বৃহস্পতিবার, ১৯ মে ২০২২, ০৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৭ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

জয়ে বছর শুরু বার্সার, হারে রিয়ালের

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৪ জানুয়ারি, ২০২২, ১২:০১ এএম

করোনাভাইরাস ও চোটের থাবায় জর্জরিত বার্সেলোনার ১৭ জন খেলোয়াড় মাঠের বাইরে। ‘বি’ দলের অনেককে নিয়ে মায়োর্কার বিপক্ষে দল সাজান কোচ জাভি হার্নান্দেস। তবে এই ম্যাচেও ঠিকই ভাতে বাড়ল পুরনো চাল। লুক ডি ইয়ং একাই পেতে পারতেন তিন গোল। একটি প্রচেষ্টা বাধা পেল পোস্টে, আরেকটি ক্রসবারে। পরে জালের দেখা পেলেন এই ডাচ স্ট্রাইকার। মায়োর্কাকে হারিয়ে নতুন বছর শুরু করল কাতালান জায়ান্টরা। গতপরশু রাতে প্রতিপক্ষের মাঠে স্প্যানিশ লা লিগার ম্যাচটি ১-০ গোলে জিতেছে বার্সেলোনা। আর তাতে এক ম্যাচ পর লিগে জয়ের দেখা পেল কাতালান দলটি। বড়দিনের বিরতির আগে সেভিয়ার সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করেছিল তারা।
এদিকে, বড়দিনের বিরতি শেষে মাঠে ফেরাটা মোটেও সুখকর হলো না রিয়াল মাদ্রিদের। নিজেদের ভুলে শুরুতে পিছিয়ে পড়ার পর তারা বেশ কিছু সুযোগ তৈরি করলেও পারল না কাজে লাগাতে। ফলে হার দিয়ে নতুন বছর শুরু করল কার্লো আনচেলত্তির দল। ঘরের মাঠে রিয়ালকে ১-০ গোলে হারিয়ে দিয়েছে গেতাফে। ম্যাচের শুরুতে একমাত্র গোলটি করেন এনেস উনাল। লিগে ছয় মুখোমুখি লড়াইয়ের পর রিয়ালের জালে বল পাঠাতে পারল গেতাফে। গত এপ্রিলে গেতাফের মাঠ থেকে গোলশূন্য ড্র করে ফিরেছিল রিয়াল। এবার সেটাও পারল না তারা। লিগে টানা ১১ ও সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে টানা ১৫ ম্যাচ অপরাজিত থাকার পর হারের তেতো স্বাদ পেল লা লিগার সফলতম ক্লাবটি। ২০১২ সালের পর এই প্রথম তাদের বিপক্ষে জিতল গেতাফে।
১৯ ম্যাচে আট জয় ও সাত ড্রয়ে ৩১ পয়েন্ট নিয়ে পঞ্চম স্থানে উঠেছে বার্সেলোনা। দুই ম্যাচ কম খেলা সেভিয়া ৩৮ পয়েন্ট নিয়ে আছে দ্বিতীয় স্থানে। সেল্টা ভিগোর বিপক্ষে ২-০ গোলে হারা রিয়াল বেতিস ৩৩ পয়েন্ট নিয়ে তিন নম্বরে আছে। ১৮ ম্যাচে ৩৮ পয়েন্ট নিয়ে দুইয়ে সেভিয়া। আরেক ম্যাচে রায়ো ভায়োকানোর বিপক্ষে ২-০ গোলে জেতা অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ ৩২ পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থ স্থানে আছে। ২০ ম্যাচে ১৪ জয় ও চার ড্রয়ে ৪৬ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে রিয়াল।
করোনা ছাপ রেখে চলেছে ইংলিশ ফুটবলেও। আক্রান্ত হওয়ায় নিয়মিত গোলরক্ষক আলিসন, ডিফেন্ডার জোয়েল মাতিপ ও ফরোয়ার্ড রবের্তো ফিরমিনোকে এই ম্যাচে পায়নি লিভারপুল। একই কারণে ডাগআউটে থাকতে পারেননি দলটির কোচ ইয়ুর্গেন ক্লপ। অন্যদিকে, কিছুদিন আগে এক সাক্ষাৎকারে ‘চেলসিতে সুখে নেই’ বলে মন্তব্য করা রোমেলু লুকাকুকে স্কোয়াডে রাখেননি কোচ টমাস টুখেল। তবে মাঠে নেমে দুই গোলে পিছিয়ে পড়ার পর চেলসি ঘুরে দাঁড়াল দুর্দান্তভাবে। চার মিনিটের মধ্যে লিভারপুলের জালে তারা বল পাঠাল দুইবার। দুই দলের গোলরক্ষক করলেন দারুণ কিছু সেভ। রোমাঞ্চ, উত্তেজনার ভেলায় ভেসে সমতায় শেষ হলো লড়াই।
স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে রাতে প্রিমিয়ার লিগের হাইভোল্টেজ ম্যাচটি ২-২ গোলে ড্র হয়েছে। সবগুলো গোলই হয়েছে প্রথমার্ধে। লিভারপুলের হয়ে একটি করে গোল করেন সাদিও মানে ও মোহামেদ সালাহ। চেলসির দুই গোলদাতা মাতেও কোভাচিচ ও ক্রিস্টিয়ান পুলিসিক। ২০ ম্যাচে ১২ জয় ও ৬ ড্রয়ে ৪২ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে লিভারপুল। এক ম্যাচ বেশি খেলে ১২ জয় ও ৭ ড্রয়ে ৪৩ পয়েন্ট নিয়ে চেলসি আছে দুই নম্বরে। চেলসির সমান ম্যাচে ৫৩ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে শিরোপাধারী ম্যানচেস্টার সিটি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন