বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৪ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

আফগান অর্থনীতিতে যুক্তরাষ্ট্র আরো তারল্য জোগাবে

সংবাদ সম্মেলনে ব্লিঙ্কেন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২ জানুয়ারি, ২০২২, ১২:০১ এএম

২০২২ সালের পররাষ্ট্র নীতির রূপরেখা উল্লেখ করে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন আফগান অর্থনীতিতে আরো তারল্য রাখার সুযোগগুলোকে ‘গভীরভাবে’ দেখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার বিকেলে বছর-শেষের সংবাদ সম্মেলনে মার্কিন পররাষ্ট্রনীতি প্রধান ‘ইউক্রেনের প্রতি রাশিয়ার আগ্রাসন, ইরানের পারমাণবিক কর্মসূচি এবং নিয়ম-ভিত্তিক আন্তর্জাতিক ব্যবস্থাকে চ্যালেঞ্জ করার জন্য চীনের প্রচেষ্টা’ ২০২২ সালের কিছু প্রধান চ্যালেঞ্জ হিসাবে চিহ্নিত করেছেন। আফগানিস্তান সম্পর্কে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি উল্লেখ করেন যে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আফগান ট্রাস্ট ফান্ডে স¤প্রতি প্রায় ২৮ কোটি ডলার রিলিজে অংশ নিয়েছে। ‘এবং আমরা আফগানিস্তানের অর্থনীতিতে আরো তারল্য রাখার, জনগণের পকেটে আরো অর্থ দেয়ার উপায়গুলো গভীরভাবে দেখছি’, -তিনি যোগ করেন।

তিনি বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র অন্যান্য দেশ এবং অংশীদারদের সাথে এটি করছে এবং তাদের লক্ষ্য ছিল ‘এটি করার জন্য সঠিক প্রক্রিয়া স্থাপন করা যাতে তালেবানদের সরাসরি উপকার না হয়, সরাসরি জনগণের কাছে যায়’।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আফগানিস্তানে মানবিক সহায়তার বৃহত্তম একক প্রদানকারী এবং ইতোমধ্যে এ তহবিলে প্রায় ৫০ কোটি ডলার দিয়েছে। ওয়াশিংটন তালেবান শাসনকে সরাসরি সহায়তা দিতে অস্বীকার করার কারণে মার্কিন সহায়তা জাতিসংঘের সংস্থা এবং আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর মাধ্যমে যায়।

মি. বিøঙ্কেন বলেছেন যে, এ ধরনের নিষেধাজ্ঞার লক্ষ্য তালেবানরা যাতে আন্তর্জাতিক স¤প্রদায়ের প্রত্যাশা পূরণ করতে পারে তা নিশ্চিত করা। তিনি কাবুলের নতুন শাসকদের মনে করিয়ে দেন যে, স্বীকৃতি চাইলে তাদের নীতির সংস্কার করতে হবে। প্রস্তাবিত পদক্ষেপের মধ্যে রয়েছে মানবাধিকার সমুন্নত রাখা, চলাফেরার স্বাধীনতা, প্রতিশোধমূলক হামলা বন্ধ করা এবং সন্ত্রাসবাদ প্রতিরোধ করা।

চলতি সপ্তাহের শুরুতে বাইডেন প্রশাসন আফগানিস্তানে নারীদের অধিকার রক্ষার জন্য দুইজন বিশেষ দূত নিয়োগ করেছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বিøঙ্কেন বলেছেন যে, দূতরা ‘নারী, মেয়ে এবং অন্যান্য ঝুঁকিপূর্ণ জনগোষ্ঠীর মৌলিক স্বাধীনতা’র মতো বিষয়ে তার সাথে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করবে। এ নিয়োগ কাবুলে নতুন বিধিনিষেধ আরোপ করার পরে দেয়া হয়েছে। নতুন বিধিনিষেধে নারীদের পুরুষ সঙ্গী ছাড়া দীর্ঘ দূরত্ব ভ্রমণ করতে বা নিজে থেকে কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে নিষেধ করা হয়েছে। নিষেধাজ্ঞাগুলো তালেবানরা তাদের ১৫ আগস্ট দখলের পর যে অঙ্গীকার করেছিল তার লঙ্ঘন।

বাইডেন প্রশাসন তালেবানদের বিরুদ্ধে তাদের পশ্চাদপসরণমূলক নীতি পরিবর্তন করতে রাজি করার জন্য তাদের বিরুদ্ধে একাধিক নিষেধাজ্ঞাও বজায় রেখেছে। মন্ত্রী বিøঙ্কেন বলেছেন যে, এ উদ্বেগ সত্তে¡ও বাইডেন প্রশাসন একাধিক সাধারণ অনুমতি জারি করেছে তা নিশ্চিত করার জন্য যে, ‘অন্যান্য দেশ, প্রতিষ্ঠান, তাদের সহায়তায় (আফগানিস্তানে) এগিয়ে যেতে নির্দ্বিধায় এবং তাদের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞার প্রয়োগ বা বাস্তবায়ন নিয়ে উদ্বিগ্ন না হয়। অনুমতিগুলো মার্কিন কর্মকর্তাদের সরাসরি তালেবান এবং হাক্কানি নেটওয়ার্কের সাথে সম্পৃক্ততা রাখার অনুমতি দেয়।

‘আমরা এ সত্যটি সম্পর্কে খুব সচেতন যে, এই মুহূর্তে একটি অবিশ্বাস্যভাবে কঠিন মানবিক পরিস্থিতি রয়েছে, যা শীত শুরু হওয়ার সাথে সাথে আরো খারাপ হতে পারে। এবং তাই এটি মিত্র এবং অংশীদারদের সাথে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করার জন্য আমাদের জন্য তীব্র মনোযোগের ক্ষেত্র, তিনি বলেন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আগস্ট মাসে প্রায় সাড়ে ৯শ’ কোটি ডলারের আফগান সম্পদ জব্দ করেছে, তবে এটি পরিষ্কার নয় যে, ছাড়ের ফলে এসব হিমায়িত সম্পদ মুক্ত হবে কিনা। সূত্র : ডন অনলাইন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন