শুক্রবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২২, ১৪ মাঘ ১৪২৮, ২৪ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

মহানগর

তথ্য প্রতিমন্ত্রীকে গ্রেফতারের দাবিতে রিজভীর নেতৃত্বে বিক্ষোভ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৬ ডিসেম্বর, ২০২১, ৪:১৪ পিএম | আপডেট : ৪:৫৩ পিএম, ৬ ডিসেম্বর, ২০২১

গুরুতর অসুস্থ বিএনপির চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার অবিলম্বে নিঃশর্ত মুক্তি ও বিদেশে সুচিকিৎসার দাবি এবং তথ্য প্রতিমন্ত্রী মুরাদ হাসানকে গ্রেফতারের দাবিতে বৃষ্টিতে ভিজেও রাজধানীতে বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা। সোমবার (৫ ডিসেম্বর) বিকেলে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে কাকরাইল মোড় পর্যন্ত এই মিছিল হয়। বিক্ষোভ মিছিলে নেতৃত্ব দেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। এসময় অন্যান্যের মধ্যে বিএনপি নেতা আমিনুল ইসলাম, আকরামুল হাসান, মৎস্যজীবী দলের সদস্য সচিব আবদুর রহিম, যুগ্ম আহ্বায়ক অধ্যক্ষ সেলিম মিঞা, জাকির হোসেন খান, ওমর ফারুক পাটোয়ারী, কেন্দ্রীয় সদস্য মাহাবুব আলম সিকদার, ঢাকা জেলার আহ্বায়ক মোখলেছুর রহমান খান ইলিয়াস শাহী, রুহুল আমিন, তানভীর মোহাম্মদ সেন্টু, মোঃ হারুন অর রশিদ, আবদুর রাজ্জাক ফরাজী, পারভেজ হাজারী, আরিফ হোসেন অপু, নারায়নগঞ্জ জেলার যুগ্ম আহ্বায়ক এইচ এম হোসেন, মির আলী, সবুজ, ছাত্রদলের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক মেহবুব মাসুম শান্ত, ওমর ফারুক কাওসার, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের, সুজন মোল্লা, মিলাদ ভূঁইয়া, আবদুল্লাহ মামুন, আজিমুল হাসান, শামিম ইসলাম, সুমন সর্দার, মশিউর রহমান রনি, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের কাজী জিয়াউদ্দিন বাসেত, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের রাজু আহমেদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

বিক্ষোভ মিছিলে নেতাকর্মীরা বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও বিদেশে সুচিকিৎসার দাবিতে বিভিন্ন স্লোগান দেন। এছাড়া তারা তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানকে নারী বিদ্বেষী আখ্যা দিয়ে বিভিন্ন স্লোগান দেন। তারা বলেন, ‘টাকলা মুরাদের ‍দুই গালে, জুতা মারো তালে তালে’।

পরে দলীয় কার্যালয়ের সামনে এক সংক্ষিপ্ত পথসভায় রুহুল কবির রিজভী বলেন, তথ্য প্রতিমন্ত্রী কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য দিয়েছেন। তিনি শেখ হাসিনার নির্দেশে এসব বলেছেন। বখাটে ও বেয়াদব দিয়ে কেবিনেট চালাচ্ছেন। তাকে অবিলম্বে গ্রেফতার করতে হবে।

কুশপুতুল দাহ: এদিকে পরে জাতীয়তাবাদী যুবদল ঢাকা মহানগর দক্ষিণের উদ্যোগে ডা. মুরাদের কুশপুতুল দাহ করেন নেতাকর্মীরা। এসময় উপস্থিত ছিলেন ঢাকা দক্ষিণ যুবদলের গোলাম মাওলা শাহিন, খন্দকার এনামুল হক এনাম সহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। এসময় পুলিশ নেতাকর্মীদের ধাওয়া দেয় এবং বেশকয়েকজনকে বেধড়ক লাঠিপেটা করে। একজনকে ধরে নিয়ে গেলেও, পরে সে পুলিশের কাছ থেকে ছুটে চলে আসে।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন