শনিবার, ২১ মে ২০২২, ০৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ব্রাজিলের গরু বয়কট করছে ইউরোপ

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৮ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২:২২ পিএম

ব্রাজিলের গরুর গোস্ত বিক্রি না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইউরোপের সুপারমার্কেটগুলো। এর মধ্যে ডাচ মালিকানাধীন দুটি সহ ছয়টি বড় বড় চেইন সুপারমার্কেট অন্যতম। গতকাল শুক্রবার রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানা গেছে।
সুপারমার্কেটগুলো দাবি করেছে, আমাজন বন ধ্বংস করার প্রতিবাদে তারা ব্রাজিলের গরুর মাংস বিক্রি না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।
বয়কটকারী এসব সুপারমার্কেটের মধ্যে অন্যতম হলো- কারফুর বেলজিয়াম, ডেলহাইৎসে এবং আউখানের মতো বড় প্রতিষ্ঠান। এ ছাড়া নেদারল্যান্ডসের আলবার্ট হেইন, জার্মানির লিডল এবং যুক্তরাজ্যের সেইন্সবারি’স ও প্রিন্সেসও এই তালিকায় রয়েছে।
জার্মান মালিকানাধীন চেইন সুপারমার্কেট ‘লিডল নেদারল্যান্ড’ জানিয়েছে, নতুন বছরের শুরু থেকেই তাদের শপগুলোতে আর ব্রাজিলের গরুর মাংস পাওয়া যাবে না।
এমন বয়কটে নিশ্চিতভাবেই বড় ধরনের বাজার হারাতে চলেছে প্রক্রিয়াজাত মাংস বিক্রি করা ব্রাজিলের কোম্পানি জেবিএস এস এ।
সম্প্রতিক এক অনুসন্ধানে ‘রিপোর্টার ব্রাজিল’ অভিযোগ করেছে, বেআইনীভাবে বন উজাড় করে তৈরি খামার থেকে গরুর মাংস সরবরাহ করে জেবিএস।
এই প্রক্রিয়ায় প্রথমে গরুগুলোকে আমাজন বন উজার করে স্থাপন করা খামারে লালন পালন করা হয়। পরে সেগুলোকে কসাইখানায় পাঠানোর আগে বৈধ খামারে বিক্রি করা হয়। এভাবে গরুগুলো কোন জায়গা থেকে এল সেই তথ্য ধামাচাপা দেয়া হচ্ছে।
তবে জেবিএস কর্তৃপক্ষ রয়টার্সের কাছে দাবি করেছে, অবৈধভাবে বন উজারে তারা জিরো টলারেন্স দেখায়। শুধু তাই নয়, এমন সংশ্লিষ্টতা থাকায় তারা ইতোমধ্যেই ১৪ হাজার সরবরাহকারীর কাছ থেকে গরুর মাংস সংগ্রহ বন্ধ করে দিয়েছে।
সংস্থাটি এটাও জানিয়েছে যে, এত বড় একটি সেক্টরের সব সরবরাহকারী ও কসাইখানার ওপর নজরদারি করা সহজ ব্যাপার নয়। তবে তারা একটি সিস্টেম চালু করছে যার মাধ্যমে ২০২৫ সালের মধ্যে এ ধরনের নজরদারি চালানো সম্ভব হবে। সূত্র : রয়টার্স।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন