রোববার, ২২ মে ২০২২, ০৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২০ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

সারা বাংলার খবর

ফরিদপুরের সালথায় দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত-১৫

ফরিদপুর জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৮ জানুয়ারি, ২০২২, ৬:০৬ পিএম

ফরিদপুরের সালথায় গ্রাম্যদলাদলি নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয়পক্ষের অন্তত ১৫ জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে বেশ কয়েকজনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারী) সালথা উপজেলার গট্টি ইউনিয়নের সিংহপ্রতাব গ্রামে সংঘর্ষের এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

স্থানীয় একাধিক বাসিন্দা জানান, গ্রাম্যদলাদলি ও আধিপত্য বিস্তার নিয়ে সিংহপ্রতাব গ্রামের বাসিন্দা ইউপি নব-নির্বাচিত সদস্য শাহজান শেখের সাথে সাবেক ইউপি সদস্য ইব্রাহিম মোল্যার দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। কয়দিন আগে এনিয়ে দুই পক্ষের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এরপর থেকে গ্রামে উত্তেজনা চলছিল। একপর্যায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে মঙ্গলবার, উভয়পক্ষের লোক দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারি) সকাল ৮টা থেকে দুই ঘন্টাব্যাপী চলে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষ।

সংঘর্ষের ঘটনায় উভয়পক্ষের অন্তত ১৫ জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে ইউপি সদস্য শাহজান শেখ, সোহেল মাহমুদ, হোসেন শেখ, সত্তার খালাসী, সুরুজ খালাসী, সুজাদ খালাসী ও ফরহাদ শেখকে ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা করা হয়েছে। বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়।

সাবেক ইউপি সদস্য ইব্রাহিম মোল্যা বলেন, গ্রাম্যদলাদলিকে কেন্দ্র করে সকালে আমার দলের সমর্থক সুরুজ খালাসী আর সুজাদ খালাসীর উপর অতর্কিতভাবে হামলা করে শাহজান শেখের লোকজন। এনিয়ে পরে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়।

নব-নির্বাচিত ইউপি সদস্য শাহাজান বলেন, বেশ কয়েকদিন ধরে আমাদের গ্রামে গ্রাম্যদলাদলি নিয়ে উত্তেজনা চলছিল। কোনো কারণ ছাড়াই সকালে আমার দলের সমর্থক ময়না নামে এক নারীর দোকানে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করে ইব্রাহিম মোল্যার সমর্থকরা। খবর পেয়ে আমার লোকজন এগিয়ে আসলে সংঘর্ষ বেধে যায়। তারা দীর্ঘদিন ধরে এলাকার বিশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সৃষ্টি করতে মরিয়া হয়ে উঠেছে।

সালথা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আশিকুজ্জামান গণমাধ্যম কে বলেন, সকালে সংঘর্ষের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করে। পরিবেশ শান্ত রাখতে ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন