শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ১১ আষাঢ় ১৪২৯, ২৪ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

সারা বাংলার খবর

পিরোজপুরে সাংবাদিক আমীর খসরুর মায়ের লাশ উদ্ধার

পিরোজপুর জেলা সংবাদদাতা : | প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০২২, ১২:০১ এএম

পিরোজপুরের নিজ বাসা থেকে ভয়েস অব আমেরিকার বাংলাদেশ প্রতিনিধি আমীর খসরুর মা সেতারা হালিমের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। পরিবারের লোকজনের অভিযোগ রাতে শ^াসরোধ করে সিতারা হালিমকে হত্যা করে লাশ ঘরের মেঝেতে ফেলে রাখা হয়েছে।

গতকাল সোমবার সকালে পিরোজপুরের সিআইপাড়া এলাকার নিজ বাস ভবন থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। নিহত সিতারা হালিম পিরোজপুর পৌরসভার সিআইপাড়া এলাকার মৃত প্রফেসর আব্দুর হালিম হাওলাদারের স্ত্রী।
সিতারা হালিমের মেয়ে সালাম আরজু জানান, শহরের সিআইপাড়া এলাকার তাদের নিজেদের বাসায় ২য় তলায় তার মা একা থাকতো। গত রোববার রাতে সর্বশেষ তার মায়ের সাথে কথা হয়। আজ সকালে তাদের বাসায় রং করার জন্য আব্দুল কুদ্দুস নামের একজন তাদের বাসায় এসে দরজায় ডাকাকাকি করলেও তার মা দড়জা না খুললে সে বাসার নিচের তলায় ভাড়াটিয়ার কাছে বিষয়টি জানান। পরে অনেক সময় অতিবাহিত হলেও দরজা না খুললে ভাড়াটিয়া ও রং মিন্ত্রী পিছনের দরজা দিয়ে ডাকতে গেলে তারা দেখতে পায় পিছনের দরজা খোলা আছে। তখন তারা বাসায় ভেতরে ঢুকে দেখতে পায় তার মা সিতারা হালিম মেঝেতে পড়ে আছেন। এ সময় তাদের বাসার ভাড়াটিয়া তাকে বিষয়টি ফোন দিয়ে জানালে তিনি ও তার স্বামী বাসায় এসে তার মা ঘরের মেঝেতে পড়ে আছে এবং তার গলায় আঘাতের চিহ্ন আছে এবং ঘরের আলমারি ও আসবাবপত্র এলোমেলো ভাবে পড়ে আছে দেখতে পান। পরে তারা পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়।
পিরোজপুর জেলা হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. স্বাগত হালদার জানান, মৃত অবস্থায় সিতারা হালিম নামে এক বয়স্ক নারীকে হাসপাতালে আনা হয়েছিলো। তার গলায় আঘাতের চিহ্ন আছে।
পিরোজপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) থান্দার খায়রুল হাসান জানান, সকালে খবর পেয়ে পুলিশ সিতারা হালিমের লাশ উদ্ধার করে হাসপাতালে প্রেরণ করে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে শ্বাসরোধ করে রাতে তাকে হত্যা করে ঘরের ভিতরে ফেলে রাখা হয়েছিলো। এ বিষয়ে পুলিশ তদন্ত করে দেখছে এবং আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধিন আছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Google Apps