মঙ্গলবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২২, ১১ মাঘ ১৪২৮, ২১ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

অনুশীলন ছাড়াই তাইকোয়ান্দোয় ব্ল্যাক বেল্ট পেলেন ট্রাম্প

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৫ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০৬ এএম

প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের জীবনটা অনেকটা এক বিশেষ হোসিয়ারি ব্র্যান্ডের মতো। যাই করেন, সবই ‘বড়ি আরামসে’। রাজনীতির ‘র’ না জেনেও ক‚টনীতির ‘ক’ না জেনেও নিজের সরকারেরই নীতি এক বর্ণ না জেনেও, যেমন দিব্বি হাসিঠাট্টা করে ৪ বছর আমেরিকার প্রেসিডেন্টের আসনে কাটিয়েছেন, তেমনই স¤প্রতি হেলায় তাইকোয়ান্দোতে ‘বø্যাক বেল্ট’ খেতাব জিতলেন প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। মজার বিষয় হল, তিনি জীবনে এ মার্শাল আর্টের অনুশীলন পর্যন্ত করেননি। বিশ্ব তাইকোন্ডো একাডেমির সদর দফতর, কুক্কিওন থেকে স¤প্রতি ট্রাম্পকে নবম ড্যান সার্টিফিকেট দেয়া হল। এটি এ মার্শাল আর্টের সর্বোচ্চ সম্মান। গত ১৯ নভেম্বর ফ্লোরিডায় ট্রাম্পের বাসভবনে যান সংগঠনের সভাপতি লি ডং-সিওপ। তিনিই ট্রাম্পকে বø্যাক বেল্ট উপহার দেন। বø্যাক বেল্ট পেয়ে বলাই বাহুল্য খুবই খুশি ট্রাম্প। তিনি বলেছেন, এ পুরস্কার পেয়ে তিনি সম্মানিত। কুক্কিওন-এর পক্ষ থেকে এক ফেসবুক পোস্টে ট্রাম্পকে উদ্ধৃত করে জানানো হয়েছে, প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেছেন, সম্মানীয় ড্যান সার্টিফিকেট পাওয়া আমার জন্য অত্যন্ত সম্মানের এবং আমি মনে করি আত্মরক্ষার জন্য তাইকোয়ান্দো একটি দুর্দান্ত মার্শাল আর্ট। তিনি আরও জানিয়েছেন, তিনি কুক্কিওন তাইকোন্ডো দলের প্রদর্শন দেখতে আগ্রহী। ট্রাম্পকে সম্মান জানাতে বø্যাক বেল্ট দিলেও কুক্কিয়নের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, অনুষ্ঠানটির সঙ্গে রাজনৈতিক কোনও বিষয় সম্পর্কিত নয়। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসকারী এক দক্ষিণ কোরিয়র মাধ্যমে কুক্কিওনের সঙ্গে ট্রাম্পের সাক্ষাতের আয়োজন করা হয়েছিল। কিন্তু, ট্রাম্পকে কেন দেওয়া হল বø্যাক বেল্ট? কুক্কিওনের সভাপতি লি ডং-সিওপ জানিয়েছেন, তারা জানতে পেরেছিলেন, ডোনাল্ড ট্রাম্প তাইকোয়ান্দোতে খুবই আগ্রহী। তাই তাঁকে এ সাম্মানিক বø্যাকবেল্ট দেয়া হল। বø্যাক বেল্ট পেয়ে উচ্ছ¡সিত ট্রাম্প আবার কুক্কিওন সংস্থাকে এক বিরাট প্রতিশ্রæতি দিয়েছেন। তিনি জানিয়েছেন, ভবিষ্যতে ফের একবার হোয়াইট হাউসে ফিরতে পারলে, মার্কিন কংগ্রেসে তিনি তাইকোন্ডোর পোশাক পরে যাবেন। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ডোনাল্ড ট্রাম্পই কিন্তু একমাত্র রাষ্ট্রনেতা নন, যাঁকে এই সম্মান দিল কুক্কিওন। এর আগে, রুশ প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিনকেও এ মর্যাদা দেওয়া হয়েছিল। ২০১৩ সালে পুতিনকে যখন এ পুরস্কার দেওয়া হয়েছিল, তিনিও কোনোদিন তাইকোন্ডো অনুশীলন করেননি। তবে জুডো, সাম্বো, কোদোকান - তিনটি মার্শাল আর্ট জানেন রুশ প্রেসিডেন্ট। এর মধ্যে জুডোই তার সবথেকে পছন্দের।
ভারতের এক রাজনীতিবিদ কিন্তু, মার্শাল আর্টে পারদর্শী। অনেকেরই হয়তো জানা নেই, কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী আইকিদো মার্শাল আর্ট ফর্মে বø্যাক বেল্টের অধিকারী। তবে তিনি ট্রাম্পের মতো অনুশীলন না করে নয়, রীতিমতো ৪-৫ বছর খেটে ওই বেল্ট অর্জন করেছেন। সূত্র : এশিয়ানেট নিউজ।

 

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন