সরকারের, শাসকদের এবং শাসন ব্যবস্থার অবস্থা। একটা না, প্রতিটি ক্ষেত্রে প্রতিটি জায়গায় চরম নৈরাজ্য চলছে। মানুষের কল্যাণ, দেশের কল্যাণের জন্য কারো চিন্তাই নেই। লক্ষ্য একটিই, কিভাবে অর্থ উপার্জন করা যায়।

মানুষ শ্বাসরুদ্ধকর অবস্থা থেকে বেরুতে চায় জানিয়ে তিনি বলেন, আমারা অনেকেই হতাশ। প্রায় হতাশার কথা শুনি। আমাকে জিজ্ঞাসা করেন, স্যার আর কত দিন। সত্য কথা। এটাই এখন মানুষের মধ্যে একটা বড় রকমের জিজ্ঞাসা হচ্ছে, পরিবর্তনটা কবে আসবে? যেভাবে চতুর্দিকে যে একটা শ্বাসরুদ্দ্রকর অবস্থা, এই অবস্থা থেকে আমরা কবে বেরুতে পারবো। আমি খুব সরাসরি উত্তর দিতে চাই, আমরা অবশ্যই বেরুতে পারবো। কারণ এই দেশের মানুষ কখনোই পরাজয় বরণ করেনি। অতীতে ভাষা আন্দোলন, ৬৯’র গণঅভ্যূত্থান, ৭১’র মুক্তিযুদ্ধ, ৯০’র গণতান্ত্রিক আন্দোলন সবকটিতেই মানুষ জেগে উঠেছে এবং তাদের পরাজয় হয়েছে। সেজন্য মানুষকে আজকে জেগে উঠতে হবে।

বাংলা একাডেমীর সাবেক মহাপরিচালক প্রফেসর মনসুর মুসা‘র সভাপতিত্বে ও কবি আবুল হাই শিকদারের সঞ্চালনায় প্রকাশনা অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন- নাগরিক ঐক্যের আহবায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, সাবেক শিক্ষা প্রতিমন্ত্রী আনম এহছানুল হক মিলন, প্রফেসর আনোয়ারুল্লাহ চৌধুরী ও তার সহধর্মিনী লাকী নাসরিন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক প্রো-ভিসি প্রফেসর আফম ইউসুফ হায়দার, প্রফেসর জাহেদুল ইসলাম, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর আবদুর রহমান সিদ্দিকী, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রফেসর রেজাউল করীম প্রমুখ।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Google Apps