সোমবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২২, ১০ মাঘ ১৪২৮, ২০ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

অভ্যন্তরীণ

পিতার হাতের কব্জি কেটে দিলো ছেলে

স্টাফ রিপোর্টার, মাগুরা থেকে : | প্রকাশের সময় : ২৪ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০৫ এএম

সম্পত্তি লিখে না দেয়ায় ক্ষুব্ধ হয়ে পিতার হাতের কবজি কেটে ফেলেছে ছোট ছেলে। মাগুরা সদর উপজেলার হাজরাপুর ইউনিয়নের উথলী গ্রামে মঙ্গলবার (২৩ নভেম্বর) সকালে বাড়ির পার্শ্ববর্তী একটি চায়ের দোকানে এ ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় পিতা শহীদুল হক সাধুকে (৭০) মাগুরা ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার অবস্থা আশংকাজনক। এদিকে ছোট ছেলে হানিফ মিয়া ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছে। স্থানীয়রা জানান, বিয়ের পর থেকে স্ত্রীকে নিয়ে আলাদা থাকেন হানিফ। আর তার পিতা শহীদুল হক বড় ছেলে গোলাম মোস্তফার সঙ্গে থাকেন। পিতা ও ছোট ছেলে আলাদা হলেও মাঝে মাঝেই ফসলি জমি লিখে দেয়ার জন্য পিতাকে চাপ দিতো ছোট ছেলে হানিফ। বিষয়টি নিয়ে তাদের মধ্যে বিভিন্ন সময় কথা কাটাকাটি হতো।
আর সেই সম্পত্তি লিখে না দেয়ার জেরেই পিতা শহীদুলের হাতের কবজি কেটে দিয়েছে ছোট ছেলে হানিফ।
এ ঘটনায় বড় ছেলে জানিয়েছেন, আব্বা সকালে বাড়ির পাশের চায়ের দোকানে চা খাচ্ছিলেন। এই সময় হঠাৎ করেই সেখানে ছুরি নিয়ে হাজির হয় হানিফ মিয়া। সে আব্বাকে এলোপাতাড়ি কোপায়। এতে করে আব্বার হাতের কবজি কেটে পড়ে যায়। পরে দোকানে থাকা মানুষদের সহযোগিতায় আব্বাকে হাসপাতালে নেয়া হয়। তার অবস্থা এখন আশঙ্কাজনক।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন