বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৫ মাঘ ১৪২৮, ১৫ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

তিন আসামির সাজা কমে হাইকোর্টে যাবজ্জীবন

নারায়ণগঞ্জে উজ্জ্বল হত্যা মামলা

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০০ এএম

মধ্যপ্রাচ্য প্রবাসী হত্যা মামলায় মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত ৩ আসামির সাজা কমিয়ে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন হাইকোর্ট। ডেথ রেফারেন্স এবং আপিল শুনানি শেষে গতকাল সোমবার বিচারপতি এস এম এমদাদুল হক এবং বিচারপতি ভীষ্মদেব চক্রবর্তীর ডিভিশন বেঞ্চ এ রায় দেন। যাবজ্জীবনপ্রাপ্ত আসামিরা হলেনÑ আবুল কাশেম (৫০), কালু (৪৮) এবং আজমান (২৬)। তাদের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট মন্ট চন্দ্র ঘোষ। সরকারপক্ষে শুনানি করেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল হারুনুর রশিদ। পলাতক আসামি আবুল কাশেমের পক্ষে ‘স্টেট ডিফেন্স’ হিসেবে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট শাহনাজ হক।

ডিএজি হারুনুর রশিদ জানান, ২০১৫ সালের ৫ অক্টোবর নারায়ণগঞ্জের বন্দরে প্রবাসী উজ্জ্বল মিয়া হত্যা মামলার রায়ে ৪ জনকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দেন অধস্তন আদালত। সেই সঙ্গে আদালত তাদের প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা, অনাদায়ে আরও এক মাসের কারাদণ্ড দেন।
নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের প্রথম বিচারক মিয়াজী শহীদুল আলম চৌধুরী সে সময় এ রায় ঘোষণা করেন। দণ্ডিত আসামিরা হলেনÑ বন্দর উপজেলার সোনাকান্দা এলাকার আবুল কাশেম (৫০) ও তার ছেলে সুজন (২৪), ওই এলাকার কালু (৪৮) ও তার ছেলে আজমান (২৬)। হত্যার পরিকল্পনায় জড়িত থাকার দায়ে পৃথক ধারায় আসামি সুজনকে তিন বছরের সশ্রম কারাদণ্ডাদেশ দেন আদালত।
২০১২ সালের ১৪ জুন বন্দর উপজেলার সোনাকান্দা বড় মসজিদ এলাকায় প্রবাসী মো. উজ্জ্বল মিয়ার কাছ থেকে সিগারেটের আগুন ধরানোর জন্য একটি লাইটার ধার নেন সুজন। দু’দিন পর সুজনের কাছ থেকে লাইটার ফেরত চান উজ্জ্বল। এ নিয়ে দু’জনের মধ্যে বাকবিতণ্ডা ও হাতাহাতি হয়। পরে সুজন, কালু, আজমান, আবুল কাশেমসহ অন্য আসামিরা উজ্জ্বলকে মারধর করেন এবং একপর্যায়ে তাকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করেন। এ ঘটনায় উজ্জ্বলের বাবা লুৎফর রহমান বাদী হয়ে সুজনসহ ১০ জনের নাম উল্লেখ করে বন্দর থানায় মামলা করেন। তদন্ত শেষে পুলিশ ১০ আসামির বিরুদ্ধে চার্জশিট দেয় পুলিশ। আদালত ১৪ জনের সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে এই মামলার রায় ঘোষণা করেন। পরে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামিদের ডেথ রেফারেন্স হাইকোর্টে আসে। আসামিরা নিম্ন আদালতের রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন