সোমবার, ২৭ জুন ২০২২, ১৩ আষাঢ় ১৪২৯, ২৬ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

যুক্তরাষ্ট্র পঙ্গু হয়ে গেছে, বারাক ওবামার ক্ষোভ

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৫ মে, ২০২২, ১২:৫০ পিএম

যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যে একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নির্বিচারে গুলি চালিয়ে ২১ জনকে হত্যার ঘটনায় ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা। এ ঘটনার জেরে রিপাবলিকান আইনপ্রণেতা ও দেশটির ন্যাশনাল রাইফেল অ্যাসোসিয়েশনকে সম্পূর্ণভাবে দায়ী করেছেন ওবামা।

এক টুইট বার্তায় ওবামা বলেছেন, ‘ভয় নয় বরং একটি বন্দুক লবি ও একটি রাজনৈতিক দলের দ্বারা যুক্তরাষ্ট্র প্যারালাইজড বা পঙ্গু হয়ে গেছে।’

আরেক টুইটে ওবামা বলেন, ‘দেশজুড়ে বাবা-মায়েরা তাদের বাচ্চাদের বিছানায় শুইয়ে দিচ্ছেন, গল্প শোনাচ্ছেন, গান গাইছেন। তবে তারা চিন্তিত যে, আগামীকাল তাঁরা তাদের বাচ্চাদের স্কুলে নামিয়ে দেওয়ার পর কিংবা তাদের নিয়ে মুদি দোকান বা অন্য কোনো জায়গায় যাওয়ার পর কী ঘটতে পারে!’

ওবামা আরো বলেন, ‘রাজনৈতিক দলগুলো চাইলে এ ধরনের সহিংসতা প্রতিরোধ করতে পারে। কিন্তু, তাঁরা কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করতে ইচ্ছুক নয়।’

টেক্সাসের ওই প্রাথমিক বিদ্যালয়ে হামলায় যারা নিহত হয়েছে তারা দ্বিতীয়, তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিল। যুক্তরাষ্ট্রের প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোয় যারা এসব শ্রেণিতে পড়ে তাদের বয়স সাধারণত ৭ থেকে ১০ বছরের মধ্যে হয়ে থাকে। এ ছাড়া সেখানকার তিন শিক্ষকও নিহত হয়েছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উভালদের পুলিশ কর্মকর্তা পিট আরেদোন্দো। তবে, ১৮ বছর বয়সী বন্দুকধারী সালভাদর রামোস পুলিশের গুলিতে নিহত হয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের তথ্য অনুযায়ী, গুলির ঘটনার পর সংবাদ সম্মেলনে গ্রেগ অ্যাবোট বলেন, ‘ওই সময় দুই পুলিশ কর্মকর্তা আহত হয়েছেন। তবে তাদের অবস্থা গুরুতর নয়।’

ধারণা করা হচ্ছে, ওই বন্দুকধারী একাই হামলা চালিয়েছেন। তবে কেন হামলা চালিয়েছে তা এখনো জানা যায়নি।

গ্রেগ অ্যাবোট আরও বলেন, ‘বন্দুকধারী সালভাদর রামোস গাড়ি নিয়ে ওই স্কুলে ঢুকেছিলেন। তাঁর হাতে একটি বন্দুক ছিল। ধারণা করা হচ্ছে, তাঁর সঙ্গে আরেকটি রাইফেল ছিল।’

এই ঘটনার পর দেশটির জাতীয় পতাকা আগামী ২৮ মে পর্যন্ত অর্ধনমিত রাখার নির্দেশ দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ধারণা করা হচ্ছে, আজ বুধবার হোয়াইট হাউস থেকে তিনি জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দেবেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
ম নাছিরউদ্দীন শাহ ২৫ মে, ২০২২, ১:৩৪ পিএম says : 0
বিশ্বের দেশে দেশে ভয়ংকর যুদ্ধাপরাধের মত অপরাধ করেও যুক্তরাষ্ট্র নিস্পাপ। আফগানিস্তান ইরাকের লক্ষ লক্ষ সাধারণ নির অপরাধ মানুষ কে হত্যাকরে কবরস্থানে পরিণত করেছে আমেরিকা। ইউক্রেন রাশিয়ার যুদ্ধে প্রকাশ‍্যেই ইন্দনদাতা অর্থ ও অস্ত্রদাতা আমেরিকা। পৃথিবীর একমাত্র অশান্তির কারণেই আমেরিকা। ট্রিলিয়ন ট্রিলিয়ন ডলারের শক্তিশালী ডলারের এই একক পরাশক্তির বিরুদ্ধে চীনের অর্থনৈতিক যুদ্ধ বিশ্বের দ্বিতীয় পরাশক্তি রাশিয়া কঠোরভাবে জবাব দিচ্ছেন। হাজারো হাজার অপরাধ করে ও গনতন্ত্র মানবধিকারের একমাত্র ঠিকা দার আমেরিকা। এখন আমেরিকা পৃথিবীর নিরাপত্তাহীন দেশ। শিশু যুবক ছাত্রছাত্রী অভিবাবক অদিবাসীরা শপিংমল দোকান রেস্টুরেন্টে যে কোন সময় মৃত্যুর শিরোনাম হবে। আমেরিকার এই কঠিন পরিস্থিতি জন্যে দায়ী নৈতিক শিক্ষা পারিবারিক শিক্ষা সামাজিক শিক্ষা নেই। উলঙ্গপনা বেহায়াপনা আধূনিক যুগের অধপতনের দেশে পরিণতি হলো। মহামারীর গজবের আজাবের মাঝে শিক্ষা হয়নি তাদের বারকোটি আক্রান্ত আর আটার লক্ষ মানুষের অবস্থা কঠিন প্রায় দশলক্ষের অধিক আমেরিকান মহামারীতে মৃত্যু।পৃথিবীর সব্বোউচ্ছ মৃত্যুর রেকর্ড এত কিছুর পর ও করোনা ভাইরাস পরবর্তীতে মানুষের কিছুই পরিবর্তন হয়েছে???।আমেরিকার গনতন্ত্রের দোকানে মানুষের জীবনের নিরাপত্তা শূন্যের কোঠায়।এই লজ্জা ঘৃণ্য অপরাধ নিরঅপরাধ শিশুর মৃত্যু পৃথিবীর কোথাও হয়েছে? ওবামার কথা যুক্তরাষ্ট্র পঙ্গু হয়ে গেছে। পৃথিবীতে লক্ষ লক্ষ মানুষের জীবন ধ্বংস করার হাজারো হাজার শিশুদের হত‍্য করার সত্যিকার অনুসন্ধানমূলক প্রতিবেদন প্রকাশ হয়নি। বিচারপতির বিচার হচ্ছে হবে। চলবে।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Google Apps