বৃহস্পিতবার, ১৮ আগস্ট ২০২২, ০৩ ভাদ্র ১৪২৯, ১৯ মুহাররম ১৪৪৪

সারা বাংলার খবর

দেবিদ্বারে নিখোঁজের ৩দিন পর অটোরিকসা চালকের অর্ধ গলিত লাশ উদ্ধার

দেবিদ্বার (কুমিল্লা) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৪ নভেম্বর, ২০২১, ৭:৩৬ পিএম

কুমিল্লার দেবিদ্বারে নিখোঁজ হওয়ার তিনদিন পর এক অটোরিকসা চালকের ভাসমান অর্ধ গলিত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার বেলা দেড়টায় দিকে উপজেলার ফতেহাবাদ ইউনিয়নের একটি মাছের ফিশারি সংলগ্ন বিল থেকে তার অর্ধ গলিত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত সেন্টু মিয়া (৪৫) উপজেলার রসুলপুর ইউনিয়নের খাইয়ার গ্রামের মৃত আবদুল মতিন মিয়ার ছেলে। তার তিন মেয়ের মধ্যে দু’জন শারীরিক প্রতিবন্ধী। এ বিষয়ে গত মঙ্গলবার রাতে তার বড় ভাইয়ের স্ত্রী হাসিনা বেগম দেবিদ্বার থানায় একটি নিখোঁজ ডায়রি করেন।

হাসিনা বেগম জানান, সেন্টু মিয়া পাঁচ ছয় বছর ধরে নিজের অটোরিকসা চালাতেন। গত শনিবার বিকালে বাড়ি থেকে ব্যাটারি চালিত অটোরিকসা নিয়ে বের হয়ে আর বাড়ি ফিরেনি। পরে অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে থানায় একটি সাধারণ ডায়রি করি। তার সাথে অটোরিকসাটিও খুঁজে পাচ্ছিলাম না।


নিহতের ভাতিজা আবদুল্লাহ জানায়, আমার চাচার একমাত্র সম্বল ছিল অটোরিকসাটি। তাকে কোথাও খুঁজে না পেয়ে বুড়িরপাড় বাজারে খোঁজ নিলে স্থানীয় কয়েকজন ব্যবসায়ী জানায়, অজ্ঞাত কয়েকজন ব্যক্তি পার্শ্ববর্তী ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার নাল্লা গ্রামে যাওয়ার জন্য তার অটোরিকসাটি রিজার্ভ ভাড়া নেয়। এরপর থেকে তাকে এদিকে আর দেখা যায়নি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বুধবার সকালে ফিসারীর পাশের বিলে লাশটি ভাসতে দেখে স্থানীয় কয়েকজন পুলিশকে খবর দেয়। পরে একদল পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যান।

পুলিশ জানায়, নিহত ব্যক্তির পরিচয় শনাক্ত করা গেছে। তার গায়ে জখমের কোন চিহ্ন পাওয়া যায়নি। লাশটি উপুর হয়ে পড়ে থাকায় বিভিন্ন পোকা মাকড় তার চোখ মুখ খেয়ে ফেলেছে। কিভাবে মারা গেছে তা তদন্ত সাপেক্ষে জানা যাবে।

দেবিদ্বার থানার ওসি আরিফুর রহমান দৈনিক ইনকিলাবকে জানান, লাশটি উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রির্পোট পেলে প্রকৃত রহস্য উদঘাটন হবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন