বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ০৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

জাভির ঘুম কেড়ে নিয়েছে বার্সা

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২:০১ এএম

ম্যাচের পুরোটা সময় জুড়েই চলল ঝুম বৃষ্টি। তাতে ফুটবলের স্বাভাবিক ছন্দে ছেদ পড়ল কিছুটা। সেভিয়ার বিপক্ষে পিছিয়ে পড়ার পর প্রথমার্ধেই ম্যাচে ফিরল বার্সেলোনা। দ্বিতীয়ার্ধে প্রতিপক্ষে একজন কম থাকার সুবিধা অবশ্য কাজে লাগাতে পারল না জাভি হার্নান্দেসের দল। বাধ সাধল পোস্টও। গতপরশু রাতে সেভিয়ার স্তাদিও র‌্যামন সানচেজ পিজহুয়ানে লা লিগার ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হয়েছে।
এদিন সেরা দলটি ছিল বার্সেলোনাই। সা¤প্রতিক সময়ে এমন দারুণ গোছানো ফুটবল কমই খেলেছে দলটি। কিন্তু তারপরও ম্যাচের ফলাফল পক্ষে আনতে পারেনি তারা। ম্যাচের ৩২তম মিনিটে আলেহান্দ্রো গোমেজের গোলে এগিয়ে গিয়েছিল সেভিয়া। এরপর প্রথমার্ধের শেষ দিকে রোনালদ আরাহোর গোলে সমতায় ফেরে বার্সেলোনা। তবে ৬৪তম মিনিটে সেভিয়ার ডিফেন্ডার জুলেস কুন্দে লাল কার্ড দেখে বহিষ্কার হলে ১০ জনের দলে পরিণত হয় সেভিয়া। কিন্তু সে সুযোগ কাজে লাগাতে পারেনি দলটি। ড্র মেনেই মাঠ ছাড়তে হয় তাদের।
স্বাভাবিকভাবেই জয়ের এমন সুযোগ হাতছাড়া করার পর বেশ হতাশ দলটির প্রধান কোচ জাভি হার্নান্দেজ। এমনকি হতাশায় নির্ঘুম রাত কাটবে বলেই জানিয়েছেন তিনি, ‘এটা অ¤ø-মধুর অনুভ‚তি। এমন ম্যাচের পর রাতে ঘুমানো কঠিন হবে। বিশেষ করে যখন আপনি জয়ের প্রত্যাশায় থাকেন, এবং প্রতিপক্ষে যখন একজন খেলোয়াড় কম থাকে। আমাদের ছেলেরা ম্যাচের প্রথমার্ধে মোমেন্টাম ধরে রাখতে পেরেছিল। দলও এগিয়ে গিয়েছিল। কিন্তু তারপরই আমরা বলের নিয়ন্ত্রণ ধরে রাখতে ব্যর্থ হই।’
ম্যাচে ৫৯ শতাংশ সময় বল দখলে রেখে বার্সেলোনা গোলের জন্য ২৩টি শট নেয়, যার সাতটি ছিল লক্ষ্যে। যেখানে সেভিয়া শট নিতে পারে মাত্র পাঁচটি। মাঠে প্রায় একক দাপটই ছিল তাদের। তাই হোঁচট খেলেও শিষ্যদের মাঠের লড়াইয়ের বেশ প্রশংসা করেছেন জাভি, ‘আমার মনে হয় আমরা ভালো পারফর্ম করেছিলাম, অবশ্যই আমাদের উন্নতি করতে হবে। আমরা একটি পয়েন্ট পেয়েছি, কিন্তু আমাদের ধৈর্য ধরতে হবে। আমরা সঠিক পথে আছি। কিন্তু এটা লজ্জার কারণ আমরা হোঁচট খেয়েছি।’
১৮ ম্যাচে ১১ জয় ও পাঁচ ড্রয়ে ৩৮ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে সেভিয়া। সমান ম্যাচে ৪৩ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে রিয়াল মাদ্রিদ। তিনে রিয়াল বেতিসের পয়েন্ট ৩৩। সাতটি করে জয় ও ড্রয়ে ২৮ পয়েন্ট নিয়ে সাত নম্বরে আছে বার্সেলোনা। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে জায়গা করে নিতে সেরা চারে আসতেই হবে তাদের। তাই প্রতিটি জয়ই খুব মূল্যবান দলটির জন্য। জাভির ভাষায়, ‘চ্যাম্পিয়ন্স লিগে জায়গা করে নিতে আমাদের জিততে হতো, কিন্তু ড্র হলেও আমি গর্বিত। আমরা আজ রাতে ভাগ্যবান ছিলাম না। আমি প্রত্যেককে নিয়ে গর্বিত। আমি যেমনটা চাই এই বার্সেলোনাকে দেখতে ঠিক তেমন দলই লাগছে। আজ (পরশু) রাতের সবচেয়ে বাজে বিষয় হচ্ছে ফলাফল।’
একই রাতে ইতালিয়ান সিরি ‘আ’-তে ক্যাগলিয়ারির বিপক্ষে ২-০ গোলে জিতেছে জুভেন্টাস। এ ম্যাচে গোল করে সিরি ‘আ’-তে ৫১৩ দিনের গোলখরা ঘোচালেন দলটির ইতালিয়ান উইঙ্গার ফেদেরিকো বেরনারদেশ্চি। প‚র্ণ তিন পয়েন্ট তুলে নিয়ে লিগ টেবিলের পাঁচে উঠে এল জুভেন্টাস। ১৯ ম্যাচে দলটির সংগ্রহ ৩৪ পয়েন্ট। ১৮ ম্যাচে ৪৩ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে ইন্টার মিলান।
বছরের শেষ ম্যাচটা জিতে দুই সপ্তাহের শীতকালীন বিরতি ভালোই উপভোগ করবে মাসিমিলিয়ানো আলেগ্রির দল। তবে আগামী বছর মাঠে ফিরে চ্যালেঞ্জ নিতে হবে কঠিন সূচির। জানুয়ারিতে নাপোলি, এএস রোমা ও এসি মিলানের মুখোমুখি হতে হবে জুভেন্টাসের। ১২ ফেব্রুয়ারি মুখোমুখি হতে হবে আতালান্তার।
করোনাভাইরাসের কারণে লকডাউন শেষে লিগ কেবল শুরু হয়েছে। এরপর আন্দ্রে পিরলো কোচ হয়ে আসার পর পুরো মৌসুমে গোল পাননি বেরনারদেশ্চি। তবে এ মৌসুমে বেরনারদেশ্চি নিজের সেরা ম্যাচটাই খেলেছেন বলে মনে করেন আলেগ্রি, ‘সে এখন পর্যন্ত মৌসুমের সেরা ম্যাচটা খেলেছে। কিন্তু এর চেয়েও ভালো করার ক্ষমতা আছে তার। এখন নিজেকে সে কোথায় রাখবে, সেটা তার সিদ্ধান্ত।’

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন