মঙ্গলবার, ২৮ জুন ২০২২, ১৪ আষাঢ় ১৪২৯, ২৭ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

মক্কা মদিনায় হজযাত্রীদের বাড়ী ভাড়া শুরু হয়নি

৩১ মে প্রথম হজ ফ্লাইট শুরু ব্যয় বাড়তে পারে হজ প্যাকেজের

শামসুল ইসলাম | প্রকাশের সময় : ২৩ মে, ২০২২, ১২:০২ এএম

চলতি বছরের বিমানের প্রথম হজ ফ্লাইট (বিজি-৩৪০১) আগামী ৩১ মে চালু হচ্ছে। সরকারি ব্যবস্থাপনার ৪১৫ হজযাত্রী নিয়ে জেদ্দার উদ্দেশ্যে ঢাকাত্যাগের কথা। হজযাত্রীর অভাবে পাঁচ দিন পর বিমানের দ্বিতীয় হজ ফ্লাইট (বিজি-৩০০১) আগামী ৫ জুন জেদ্দার উদ্দেশ্যে ঢাকাত্যাগ করবে। সরকার হজ ফ্লাইট ঘোষণা করলেও অদ্যাবধি বেসরকারি হজ এজেন্সির মালিকরা মক্কা-মদিনায় হজযাত্রীদের বাড়ী ভাড়া করতে সউদী যেতে পারেনি। ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে গতকাল রোববারও হজযাত্রীদের বাড়ী ভাড়ার চেক ইস্যু করা সম্ভব হয়নি। ফলে এজেন্সির মালিকরা আইবিএএন এর মাধ্যমে বাড়ী ভাড়ার টাকা সউদী পাঠাতে পারছে না। সরকার ঘোষিত হজ প্যাজেকের পর গত ১২ মে হাব বেসরকারি হজ প্যাকেজ ঘোষণা করে। বেসরকারি হজ প্যাকেজের মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে জনপ্রতি ৪ লাখ ৬৩ হাজার ৭৪৪।

এদিকে, ঢাকাস্থ সউদী দূতাবাস আজ সোমবার হজ এজেন্সির মালিকদের মুনাজ্জেম ভিসা ইস্যু কার্যক্রম শুরু করবে। হাব সভাপতি এম শাহাদাত হোসাইন তসলিম গতকাল রাতে এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এক প্রশ্নের জবাবে হাব সভাপতি বলেন, আগামী ৩১ মে বিমানের হজ ফ্লাইট শুরু হলেও বেসরকারি হজযাত্রীদের ফ্লাইট আগামী ১০ জুনের আগে সম্ভব হবে না। তিনি বলেন, হজ এজেন্সিগুলোর ব্যাংক একাউন্ট নম্বর দিলেই ধর্ম মন্ত্রণালয় হজযাত্রীদের বাড়ী ভাড়ার টাকার চেক ইস্যু করবে। সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজযাত্রীদের মক্কা-মদিনায় বাড়ী ভাড়া করার জন্য ধর্ম মন্ত্রণালয়ের একটি উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধি দল মক্কায় ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছে। ধর্ম মন্ত্রণালয়ের হজ শাখার সহকারী সচিব এস এম মনিরুজ্জামান গতকাল ইনকিলাবকে জানান, সউদি সরকার মুয়াল্লেম ফি এখনো ঘোষণা করেনি।

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী ৮ জুলাই ১৪৪৩ হিজরীর পবিত্র হজ অনুষ্ঠিত হবার কথা। সউদী সরকারের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এবার বাংলাদেশ থেকে ৫৭ হাজার ৫৮৫ জন হজযাত্রী হজে যাবেন। এর মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় ৪ হাজার বাকি সব বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে যাবেন। গতকালও ১২টি হজ এজেন্সি দর কষাকষির দরুণ তিনশত হজযাত্রীর হজে প্রেরণের জন্য অন্য এজেন্সির সাথে লীড কার্যক্রম সম্পন্ন করেনি। এসব হজযাত্রী চরম হতাশায় দিন কাটাচ্ছেন।

এদিকে, চলতি বছর হজ প্যাকেজের মূল্য আরো বাড়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। হাবের একাধিক সূত্র জানায়, সউদী সরকার অঘোষিতভাবে মুয়াল্লেম ফি, সার্ভিস চার্জ এবং মিনা-আরাফা-মুজদালিফা, মক্কা মদিনা বাস বাড়াসহ অন্যান্য চার্জ বাবদ হাজী প্রতি ৬ হাজার ২৪৩ রিয়াল নির্ধারণ করতে যাচ্ছে। এতে বর্তমান ঘোষিত হজ প্যাকেজের চেয়ে ৬১ হাজার ৫৬৮ টাকা ব্যয় বাড়তে পারে। আজ কালের মধ্যে সউদী হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে হজ মৌসুমে সংশ্লিষ্ট সউদীর চূড়ান্ত মুয়াল্লেম ফি’ ঘোষণা দেয়ার কথা। সউদী আরবের একাধিক সূত্র ও হাবের একজন ইসি সদস্য এতথ্য জানিয়েছেন। হজ ব্যবস্থাপনার কার্যক্রম ঢিলেঢালা হওয়ায় সাউদিয়া আরাবিয়ান এয়ারলাইন্স চলতি বছরের হজ ফ্লাইট সিডিউল এখনো ঘোষণা করেনি। হাবের একজন ইসি সদস্য গতকাল ইনকিলাবকে বলেন, ২৪ টাকা ৩০ পয়সা হারে সউদি রিয়ালের বিনিময় হার ধরা হয়েছিল। কিন্ত বর্তমানের সউদি রিয়ালের বিনিময় মূল্য ২৭ টাকায় দাঁড়িয়েছে। এছাড়া সউদি মুয়াল্øেম ফি ঘোষিত হলে বর্তমান হজ প্যাকেজের সাথে আরো অতিরিক্ত প্রায় ৬১ হাজার ৫৬৮ টাকা যোগ হবে। এতে এবার সর্বনিম্ন হজ প্যাকেজের মূল্য ৫ লাখ ২৫ হাজার ৩১২ টাকা দাড়াবে। উল্লেখ্য, চলতি বছর শতভাগ হজযাত্রীর (সিলেট ও চট্টগ্রাম বাদে) সউদি অংশের ইমিগ্রেশন বাংলাদেশেই সম্পন্ন করা হবে। মক্কা রুট ইনিশিয়েটিভ এর আওতায় হজযাত্রীদের কল্যাণে প্রি-অ্যারাইভাল ইমিগ্রেশন বাংলাদেশেই সম্পন্ন করার জন্য ডেডিকেটেড হজ ফ্লাইট হওয়া বাধ্যতামূলক। মক্কা রুট ইনিশিয়েটিভ এর কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন এবং এর অগ্রগতি নিয়ে গতকাল ঢাকাস্থ সউদী দূতাবাসে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। হজযাত্রী পরিবহনে ডেডিকেটেড হজ ফ্লাইট হিসেবেই সর্বোচ্চ বিমান ভাড়া ১ লাখ ৪০ হাজার টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। ইতিপূর্বে ঢাকাস্থ সউদি রাষ্ট্রদূত এক সংবাদ সম্মেলনে ঘোষণা দিয়েছিলেন, বাংলাদেশি হজযাত্রীদের ভোগান্তি লাঘবে সউদি অংশের ইমিগ্রেশন কার্যক্রম বাংলাদেশেই সম্পন্ন করা হবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Google Apps