বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৫ মাঘ ১৪২৮, ১৫ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

তুরস্ক-কাতারের মধ্যে হচ্ছে নতুন চুক্তি

ইউরোপের অনেক দেশের আগেই নারীকে ভোটের অধিকার দিয়েছে তুরস্ক

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৭ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২:০৪ এএম

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যিপ এরদোগান দোহা সফরে কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানির সঙ্গে বৈঠকে বসবেন। এ বৈঠক দুই দেশের সম্পর্ক আরও গভীর করবে। রোববার আঙ্কারায় কাতারের রাষ্ট্রদূত শেখ মুহাম্মদ বিন নাসের বিন জসিম আল থানি এসব কথা বলেন। আঙ্কারায় কাতারের রাষ্ট্রদূত এক বিবৃতিতে বলেন, এ বৈঠকে দুই দেশের মধ্যে সম্পর্ক আরও গভীর করার বিষয়ে নানা পদক্ষেপ সম্পর্কে আলোচনা হবে। এ ছাড়াও আঞ্চলিক এবং আন্তর্জাতিক পরিস্থিতি বৈঠকে গুরুত্ব পাবে, পাশাপাশি বিভিন্ন খাত নিয়ে সই হবে নতুন চুক্তিও। জসিম আল থানি আরও বলেন, দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের শক্তি ও স্থায়িত্ব এবং বিভিন্ন ক্ষেত্রে কৌশলগত সহযোগিতার পাশাপাশি বন্ধুত্বের বহুমুখী বন্ধন দুই দেশকে সংযুক্ত করেছে। প্রেসিডেন্ট এরদোগানের কাতার সফর নিয়ে তুর্কি কর্তৃপক্ষ এক বিবৃতিতে জানায়, প্রেসিডেন্ট এরদোগান কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানির আমন্ত্রণে দোহা সফর করবেন। এ সফরে তিনি তুরস্ক-কাতার সর্বোচ্চ কৌশলগত কমিটির সপ্তম সভায় অংশ নেবেন। ‘তুরস্কের প্রেসিডেন্ট ও কাতারের আমিরের মধ্যে বৈঠকে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীরা থাকবেন। এ বৈঠকে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক পর্যালোচনার পাশাপাশি সহযোগিতা বাড়াতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিয়ে আলোচনা হবে’, বলা হয় বিবৃতিতে। এর আগে, তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান বলেছেন, ইউরোপের অনেকে দেশের আগেই তুরস্ক নারীকে ভোট দেয়ার ও নির্বাচনে অংশ নেয়ার অধিকার দিয়েছে। রোববার তুর্কি নারীর ভোটাধিকার লাভের ৮৭তম বার্ষিকী উপলক্ষে এক ভিডিও বার্তায় এই কথা বলেন তিনি। ১৯৩৪ সালের ৫ ডিসেম্বর এক আইনের মাধ্যমে তুরস্কে নারীদের ভোট দেয়ার ও নির্বাচনে অংশ নেয়ার অধিকার দেয়া হয়। প্রেসিডেন্ট এরদোগান বলেন, ইউরোপের অনেক দেশের আগেই তুরস্কে নারীদের ভোটাধিকারের মর্যাদা দান গুরুত্বপূর্ণ সূচক যা তুর্কি জাতির নারীদের প্রতি দৃষ্টিভঙ্গিকে প্রকাশ করেছে। তিনি বলেন, যদিও ১৯৩৪ সালে আমাদের নারীরা ভোট দান ও নির্বাচিত হওয়ার অধিকার অর্জন করেন, কিন্তু জাস্টিস অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টির (একে পার্টি) অধীনেই তারা প্রথম মুক্তভাবে এই অধিকার চর্চার সুযোগ পান। ২০০২ সালে একে পার্টির ক্ষমতায় আসার আগে রাষ্ট্রীয় আইনের অনুসারে পর্দা পালন করা নারীরা নির্বাচিত হওয়ার সুযোগ পেতেন না। একে পার্টি ক্ষমতায় আসার পর রাষ্ট্রীয় এই আইন পরিবর্তন করা হয়। ভিডিও বার্তায় এরদোগান বলেন, আল্লাহর অনুগ্রহে আমরা সামনের দিনগুলোতে আমাদের নারীদের বিষয়ক সমস্যা বিশেষ করে নারীদের বিরুদ্ধে সহিংসতার সমস্যার সমাধান করবো। ডেইলি সাবাহ, আনাদোলু এজেন্সি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন