বুধবার, ২৫ মে ২০২২, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৩ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

মেসি-রোনালদোর পর ইব্রা

৩০০ গোল

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৩ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২:০৮ এএম

অর্জনে ভরপুর জ্লাতান ইব্রাহিমোভিচের ক্যারিয়ার। তার মুকুটে এবার যোগ হলো আরেকটি পালক। ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো ও লিওনেল মেসির পর তৃতীয় খেলোয়াড় হিসেবে একবিংশ শতাব্দীতে ইউরোপের শীর্ষ পাঁচ লিগে ৩০০ গোলের মাইলফলক স্পর্শ করেছেন সুইডেনের এই তারকা। গতপরশু রাতে ইতালিয়ান সিরি ‘আ’তে মিলান ও উদিনেসের মধ্যকার ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হয়।

নির্ধারিত সময়ে ১-০ গোলে এগিয়ে থাকা উদিনেসকে থমকে দিয়ে যোগ করা সময়ে দারুণ নৈপুণ্যে সমতা টানেন ইব্রাহিমোভিচ। প্রায় দুই যুগের ক্যারিয়ারে অসংখ্য দর্শনীয় গোল করা এই তারকার মাইলফলক ছোঁয়া গোলটিও ছিল দেখার মতো। বক্সের ভেতর সতীর্থের হেড থেকে জটলার মধ্যে বল পেয়ে অ্যাক্রোবেটিক ভলিতে বল জালে জড়ান ইব্রাহিমোভিচ। ইউরোপের শীর্ষ পাঁচ লিগের হিসেবে এটি তার ৪৫০তম ম্যাচ।
১৯৯৯ সালে পেশাদার ক্যারিয়ার শুরু করা ইব্রাহিমোভিচ দীর্ঘ পথচলায় খেলেছেন প্রিমিয়ার লিগ, লা লিগা, সেরি আ ও লিগ ওয়ানে। শীর্ষ পাঁচ লিগের মধ্যে খেলেননি কেবল বুন্দেসলিগায়। ২০০৪ সালে আয়াক্স থেকে জুভেন্টাসে যোগ দেওয়া ইব্রাহিমোভিচ এরপর খেলেছেন ইন্টার মিলান, বার্সেলোনা, এসি মিলান (২০১০-১২ ও ২০২০ থেকে এখন পর্যন্ত), পিএসজি ও ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে।
চলতি মৌসুমে ইব্রাহিমোভিচ লিগে ৭টি গোল করেছেন। ইউরোপে সব লিগ মিলিয়ে একটি পূর্ণ মৌসুমে ইব্রাহিমোভিচের সবচেয়ে ভালো গোল-গড় পিএসজির হয়ে ২০১৫-১৬ মৌসুম। সেবার লিগ ওয়ানে গড়ে প্রতি ৬৭ মিনিটে একটি করে গোল করেছিলেন তিনি। সেবারই এক মৌসুমে লিগে তার ক্যারিয়ার সর্বোচ্চ অ্যাসিস্টের রেকর্ডও গড়েছিলেন (১৩টি)। ওই মৌসুমে লিগে তিনি গোল করেন ৩৮টি। গোলের উদ্দেশ্যে ১৫৫টি শট নিয়ে তার সফলতার হার ছিল ২৪.৫২ অংশ।
ইউরোপের শীর্ষ পাঁচ লিগে ইব্রাহিমোভিচ তার প্রথম মৌসুমে (২০০৪-০৫) জুভেন্টাসের হয়ে লিগে ১৬টি গোল করেছিলেন। বার্সেলোনায় পেপ গার্দিওলার দলে সময়টা খুব সুখকর না হলেও ২০০৯-১০ মৌসুমে দলটির হয়ে লা লিগায় ১৬টি গোল করেছিলেন ইব্রাহিমোভিচ।
শীর্ষ পাঁচ লিগ মিলিয়ে এই সুইডিশের ৩০০ গোলের অর্ধেকের বেশি (১৫৪) এসেছে সেরি আতে। এরপরে রয়েছে লিগ ওয়ান (১১৩টি গোল)। কিছুদিন আগেই ইব্রাহিমোভিচ বলেছিলেন, ফুটবল থেকে অবসর পরবর্তী জীবনে কী করবেন সেটা নিয়ে অনিশ্চয়তা থেকে তিনি যতদিন সম্ভব খেলা চালিয়ে যেতে চান। এই বয়সেও যেভাবে ছুটে চলেছেন এবং দারুণ সব মাইলফলক স্পর্শ করছেন, তাতে অনায়াসেই হয়তো আরও অনেক দিন খেলতে পারবেন ৪০ বছর বয়সী এই মিলান তারকা।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন