শুক্রবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২২, ১৪ মাঘ ১৪২৮, ২৪ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

অলস দিনে সাকিবের বৃষ্টি বিলাস

৬.২ ওভারেই দিন শেষ!

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৬ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২:০১ এএম

পূর্বাভাস ছিল আগেই, আগের দিন হাল্কা ঝলক দেখিয়েছিল ঘূণিঝড় জাওয়াদ। সমূদ্র উপকূল ছাপিয়ে গোটা দেশই কয়েক পষলা বৃষ্টিতে ভিজেছিল তাতে। বাদ যায়নি ঢাকা, মিরপুরও। হোম অব ক্রিকেটে চলা বাংলাদেশ-পাকিস্তান দ্বিতীয় টেস্টের প্রথম দিনের প্রায় দেড় সেশন ভেসে গিয়েছিল তাতে। গতকাল শেষ হেমন্তের বেরসিক সেই বৃষ্টিতে ভেসে প্রায় গোটা দিনই। দ্বিতীয় দিনে বাংলাদেশ বল করতে পেরেছে কেবল ৬.২ ওভার। কোনো উইকেট না হারিয়ে পাকিস্তান যোগ করে ২৭ রান। তাদের সংগ্রহ দাঁড়িয়েছে ২ উইকেটে ১৮৮ রান। উইকেটে আছেন আজহার আলি ৫২ ও অধিনায়ক বাবর আজম ৭১ রানে।
বৃষ্টির বাগড়ায় দিনের প্রথম সেশন ভেস্তে যায়। মধ্যাহ্ন বিরতির কিছু সময় পর খেলা শুরু হলেও আধা ঘণ্টার বেশি চলতে পারেনি। আবার বৃষ্টি নামলে দুপর একটা ২০ মিনিটে খেলা বন্ধ হয়ে যায়। এরপর আর দুই দলের ব্যাট-বলের লড়াই মাঠে গড়াতে পারেনি। বিকাল তিনটায় আসে দ্বিতীয় দিনের খেলার সমাপ্তির ঘোষণা। এই বৃষ্টিতে ভিজেও যারা মাঠে ছিলেন তাদের ভরপুর বিনোদন দিয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের পোস্টার বয় সাকিব আল হাসান।
দ্বিতীয় দিনের খেলা আগেভাগে সমাপ্তি ঘোষণার পর পরই মাঠে প্রবেশ করেন সাকিব। ঝিরঝিরি বৃষ্টির মধ্যে তিনি একাই মেতে উঠলেন শিশুসুলভ উন্মাদনায়। উইকেট ও মাঠের যে অংশ কাভার দিয়ে ঢেকে রাখা, সেখানে দৌড়ে এসে সøাইড করে অলস দিনটি উপভোগে মাতলেন বাংলাদেশের এই তারকা অলরাউন্ডার। মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে বৃষ্টি বিলাস করেন সাকিব। মাঠে ঢুকে হঠাৎ করে উইকেটের দিকে দৌড় দেন তিনি। এরপর কাভারের ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে তিনি পিছলে যান। বৃষ্টি উপেক্ষা করে মাঠে উপস্থিত হওয়া কিছু সংখ্যক দর্শক এতে পান দারুণ বিনোদন। টেস্টের খবর সংগ্রহ করতে প্রেসবক্সে থাকা সাংবাদিকরাও পান মন ভরানোর খোরাক।
এর আগে সকাল থেকে চলা বৃষ্টির বাধা এড়িয়ে বেলা ১২টা ৫০ মিনিটে শুরু হয়েছিল বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের মধ্যকার সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টের দ্বিতীয় দিনের খেলা। কিন্তু আধা ঘণ্টার বেশি চলেনি ব্যাট-বলের লড়াই। বৃষ্টির কারণে দুপুর ১টা ২০ মিনিটের দিকে খেলা বন্ধ হয়ে যায়। এরপর আবহাওয়ার পরিস্থিতি বিচার করে বিকাল তিনটায় আসে দিনের খেলার সমাপ্তির ঘোষণা। তার আগে প্রথম ইনিংসে পাকিস্তানের সংগ্রহ দাঁড়ায় ২ উইকেটে ১৮৮ রান। ক্রিজে আছেন আজহার আলি ১৩৬ বলে ৫২ রানে। তার সঙ্গী অধিনায়ক বাবর আজম খেলছেন ১১৩ বলে ৭১ রানে। ইতোমধ্যে তাদের জুটির রান ছাড়িয়েছে একশ।
থেমে থেমে চলা বৃষ্টির আগে খেলা হতে পারে কেবল ৬.২ ওভার। কোনো উইকেট না হারিয়ে পাকিস্তান যোগ করে ২৭ রান। আকাশ মেঘলা থাকলেও কন্ডিশনের সুবিধা কাজে লাগাতে পারেননি বাংলাদেশের দুই পেসার সৈয়দ খালেদ আহমেদ ও ইবাদত হোসেন। তারা পারেননি প্রতিপক্ষ ব্যাটারদের অস্বস্তিতে ফেলতে। তাদেরকে নির্বিঘ্নে মোকাবিলা করে রানের চাকা সচল রাখছে পাকিস্তান। বাবর ফিফটি পেয়েছিলেন প্রথম দিনেই। এদিন আজহারও তুলে নেন হাফসেঞ্চুরি। তিনি মাইলফলকে পৌঁছান মুখোমুখি হওয়া ১২৬ বলে।
আগের দিন বৃষ্টি ও আলোক স্বল্পতায় ৩৩ ওভার কম হয়। তৃতীয় সেশনের পুরোটাই গিয়েছিল ভেস্তে। তাই এদিন পুষিয়ে নিতে খেলা শুরু হওয়ার কথা ছিল নির্ধারিত সময়ের আধা ঘণ্টা আগে, সকাল সাড়ে নয়টা থেকে। কিন্তু সকাল থেকে চলা টিপটিপ বৃষ্টির কারণে খেলা তখন শুরু হতে পারেনি। এক পর্যায়ে, বৃষ্টি থামলে মাঠ পরিদর্শন করে সকাল ১১টা ২০ মিনিটে খেলা শুরুর সিদ্ধান্ত দিয়েছিলেন আম্পায়াররা। দুই দলের ক্রিকেটাররা জার্সি গায়ে তৈরি হয়ে গিয়েছিলেন নিজেদের ড্রেসিং রুমের সামনে। কিন্তু ফের বৃষ্টি নামায় আগেভাগে মধ্যাহ্ন বিরতিতে চলে যেতে হয় তাদের।
বিরতি শেষ হওয়ার আরও কিছুক্ষণ পর ফ্লাডলাইট জ্বালিয়ে খেলা শুরু হয়। কিন্তু ঘূর্ণিঝড় জাওয়াদের প্রভাবে হওয়া বৃষ্টি থামিয়ে দেয় খেলা। যাদ সবকিছু ঠিক থাকে আজ তৃতীয় দিনের খেলাও শুরু হবে সকাল সাড়ে নয়টায়।
সংক্ষিপ্ত স্কোর
পাকিস্তান ১ম ইনিংস : (আগের দিন ১৬১/২) ৬৩.২ ওভারে ১৮৮/২ (আজহার ৫২*, বাবর ৭১*; ইবাদত ১২-১-৪৮-০, খালেদ ০/২৬, সাকিব ০/৩৩, তাইজুল ২/৪৯, মিরাজ ০/৩১)। দ্বিতীয় দিন শেষে

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন